Latest News

এটাই কি শেষ ম্যাচ? প্রশ্নের জবাবে ধোনি জানালেন ‘মনের কথা’

 

দ্য ওয়াল ব্যুরো : ক্রিকেট বিশেষজ্ঞদের একটা অংশ মনে করছেন, এম এস ধোনির এটাই উপযুক্ত সময় পুরোপুরি অবসর গ্রহণের। কেননা ত্রয়োদশতম আইপিএলের আসরে দেখা গিয়েছে ধোনি নামের প্রতি সুবিচার করতে পারছেন না। অনেক স্লথ হয়ে গিয়েছেন, টানা ইনিংস খেলার ধকল নিতে ব্যর্থ।

সব থেকে বড় বিষয়, ধোনির খেলার ট্রেডমার্ক ছিল কঠিন পরিস্থিতিতে ব্যাটিং করে দলের জয় এনে দেওয়া। বরফশীতল স্নায়ু দিয়ে বিপক্ষকে চাপে রাখা। এমনকি ইনিংসের মাঝপথে এসে নিজেকে ধীরে ধীরে পিকে নিয়ে যাওয়া। কিন্তু এবার সেই দৃশ্যটাই উধাও।

দলের যখন তাঁর ইনিংসের প্রয়োজন তিনি আউট হয়ে ফিরে গিয়েছেন। যে দলটির এত সাফল্য কোটিপতি লিগে, সেই দলটাই প্রথম বিদায় হয়ে গিয়েছে। চেন্নাই সুপার কিংসের সাফল্যের মধ্যমণি ছিলেন ধোনি। তাঁকে নিয়ে নানা আবেগ বর্ষিত হয় খোদ চেন্নাইতেও, তাঁকে ডাকা হয় ‘থালা’, মানে নেতা, লিডার।

তাঁকে ঘিরে যখন এতই সমালোচনা, সেইসময় সবাই ভেবেছিলেন ধোনি মনে হয় রবিবারই হায়দরবাদের বিপক্ষে ম্যাচ খেলে বিদায় জানাবেন আইপিএলকেও। কিন্তু এদিন দুপুরে যখন খেলা শুরুর আগে টস হচ্ছিল, সেইসময় ধারাভাষ্যকার ড্যানি মরিসন প্রশ্ন করেছিলেন মাহিকে, আপনার কী হলুদ জার্সিতে এটাই শেষ ম্যাচ হতে চলেছে? ধোনি সটান তাঁকে বলে দেন, ‘ডেফিনেটলি নট’, অবশ্যই নয়। তারপর ঘাড় নেড়েও জানান, ‘না, না…।’

 

চেন্নাই দলের ব্যর্থতার কারণ হিসেবে উঠে এসেছে দলে প্রবীন খেলোয়াড়দের আধিক্য। ওয়াটসন, ডু প্লেসি, কেদার যাদব, রায়ডু, ডোয়েন ব্র্যাভো, চাওলাদের গড় বয়স ৩৫-৪০-র কাছে, তাই নতুন কোনও তারকা উঠে আসছে না দলে। এমনকি ধোনিরও বয়স ৪০-র কোঠায়। সেই কারণেই মনে করা হয়েছিল এটাই তাঁর শেষ আইপিএল হতে চলেছে।

তার আগে যদিও সিএসকে-র শীর্ষ আধিকারিক কাশী বিশ্বনাথন জানিয়েছিলেন, ধোনিকে রেখেই সামনের বারও দলগঠন করা হবে। ধোনির মনের কথা শুনেই যে ওই কর্তা এমনটা বলেছিলেন, সেটিও বেশ বোঝা যাচ্ছে।

You might also like