Latest News

Browsing Tag

magazine

আজ স্নানের দিন

অদিতি বসুরায় (৬)রাজর্ষি সিংদেও   আগে এতো ঘুমের সমস্যা ছিল না।  আজকাল দেরি হয় ঘুম আসতে রাতে। সারাদিন এতো ব্যস্ত থাকি, তবু বিছানায় পড়লে আর কিছুতেই দু চোখের পাতা এক হতে চায় না । ভোরের দিকে সামান্য তন্দ্রা আসে। আর সকালে যখন সবার উঠে…

আজ স্নানের দিন

অদিতি বসুরায় (৫)অনেকেই বলে, মেয়েদের অবস্থান নাকি আমাদের এখনকার সমাজে অনেকখানি এগিয়েছে- আমাকে দেখে যাক তারা। সারা জীবন শুধু মেয়ে বলে আমাকে যা যা ঝামেলা পোহাতে হয়েছে, তা বলে শেষ করা যাবে না। মনে পড়ে, সেদিন আমার হাতে মাত্র কুড়িটি টাকা।…

আজ স্নানের দিন

 অদিতি বসুরায় তৃতীয় পর্ব খাবার টেবিলে গিয়ে দেখে, লুচি। আহা লুচি! সঙ্গে আলুর তরকারি। সাদা আলুর সঙ্গে কালো জিরে - কাঁচালঙ্কা দেওয়া তরকারি, তার খুব প্রিয়। মাও খাচ্ছে পাশে বসে। মা আবার লঙ্কা কামড়ে খায়। এতো ঝাল যে কি করে খায় মেয়েরা? মা টক খেতে…

আজ স্নানের দিন

অদিতি বসুরায় দ্বিতীয় পর্ব  -কিরে, ডাকছি যে কখন থেকে। শুনতে পাচ্ছিস না, নাকি? সে পাশ ফিরে ঘাপটি মেরে থাকার উদ্যোগ করে আবার। যদিও জানা কথা, মা এবার  ঠিক ঘরে ঢুকে পড়বে। -রণো, ওঠ, বাবা! চা ঠাণ্ডা হয়ে যাচ্ছে যে! -উঠছি তো ! -ওঠ, লক্ষী…

আজ স্নানের দিন 

অদিতি বসুরায় প্রথম পর্ব রণদীপ সিদ্দিকি - ছোটবেলায় ইস্কুল যাওয়ার পথে ছিল সেই বাড়িটা। যার দেওয়ালের গায়ে দেখা যেত, কীসের যেন সব গর্ত আর কালো কালো দাগ– বড় হয়ে জানতে পারা গিয়েছিল, গর্তগুলো আসলে বুলেটের দাগ। পাড়ার লোকে বলত, ওই…

হাড়ের বাঁশি (অষ্টত্রিংশতি পর্ব)

আলু, বেগুন, গাঁটি কচু, কচি লাল মুলো কাঁসার গামলায় সমান মাপে কেটে জলে ভেজানো আছে। কাঠের আখায় বড় লোহার কড়াইতে ঝাঁঝালো সর্ষের তেলে দু একটা শুকনো লঙ্কা আর পাঁচফোড়ন। বড়ি সামান্য ভেজে আগেই তুলে রাখা হয়েছে। বিউলির ডাল ফেটিয়ে তৈরি সামান্য হিং দেওয়া…

বারাণসী : একটি শহরের কথকতা

অমিতাভ রায় জল ছাড়া জীবন অচল। সেইজন্যই জলকে ঘিরে গড়ে ওঠে জনপদ। সমাজসভ্যতার সূচনালগ্ন থেকে এমনটাই রীতি। জলের যোগান ফুরিয়ে এলে বুড়িয়ে যায় জনপদ। তা সে গ্রাম-নগর-বন্দর যাই হোক না কেন। পৃথিবীর সব প্রান্তেই জল ও জীবনের এই অঙ্গাঙ্গী সম্পৰ্ক…

হাড়ের বাঁশি (সপ্তত্রিংশতি পর্ব)

