রবিবার, নভেম্বর ১৭

রবি শাস্ত্রী ঘুমোচ্ছেন প্যাভিলিয়নে, মাঠে চলছে ম্যাচ, তোলপাড় নেট দুনিয়া

দ্য ওয়াল ব্যুরো: পাকিস্তানের অধিনায়ক সরফরাজকে মনে করালেন ভারতীয় ক্রিকেট দলের কোচ রবি শাস্ত্রী। সরফরাজকে দেখা গিয়েছিল বিশ্বকাপে ভারত-পাক ম্যাচে মাঠে দাঁড়িয়ে হাই তুলতে। আর রাঁচিতে দক্ষিণ আফ্রিকার সঙ্গে টেস্ট চলাকালীন প্যাভিলিয়নে চেয়ারের উপর পা তুলে টানটান ঘুম লাগালেন বিরাট কোহলি, মহম্মদ শামিদের হেড স্যার।

বিধানসভা, লোকসভার অধিবেশন চলাকালীন নেতামন্ত্রীদের ঘুমের ছবি ভারতে জলভাত। কিন্তু তা বলে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ম্যাচ চলাকালীন ক্রিকেট দলের কোচ প্যাভেলিয়নে ঘাড় হেলিয়ে ঘুমোবেন? এই ছবি প্রকাশ্যে আসতেই হইহই পড়ে গিয়েছে নেট দুনিয়ায়। শাস্ত্রীকে নিয়ে বিদ্রুপের বন্যা বয়ে যাচ্ছে ফেসবুক, টুইটারে।

টেস্ট সিরিজ হোয়াইটওয়াশ করার ব্যপারে কোনও সংশয় নেই ভারতীয় শিবিরে। রোহিত শর্মা-বিরাট কোহলি, উমেশ যাদব-মহম্মদ শামি, অশ্বিন-জাদেজারা কোচ রবি শাস্ত্রীকে অনেকটাই নিশ্চিন্ত করে দিয়েছেন। শাস্ত্রী এতটাই নিশ্চিন্ত যে, খেলা চলাকালীনই গ্যালারিতে বসে দিব্যি ঘুমিয়ে গেলেন!

কেউ বলছেন, “সোমবার তো, এরম অনেকেরই হয়।” আবার কেউ বলছেন, “ভাগ্য করে এমন একটা চাকরি পাওয়া যায়।” কেউ আবার তাঁকে নিজের বেতনের কথা মনে করিয়ে দিয়ে বলছেন, “ওঁকে বছরে ১০ কোটি টাকা কি ঘুমোনোর জন্য দেওয়া হয়?” কেউ আবার লিখেছেন, “আসলে দাদা বোর্ড সভাপতি হওয়ার পর টেনশনে বেশ কিছুদিন ঘুমোননি শাস্ত্রী। ক্লান্ত হয়েই হয়তো ঘুমিয়ে পড়েছেন!”

যে ছবি প্রকাশ্যে এসেছে তাতে দেখা যাচ্ছে বাংলার ক্রিকেটার ঋদ্ধিমান সাহা বসে রয়েচ্ছেন শাস্ত্রীর পিছনে। ঋদ্ধির চোখ কিন্তু মাঠের দিকেই। কিন্তু কোচের কোনও হেলদোলও নেই। কলকাতা কর্পোরেশনের বাজেট অধিবেশনে একবার তৎকালীন মেয়র বিকাশ ভট্টাচার্যের ‘ঘুমোনোর’ ছবি রাজ্য রাজনীতিতে হইচই ফেলে দিয়েছিল। কিন্তু বিকাশবাবু তৎকালীন মেয়র বলেছিলেন, “আমি মোটেই ঘুমোচ্ছিলাম না। মন দিয়ে, চোখ বন্ধ করে বক্তৃতা শুনছিলাম।” শাস্ত্রী এই অজুহাতও খাঁরা করতে পারবেন না! এখন ভারতীয় ক্রিকেট দলের কোচ কী বলেন সেটাই দেখার।

পড়ুন দ্য ওয়াল পুজো ম্যাগাজিনের বিশেষ লেখা

Comments are closed.