Latest News

ট্রেনিং গ্রাউন্ডেই হার্ট অ্যাটাক, হাসপাতালে স্পেনের বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক ক্যাসিয়াস

দ্য ওয়াল ব্যুরো: রিয়েল মাদ্রিদ ছেড়ে ২০১৫ সালে যোগ দিয়েছেন পর্তুগিজ ক্লাব পোর্তোতে। তারপর থেকে সে দলের এক নম্বর গোলকিপার। ইতিমধ্যে পোর্তোর হয়েও জিতেছেন দুটি ট্রফি। কিন্তু বুধবার হঠাৎ করেই বিপর্যয়। ট্রেনিং চলাকালীন হার্ট অ্যাটাক হয় স্পেনের বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক তথা বিশ্বের অন্যতম সেরা গোলকিপার ইকের ক্যাসিয়াসের। সঙ্গে সঙ্গে হাসপাতালে ভর্তি করা হয় তাঁকে। শেষ পাওয়া খবর অনুযায়ী, এখন অনেকটা ভালো আছেন ক্যাসিয়াস।

বুধবার সকালে পোর্তোর ট্রেনিং গ্রাউন্ডে চলছিল প্র্যাকটিস। পর্তুগিজ লিগের দৌড়ে বেনফিকার থেকে পিছিয়ে থাকায় বেশ কঠোর অনুশীলনের মধ্যে দিয়ে যাচ্ছিলেন ফুটবলাররা। হঠাৎ করেই বুকে ব্যথা অনুভব করেন ক্যাসিয়াস। তারপরেই মাটিতে পড়ে যান তিনি। সঙ্গে সঙ্গে তাঁকে নিয়ে যাওয়া হয় পোর্তোর হাসপাতালে। সেখানেই সঙ্গে সঙ্গে তাঁর হার্টে অস্ত্রোপচার হয়েছে বলে জানা গিয়েছে।

হাসপাতাল সূত্রে জানানো হয়েছে, ক্যাসিয়াসের হার্টে একটু সমস্যা ছিল। সেখান থেকেই এই অ্যাটাক হয়। তাই অস্ত্রোপচার করতে হয়েছে। অস্ত্রোপচারের পর ভালো আছেন ক্যাসিয়াস। ধীরে ধীরে সুস্থ হয়ে উঠছেন তিনি। পোর্তোর তরফে জানানো হয়েছে, এই মরসুমে আর মাঠে নামবেন না কিংবদন্তী এই গোলকিপার। আপাতত পুরো বিশ্রামে থাকতে হবে তাঁকে।

ক্যাসিয়াসের হার্ট অ্যাটাকের খবর শুনে প্রাক্তন ও বর্তমান অনেক ফুটবলারই উদ্বিগ্ন হয়ে পড়েছিলেন। জানা গিয়েছে, তাঁর স্পেনের সতীর্থরা বারবার ফোন করে খোঁজ নিয়েছেন। ক্যাসিয়াসের প্রাক্তন ক্লাব রিয়েল মাদ্রিদের তরফেও সবরকম সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দেওয়া হয়েছে। আপাতত তাঁর সুস্থ থাকার খবরে স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলেছেন ফুটবলার থেকে শুরু করে সমর্থকরা।

রিয়েল মাদ্রিদের হয়ে ৫টি লা লিগা, ২টি কোপা দেল রে ও ৩টি চ্যাম্পিয়নস লিগ জিতেছেন ক্যাসিয়াস। এ ছাড়া স্পেনের হয়ে ২০০৮ ও ২০১২ সালের ইউরো কাপ এবং ২০১০ সালের বিশ্বকাপ জিতেছেন ক্যাসিয়াস। তিনবারই ফাইনালে স্পেনের গোলের দায়িত্বে ছিলেন তিনি। ২০১০ বিশ্বকাপ ও ২০১২ ইউরো কাপে স্পেনের অধিনায়কও ছিলেন এই কিংবদন্তী গোলকিপার।

You might also like