আশ্রমের ঘরে বন্যার তন্দ্রায় কতগুলি অস্পষ্ট দৃশ্য ভেসে উঠল। খুব যে পরিচিত এমন নয় আবার অপরিচিতও বলা যায় না। ক্ষণিকের জন্য পৃথ্বীশের মুখ এসে অস্ফুট স্বরে দু-একটি কথা বলল, আবার পরক্ষণেই শ্যাম তালুকদারের হাসিমুখ ফুটে উঠেই মিলিয়ে গেল…

হাড়ের বাঁশি (ত্রাত্রিংশ পর্ব)

পাঁচ বৎসর পূর্বের দিনটি মনে পড়ছে। তখন তুমি চঞ্চলা প্রজাপতির মতো উজ্বল। আমারও বয়স কম এবং আমি চেষ্টা করছি আমার নিজের পথ খুঁজে নেওয়ার। সেই অস্থির সময়ে তুমি এসেছিলে। প্রেমিকা নয়, বান্ধবী নয়, কোনও সম্পর্কও নয়, এক ভুবনহীন অলীক জগতের আখ্যান নিয়ে…

হাড়ের বাঁশি (ত্রয়োদশ পর্ব )

৬ এপ্রিল। ১৮২৩ প্রায় পাঁচ মাস হল কলিকাতায় এসেছি। গত মাস থেকে বাতাস এত তপ্ত হয়ে উঠেছে যে মনে হয় কোনও কারখানার বয়লারের সামনে দাঁড়িয়ে আছি! দ্বিপ্রহরে বাড়ির বাইরে যাওয়া যায় না। পথঘাটও শুনশান, মাঝে মাঝে দু একটি ফিরিওয়ালার ডাক শুধু শোনা যায়।…

হাড়ের বাঁশি (দশম পর্ব)

কাঁসার বাটিতে রাখা কাতলা মাছের একবিঘত বড়ো পেটির দিকে তাকিয়ে ঈশ্বর রাওয়ের ইতস্তত ভাব দেখে ঋষা পাশ থেকে অল্প হেসে জিজ্ঞাসা করল, 'আর ইউ কমফোর্টেবল উইথ দিস?' স্নান শেষে একফেরতা করে সাদা ধুতি পরেছেন ঈশ্বর, গায়ে একখানি সাদা ফুলহাতা জামা,…

হাড়ের বাঁশি ( নবম পর্ব)

কড়ি বরগার ওপর উইপোকাদের নক্সা। আলকাতরা মাখানো হয়েছিল সেই বুড়ো কর্তার আমলে, তারপর আস্তে আস্তে ফিকে হয়ে এসেছে কালো রঙ। দুটো তির ছাদ থেকে খসে পড়েছে গত বর্ষায়। পুরনো রাজমিস্ত্রি ফকির মোল্লা দেখে বলেছিল, —ছোটকত্তা ইবার জলছাতটা করন লাগবি…

হাড়ের বাঁশি (অষ্টম পর্ব)

মাহাতোর ঠিক করে দেওয়া একখানি টোটোয় চড়ে বন্যা যখন ভেন্দা গ্রামে পৌঁছল, তখন বেলা প্রায় দশটা, রৌদ্র আড়মোড়া ভেঙে জেগে উঠেছে চরাচরে, যতদূর চোখ যায় ঝুমকোলতার মতো আলো ফুল ফুটেছে সবখানে। অল্পবয়সী টোটো-চালক গাড়ি থামিয়ে বন্যার দিকে চেয়ে বলল, 'দিদি,…

হাড়ের বাঁশি (চতুর্থ পর্ব)

নদটির পোড়ো ঘাট,ছোট ছোট বাংলা ইঁট বের করা পৈঠা। নরম শ্যাওলার পরত, খালি পা রাখলে সবুজ রঙ লেগে যায় পায়ের তলায়। মোটা কাছি দিয়ে টুকরো একখান নৌকো বাঁধা থাকে দিনমান,এপার ওপার করে। এদিককার মোতিগঞ্জ থেকে ওদিকের সোনারুন্দি যায় আর আসে, আসে আর…

হাড়ের বাঁশি (চতুর্থ পর্ব)

নদটির পোড়ো ঘাট,ছোট ছোট বাংলা ইঁট বের করা পৈঠা। নরম শ্যাওলার পরত, খালি পা রাখলে সবুজ রঙ লেগে যায় পায়ের তলায়। মোটা কাছি দিয়ে টুকরো একখান নৌকো বাঁধা থাকে দিনমান,এপার ওপার করে। এদিককার মোতিগঞ্জ থেকে ওদিকের সোনারুন্দি যায় আর আসে, আসে আর…

