বুধবার, জুলাই ১৭

ইমরান খানের আমেরিকা সফরে তাঁকে নিজের বাড়িতেই রাখবেন ট্রাম্প, জানাল হোয়াইট হাউস

দ্য ওয়াল ব্যুরো: নিজের বাসভবন হোয়াইট হাউসেই পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানকে স্বাগত জানাবেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। এই মাসের ২২ তারিখে ইমরান খান পৌঁছচ্ছেন আমেরিকা সফরে। ট্রাম্পের সঙ্গে বৈঠক করবেন তিনি। সূত্রের খবর, আমেরিকা ও পাকিস্তানের সম্পর্ক আরও মজবুত করার দিকেই বেশি জোর দেওয়া হবে বৈঠকে। শান্তি, স্থিতি ও অর্থনৈতিক বৃদ্ধি আরও বাড়ানোই মূল লক্ষ্য এই বৈঠকের।

ইসলামাবাদ সূত্রের খবর, আমেরিকা সফরে গিয়ে ওয়াশিংটন ডিসিতে অবস্থিত পাক রাষ্ট্রদূত আসাদ মজিদ খানের বাসভবন থাকবেন বলে আগেই জানিয়েছিলেন ইমরান খান। দেশের খরচ কমানোর জন্যই এই ব্যবস্থা ঠিক করেছিলেন তিনি। মার্কিন রাষ্ট্রপতি ডোনাল্ড ট্রাম্প-সহ অন্যান্য মার্কিন আধিকারিকদের সঙ্গে বৈঠকও সেখান থেকেই করতে যাবেন বলে ঠিক করেছিলেন৷

যদিও তাঁর এই সিদ্ধান্তে কিছুটা হলেও মনক্ষুণ্ণ হয়েছিল ওয়াশিংটন৷ তাঁদের দাবি ছিল, যে কোনও দেশের রাষ্ট্র প্রধান মার্কিন সফরে এলে, নিরাপত্তার সমস্ত দায়িত্ব থাকে আমেরিকার গোয়েন্দা দফতরের উপরে৷ তারাই সেই রাষ্ট্রনেতার নিরাপত্তা নিশ্চিত করেন৷ কিন্তু ইমরান খান পাক রাষ্ট্রদূতের বাসভবনে থাকলে, সেই ব্যবস্থায় অনেকটাই অসুবিধা হবে বলে অনুমান মার্কিন বিশেষজ্ঞদের৷

কিন্তু সব পক্ষের দাবিকেই নস্যাৎ করে দিয়ে নিজের বাসভবনে ইমরানকে রাখবেন বলে জানিয়েছেন খোদ প্রেসিডেন্ট। হোয়াইট হাউস সূত্রের খবর, ২২ জুলাই ইমরান খানকে স্বাগত জানানোর প্রস্তুতিও শুরু হয়ে গিয়েছে ইতিমধ্যেই।

প্রসঙ্গত, পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী হওয়ার পরে এই প্রথম ডোনাল্ড ট্রাম্পের সঙ্গে বৈঠক করবেন ইমরান খান৷ যে বৈঠকের দিকে চেয়ে রয়েছে নয়াদিল্লিও৷ ভারতের আশা, এই বৈঠক থেকে সন্ত্রাসবাদ ইস্যুতে পাকিস্তান কড়া বার্তা দেবেন ডোনাল্ড ট্রাম্প৷ আমেরিকা, ফ্রান্স, ইংল্যান্ড-সহ অন্যান্যদের সহায়তায় ইতিমধ্যেই জঙ্গি মাসুদ আজহারকে আন্তর্জাতিক জঙ্গির তকমা দিয়েছে রাষ্ট্রসংঘ৷ দীর্ঘ টালবাহানার পর যে প্রস্তাবকে সমর্থন করেছে পাকিস্তানের সব ঋতুর বন্ধু চিনও৷
এর পরে এই বৈঠকে কী হয়, সে দিকেই তাকিয়ে রয়েছে সকলে।

Comments are closed.