রবিবার, সেপ্টেম্বর ২২

নিহত সিপিএম কর্মীদের পরিবারকে চাকরি ও ক্ষতিপূরণ শুভেন্দুর

দ্য ওয়াল ব্য়ুরো:  ভোটের দিন পূর্ব মেদিনীপুরের গোপালপুর গ্রামে গুলিতে মৃত্যু হয়েছিল দুই সিপিএম কর্মীর। সে দিনই ঘটনায় দুঃখপ্রকাশ করেছিলেন রাজ্যের মন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারী। সমবেদনা জানাতে পাঠিয়েছিলেন দলের কর্মীদের। শনিবার নিহত সিপিএম কর্মী অপু মান্না ও যজ্ঞেশ্বর ঘোষের পরিবারের পাশে দাঁড়াতে ওই গ্রামে যান শুভেন্দু। মৃতদের  পরিবারের সঙ্গে দেখা করে পাঁচ লক্ষ টাকা করে চেক তুলে দেন । এছাড়াও অপু মান্নার স্ত্রী ও যজ্ঞেশ্বর ঘোষের ছেলের হাতে কাঁথি সমবায় ব্যাঙ্কের গ্রুপ ডি পদের নিয়োগপত্র তুলে দেন তিনি।

নন্দীগ্রামের মানুষের পাশে তিনি সবসময় ছিলেন এবং থাকবেন জানিয়ে শুভেন্দু বলেন, “নির্বাচনের সময় দু দলের মধ্যে ঠেলাঠেলি হতেই পারে। কিন্তু এ ভাবে গুলি করে খুনের ঘটনা অপরাধ। যারা এই ঘটনায় জড়িত তাদের বিরুদ্ধে অবিলম্বে তদন্ত করে আইনানুগ ব্যবস্থা নিতে হবে পুলিশকে। আমি কোন রাজনৈতিক দলের হয়ে আসিনি। সবার মন্ত্রী, বিধায়ক এবং প্রতিনিধি হিসেবে এসেছি। এ সব করে মৃত ব্যক্তিকে ফিরিয়ে আনা যায় না। শুধু পাশে দাঁড়াতে এসেছি।”

সিপিএম নেতা সুজন চক্রবর্তী অবশ্য একে নির্মম পরিহাস বলে উল্লেখ করেন। তিনি বলেন, “ খুনের পিছনে তৃণমূল রয়েছে। আবার তাদের নেতাই টাকা নিয়ে হাজির হচ্ছেন। তৃণমূলের তুলনা তৃণমূলই।”

Leave A Reply