ধূসর শহরে বহতা জলধারা

অংশুমান কর “ওই ঘুমুচ্ছে রাজমোহন। না , না! মরে যায় নি। কাল সকালেই আবার জেগে উঠবে। অবশ্য ঠিক কখন, ভোরের দিকে না বেলা-করে, তা আমি বলতে পারি না। জানি না সে ছেঁড়া ধনুকের মত লাফিয়ে উঠবে, নাকি জেগে উঠে বহুসময় লেপ্টে থাকবে বিছানায়”। ঘুম থেকে একজন…

ধূসর শহরে বহতা জলধারা

অংশুমান কর “ওই ঘুমুচ্ছে রাজমোহন। না , না! মরে যায় নি। কাল সকালেই আবার জেগে উঠবে। অবশ্য ঠিক কখন, ভোরের দিকে না বেলা-করে, তা আমি বলতে পারি না। জানি না সে ছেঁড়া ধনুকের মত লাফিয়ে উঠবে, নাকি জেগে উঠে বহুসময় লেপ্টে থাকবে বিছানায়”। ঘুম থেকে একজন…

স্টেইনাবাদ

স্টেইন ঘরানার স্থাপত্যের বৈশিষ্ট্য হল প্রকৃতি-পরিবেশের সঙ্গে সাযুজ্য রেখে গৃহনির্মাণ। কৃত্রিমতা বর্জন করে প্রাকৃতিক আলো হাওয়ার ওপর স্টেইন অনেক বেশি নির্ভরশীল। একইসঙ্গে স্থানীয় ঐতিহ্যকে মিশিয়ে নিতে তিনি উৎসাহী।

“নিঃসীম উদ্যানের অর্কেস্ট্রা”- অভিজিৎ পালচৌধুরী

মৃণালিনী বর্তমান সময়ে যখন করোনার থাবা আস্তে আস্তে গ্রাস করে নিচ্ছে মানুষের স্বাভাবিক জীবন ও সম্পর্ক, দিনের আলোয় রাস্তাঘাট থেকে খোলা মাঠে অদ্ভুত নিস্তব্ধতার ছায়া, নিউ নর্মাল লাইফে নিজেকে মানিয়ে নিতে বাধ্য মন, ঠিক তখন অন্ধকারের সুর চিরে…

Shakuntala Barua: উত্তম কুমার মেয়েদের দেখলেই খেয়ে ফেলতেন না, মেয়েরাই নিজেদের সস্তা করত

ফিল্মস্টারদের দুটো পরিবার গড়ে ওঠে। একটা স্বামী-সন্তানদের সঙ্গে, আর একটা ইন্ডাস্ট্রির লোকজনদের বা বন্ধুদের নিয়ে পরিবার। তেমনি ইন্ডাস্ট্রির মহানায়ক কিছু নায়িকার দাদাও ছিলেন। তাঁদেরই একজন শকুন্তলা বড়ুয়া (Shakuntala Barua)। 'ভাইয়ের কপালে দিলাম…

হাড়ের বাঁশি (প্রথম পর্ব)

সায়ন্তন ঠাকুর ১ গহিন অরণ্যের মাঝে লজ্জাবতী দেহাতি কিশোরীর মতো চলে গেছে সুঁড়িপথ-দুপাশে সারি সারি শালাই আর সাজি গাছ। শালাইয়ের বর্ণ ধূসর আর সাজি ঘন কৃষ্ণবর্ণ- কে যেন পরম যত্নে একটি সাজি গাছের পাশে একখানি শালাই গাছ সাজিয়ে রেখেছে, পুনরায় একখানি…

দিল্লির বাংলা স্কুল

স্বয়ং জর্জ নাথনিয়েল কার্জন (লর্ড কার্জন) সবেমাত্র ভারতবর্ষের ভাইসরয় হিসেবে দায়িত্ব নিয়েছেন (৬ জানুয়ারি, ১৮৯৯)। তবুও কী কারণে যেন ১৮৯৯-এর ২৩ ফেব্রুয়ারি স্থাপিত হল দিল্লির প্রথম বাংলা স্কুল।

অংশুমান করের কবিতা

ছায়া রহস্যের আর এক নাম হল ছায়া যখন সে ঘনাইছে বনে বনে তখন সে যতটুকু আষাঢ়-শ্রাবণের, ততটুকুই রবীন্দ্রনাথের। আবার গাছের হলে তা যতখানি কাঠবিড়ালির ততখানিই পথিকের। নেতার হলে চলতে হবে তার পিছু পিছু আর, হায়, দলিতের হলে পাপ, মাড়ালেই। শত্রুর হলে…

সদর বাজার

অমিতাভ রায় সদর বাজারের অন্দরে প্রবেশ করা মোটেও কঠিন কাজ নয়। কারণ, এই বাজারের তো কোনও নির্দিষ্ট প্রবেশ পথই নেই। ধরাবাঁধা প্রস্থান পথও নেই। এমনকি কোনও খিড়কির দুয়ারও অনুপস্থিত। আপনি কি কনট প্লেস থেকে আসতে চান? তাহলে চেমস্-ফোর্ড রোড ধরে নতুন…

শার্লি এবদো সন্ত্রাসের পাঁচ বছর, ফের প্রকাশিত বিতর্কিত সেই মহম্মদের কার্টুন, শুরু হল মামলাও

দ্য ওয়াল ব্যুরো: দিনটা ছিল ২০১৫ সালের ৭ জানুয়ারি। ফ্রান্সের রম্য সাময়িকী 'শার্লি এবদো'র অফিসে অতর্কিতে ঢুকে পড়ে এলোপাথাড়ি গুলি চালাতে শুরু করে দুই ভাই সাইদ এবং শেরিফ কুয়াচি। সাময়িকীর সম্পাদক স্টেফানি শার্বনিয়ার, যিনি শার্ব নামে বেশি…

সিরি ফোর্ট

স্থাপত্যের বিষয়ে সেলজাক সম্প্রদায়ের মানুষ বরাবরই পারদর্শী। আলাউদ্দিন সেলজাকদের দক্ষতার স্বীকৃতি দিয়েছিলেন। সিরি ফোর্ট ও সংলগ্ন এলাকার নকশা প্রণয়ন থেকে শুরু করে নির্মাণ, সমস্ত দায়িত্ব সেলজাক স্থপতি, শিল্পী এবং শ্রমিকরা সামলে নিয়েছিলেন।…

কৃষ্ণাঙ্গ পার্লামেন্ট সদস্যকে ক্রীতদাসের সঙ্গে তুলনা, পত্রিকার বিরুদ্ধে বিক্ষোভে সামিল ফরাসি…

দ্য ওয়াল ব্যুরো: ফ্রান্সের এক কৃষ্ণাঙ্গ মহিলা পার্লামেন্ট সদস্যকে ক্রীতদাসের সঙ্গে তুলনা করেছে দেশেরই এক অতি-রক্ষণশীল পত্রিকা। ওই সাংসদকে চেনে বাঁধা অবস্থায় একটি ছবি দিয়ে মনগড়া একটি প্রবন্ধ ছেপেছে তারা। আর তাই নিয়ে শুরু হয়েছে বিক্ষোভ।…

ধৌলা কুঁয়া

অমিতাভ রায় দিল্লির বাসিন্দারা তো বটেই দিল্লির বাইরের মানুষও ধৌলা কুঁয়া নামের সঙ্গে পরিচিত। কারণ ধৌলা কুঁয়ার যানজট মাঝেমধ্যেই সংবাদপত্রের প্রথম পৃষ্ঠার খবর হয়। আর যাঁরা এই পথের নিত্যযাত্রী বা অবরেসবরে ধৌলা কুঁয়া দিয়ে যাতায়াত করেন তাঁরা তো…

প্রকাশিত হল বাংলায় প্রথম পূর্ণাঙ্গ ডিজিটাল সাহিত্য পত্রিকা ‘সুখপাঠ’

দ্য ওয়াল ব্যুরো: বাংলায় প্রথম পূর্ণাঙ্গ ডিজিটাল সাহিত্য পত্রিকা ‘সুখপাঠ’ প্রকাশিত হল আজ, শনিবার। ‘দ্য ওয়াল’ নিউজ পোর্টাল থেকে প্রকাশিত এই পত্রিকাটির ওয়েব অ্যাড্রেস www.sukhopath.in। এই মাসিক পত্রিকাটি পড়ার জন্য গ্রাহক হতে হবে পাঠকদের। আজ…

মালচা মহল

অমিতাভ রায় মাদার তেরেসা ক্রিসেন্ট। রাষ্ট্রপতি ভবনের চৌহদ্দির পিছনের পাঁচিলের পাশ দিয়ে বয়ে চলেছে মাদার তেরেসার নামাঙ্কিত এই সড়ক। চব্বিশ ঘণ্টা এখানে বহমান গাড়ির স্রোত। রাজধানীর অন্যতম ব্যস্ত রাস্তা। এয়ারপোর্ট এবং গুরগাঁও যাওয়ার সবচেয়ে সরল পথ।…

যে গাছটি গল্প বলে

মৌসুমী ঘোষ স্নান-খাওয়া-বাসনমাজা সেরে সুনেত্রা ফোনটায় নেট অন করতেই হোয়াটসঅ্যাপে কাকলি বউদির মেসেজ এল টং করে। ‘‘পাড়ায় কি কাণ্ড শুনেছ?” “পরশু আমফানের দিন বিকেলে কারেন্ট গেছে, এই এল। ফোনে চার্জ ছিল না।” রিপ্লাইটা ফরওয়ার্ড করার আগেই আবার টং,…

গোপন অসুখ

কাকলী দেবনাথ আমার জীবনের এক চরম গোপন অসুখের কথা আজ লিখতে বসেছি। ভয়ে আজকাল রাতে আমার ঘুম হয় না। গভীর রাতে সবাই যখন ঘুমে আচ্ছন্ন আমার ঘুম ভেঙে যায়। আমি চুপচাপ জানলার সামনে এসে দাঁড়াই। আমার শিরদাঁড়া বেয়ে একটা হিমশীতল অনুভূতি নেমে আসে। যদিও…

অদৃশ্য বশীকরণ

গৌর কারক বাস চলছে আপন গতিতে। মসৃণ রাস্তা। রাস্তায় খাল-ডোব নেই। থাকলেও বোঝা যায় না। লাক্সারি বাস। এ বাসে ঝাঁকুনি সেভাবে লাগে না। তবু আমার ঘুম আসছে না। বাসে আমার ঘুম হয় না। চাকরি করি। ডেলি প্যাসেঞ্জার। বাসে একঘণ্টা দশ-কুড়ি মিনিটের পথ। কয়েকজন…

গুলাবো সিতাবো— প্রতীকী বাস্তবতার এক অন্য ভাষ্য

হিন্দোল ভট্টাচার্য গুলাবো এবং সিতাবো, দুটি পুতুল। এই পুতুলদুটি দিয়েই শুরু হয় গুলাবো সিতাবো ছবিটি। কিন্তু যত ছবিটি গড়ায়, ক্রমশ আমরা বুঝতে পারি, আমরা প্রত্যেকেই সেই পুতুল। আর যখন বুঝতে পারি, তখন এক সাধারণ মানবিক ছবি পরিণত হয়ে যায় এক অসামান্য…

মানুর ঝাবরাচাচা ও একটা দেশি মুরগির গল্প

নীহারুল ইসলাম যদিও এই গল্প ঝাবরাচাচাকে নিয়ে। কিংবা বলা ভাল এটা একান্তভাবে মানুর ঝাবরাচাচার গল্প। যার আসল নাম গিয়াসুদ্দিন সেখ। কিন্তু সেই নাম কবে কোথায় হারিয়ে গিয়ে কীভাবে শুধু ‘ঝাবরা’ নামটিই প্রতিষ্ঠা পেয়ে যায়, যারা তাকে জন্ম থেকে চেনে কেউ-ই…

ফিরোজ শাহ কোটলা

অমিতাভ রায় ফিরোজ শাহ কোটলা বলতে দিল্লির অধিকাংশ বাসিন্দা ক্রিকেট স্টেডিয়ামই বোঝেন। যেকোনও অটো বা ট্যাক্সিকে ফিরোজ শাহ কোটলা যাওয়ার কথা বললে অবধারিতভাবে আপনাকে ক্রিকেট মাঠে পৌঁছে দেবে। এমনকি সারা বিশ্বের ক্রিকেটভক্তদের কাছে ফিরোজ শাহ কোটলা…

ভারত ভালবাসা

ঋষি গৌতম মাধবকাকাকে আমরা কমবেশি এড়িয়ে চলি। তিনি হঠাৎ হঠাৎ অদ্ভুত সব প্রশ্ন করে বসেন। যেমন জম্বুদীপ কেন নাম হল? ভারতবর্ষ নামটা কোথা থেকে এল? ব্রহ্মদেশ ভারত থেকে কত সালে বিচ্ছিন্ন হয়? এই সব। সব প্রশ্নের উত্তর আমাদের যে অজানা তা নয়, কিন্তু…

প্রাংশুপুরাণ

প্রতিভা সরকার '‘আঃ মাহা, বড় কষ্ট!’’ শয্যায় পাশ ফিরতে গিয়ে অর্ধস্ফুট স্বরে কাতরোক্তি করে ওঠে নবীন শ্রাবক ন্যায়াপুত্ত। তার শরীরের রক্তমুখী স্ফোটকগুলি বেদনায় বিষিয়ে ওঠে। অবচেতনে বোধহয় তার মনে ফিরে আসে তার স্নেহস্বরূপা মাতামহীর কথা, যার কাছে…

সহযাত্রী

সুন্দর মুখোপাধ্যায় আমার পাশে বসে এতক্ষণ ঝিমোচ্ছিল যে লোকটা, স্টেশন আসার আগে ধড়মড় করে উঠে বলল, “চলে এল?” আমি ব্যাগটা কাঁধে নিতে নিতে ঘাড় হেলালাম। লাস্ট লোকাল ফাঁকা, দরজার মুখে আগে থেকে যাবার দরকার নেই। বাইরে আকাশে বিদ্যুৎ চমকাচ্ছে মাঝে…

মন্থন

উজ্জ্বল রায় মাঝরাতে ওয়াক তোলার শব্দে ঘুম ভেঙে যায় ক্ষমার। তাকিয়ে দেখে মা পাশে নেই। মশারি তুলে বাইরে বেরিয়ে এসে দেখে, মা উঠোনে উবু হয়ে বসে নালির ধারে বমি করছে। বাথরুম অবধি যাওয়ার আর ওনার তর সয়নি...। দেখেই মাথায় রাগ চড়ে গেছিল ক্ষমার। ‘তখনই…

ঝাঁপ

গৌতম সাহা এইখানে জীবন অনেক সহজ। অনেক শান্ত। অনেক স্থির। সাদাকালো ছবির মতো। কোনও ধামাকা নেই। নেই কোনও মেগা ব্যাপার। জীবন খুব ঢিমে লয়ে চলে যাচ্ছে। তার শান্ত একটা গতি আছে। সেই গতি টের পাওয়া যায় না। জীবন বলতে যা বোঝায়, ঠিক সেইরকম বলা যায় না।…

দুই বাজারের গপ্পো

অমিতাভ রায় বাজার যাওয়ার কথা শুনলেই অনেকের মুখ বেজার হয়ে যায়। তবে দিল্লির 'বেঙ্গলি মার্কেট'-এ প্রথমবার এসে সব বাঙালিরই মুখ বেজার হয়ে যায়। এ কেমন ধারার বাঙালি বাজার? না আছে কোনও বাঙালির দোকান, না আছে এতটুকু বাঙালিয়ানা। একটা মাছের দোকানও নেই।…

মাটির গন্ধ

সায়ন্তনী বসু চৌধুরী হুস করে একটা সরু বাঁক ঘুরেই অফিসের রুপোলি ইনোভাটা গ্রামের রাস্তাটা ধরে ফেলল। মাঠের ধারের এবড়োখেবড়ো পথ। তার ওপর এখানে সেখানে জল আর কাদা জমে আছে। হবে নাই বা কেন? সকালে চড়া রোদ্দুর উঠলে সন্ধেরাতের দিকে রোজই তেড়ে বৃষ্টি।…

স্বমহিমায় শঙ্কু

বই-কথা ১৩৯৯ সালের পূজাবার্ষিকী আনন্দমেলায় প্রকাশিত হয়েছিল প্রোফেসর শঙ্কুর দু’টি অসমাপ্ত কাহিনি “ইনটেলেকট্রন” আর “ড্রেক্সেল আইল্যান্ডের ঘটনা”। পরে সেই অসমাপ্ত গল্প দু’টিই গ্রন্থবদ্ধ হলেও পাঠকের মনে আফশোস থেকে যায় গল্পটার শেষ জানার জন্য। আটাশ…

আক্ষরিক অর্থে অবিস্মরণীয় কিছু গল্প লিখেছিলেন রেবন্ত

ঋজু গঙ্গোপাধ্যায় বাংলা কল্পবিজ্ঞানের ইতিহাসের দিকে তাকালে আমরা সুস্পষ্ট দু’টি ধারা খুঁজে পাই। এদের মধ্যে একটিকে বলা চলে ক্লার্ক ও আসিমভ ঘরানা— যাতে বিজ্ঞানকে ব্যবহার করে রহস্য বা সমস্যার সমাধান খোঁজা হয়। সেই কাহিনিতেই মিশে যেতে পারে…

কোনও একজন

অনিরুদ্ধ চক্রবর্তী কত বয়স হবে রাঙাপিসির? ষাট? নাকি পঁয়ষট্টি? দূর থেকে দেখা যাচ্ছে, রাঙাপিসি আসছে। তাকে এখনও দেখেনি। দেখলে চিনতে পারবে কিনা, সন্দেহ। সামনে একটা বাস এসে দাঁড়াল। ফাঁকা। হেমন্তর দুপুরে বাস বোধহয় ফাঁকাই যায়। যাক, এই বাসে সে উঠছে…

এই একলা বৈশাখ কেটে যাবে অদূরেই

শুভঙ্কর দে আমাদের গোলদিঘিকে ঘিরে যে চড়কের মেলা বসে তার কোনও পূর্ব ইতিহাস নেই। একটা ছবি আছে। উডকাট ছবি দেখা যায়। লম্বা কাঠের গুঁড়ি তাতে বাঁশ বাঁধা আর দু’জন মানুষ লম্বা দড়িতে দু’প্রান্তে ঝুলে আছে। তার পেছনে দেখা যাচ্ছে হিন্দু কলেজ। আমরা…

পয়লা বৈশাখ ও মঙ্গল শোভাযাত্রা

জিষ্ণু বসু ‘নববর্ষ এল আজি/ দুর্যোগের ঘন অন্ধকারে...’, কবিগুরুর এই পংক্তি দু’টি এ বছর পয়লা বৈশাখে খুব প্রাসঙ্গিক মনে হচ্ছে। সারা দেশের সঙ্গে পশ্চিমবঙ্গেও লকডাউন চলছে। করোনার বিরুদ্ধে লড়াইতে ভারতবর্ষ অবশ্যই জিতবে। তবে নিরীহ মানুষের প্রাণ…

নববর্ষ শুভ হোক

সমর মিত্র শুভ নববর্ষ বলাই এখন দস্তুর। কারণ তিনি এসে গেছেন। সকলে তা-ই বলেন। কিন্তু আমি তা বলতে ভরসা পাচ্ছি না। কারণ ওই মহামারী। করোনা। সারা পৃথিবীকে পর্যুদস্ত করবে বলে সে উঠে-পড়ে লেগেছে। ভারত এবং তার অন্তর্গত এই রাজ্যও ধুঁকছে। চারিদিকে…

পয়লা বৈশাখে জৈড় গাছে জল, আদিবাসীদের আহ্বান, বিষমুক্ত করো পৃথিবী

মারাংবুরু মাহাত লকডাউনে পৃথিবী। পৃথিবীর এই বিচিত্র অসুখের নেপথ্যে সভ্যতার সংকট। করোনাভাইরাসের মতো সংক্রমণের মুখ্য কারণ জীববৈচিত্র, অরণ্য, জলাভূমির নিয়মিত ধ্বংসসাধন। করোনা-যুদ্ধে হয়তো বর্তমান সভ্যতা জয়ী হবে। তবে কতকিছুর বিনিময়ে, তার…