যে শাস্তি দেয়, সে প্রাণও বাঁচায়! ১২ দিনের শিশুর শ্বাস বন্ধ, কোলে নিল পুলিশ, তার পর…

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

    দ্য ওয়াল ব্যুরো: এলাকার আইনশৃঙ্খলা রক্ষার জন্য দায়িত্ব প্রাপ্ত তাঁরা। প্রশাসনিক বিষয়গুলিকে নির্ভুল রাখাই তাঁদের কাজ। ইউনিফর্ম পরা অবস্থায় তাঁরাই অন্যায়ের কঠোর সাজা প্রয়োগ করেন। কিন্তু সাউথ ক্যারোলিনার সাম্প্রতিকতম ঘটনা প্রমাণ করল, শুধু আইন রক্ষা নয়, প্রয়োজন পড়লে প্রাণ বাঁচাতেও পারে পুলিশ। ১২ দিনের এক শিশুকে বাঁচিয়ে কার্যত নায়কের ভূমিকা পালন করেছে সাউথ ক্যারোলিনা পুলিশ।

    ঘটনার পরে পুলিশের দফতরের তরফে ফেসবুকে একটি পোস্টও করা হয়। তাতে লেখা হয়, গত মাসের ১১ তারিখে অত্যন্ত দ্রুত ছুটতে দেখে একটি গাড়িকে থামায় পুলিশ। সঙ্গে সঙ্গে গাড়ি থেকে এক মহিলা বেরিয়ে এসে জানান, তাঁর ছোট্ট বাচ্চা শ্বাস নিতে পারছে না, তাকে নিয়ে তাড়াতাড়ি হাসপাতালে যাচ্ছেন তিনি। সে জন্যই বেশি হয়েছে গাড়ির গতি।

    বাচ্চাটির মা দাবি করেন, এক বোতল পানীয় খাওয়ার পরে আচমকা শ্বাস বন্ধ হয়ে গিয়েছে তাঁর সন্তানের। ঘটনাস্থলে উপস্থিত ডেপুটি পুলিশ কর্তা কিম্বরো বোঝেন, শিশুটির অবস্থা আশঙ্কাজনক। তাকে বাঁচাতে হলে, যা করার এখুনি করতে হবে।

    পুলিশ জানিয়েছে, বাচ্চাটি তত ক্ষণে নীল হয়ে গিয়েছে। ডেপুটি পুলিশ কিম্বরো তার পা ধরে, উল্টো করে ঝুলিয়ে, জীবনদায়ী প্রাথমিক চিকিৎসা করেন। কিছু ক্ষণের মধ্যেই শ্বাস নিতে শুরু করে শিশুটি। তত ক্ষণে অবশ্য খবর দেওয়া হয়েছে আপৎকালীন মেডিক্যাল পরিষেবায়। কিন্তু তার আগেই প্রাণ ফিরে পায় শিশুটি।

    দেখুন ভিডিও।

    Deputy W. Kimbro Saves 12-day-old Baby

    When we wear the uniform and badge, we become what someone needs at that moment. For one Deputy that meant he needed to become the line between life and death for one young child.On June 11, a Deputy was conducting routine patrol in the unincorporated Summerville area of Berkeley County when he stopped a vehicle for speeding. What happens next was all captured on his department-issued body camera.Upon stopping the vehicle, the driver immediately exited the car and exclaimed that the baby in her vehicle had stopped breathing. Deputy W. Kimbro knew he needed to act immediately to save the baby’s life. Deputy Kimbro made contact with the 12-day-old baby and her mother in the vehicle. The mother told the Deputy the baby stopped breathing after drinking a bottle. Deputy Kimbro took the baby’s limp and cyanotic body and performed lifesaving first aid. As a result, he was able to get the baby to breathe again until EMS could arrive. Because of Deputy Kimbro’s steadfast, professional and heroic response, the 12-day old baby was able to live. Please join us in congratulating Deputy Kimbro for his gallant actions that prolonged human life. He was awarded the “Life-Saving Medal” from Sheriff Lewis for his heroic actions that day. Well done!

    Berkeley County Sheriff's Office এতে পোস্ট করেছেন বৃহস্পতিবার, 11 জুলাই, 2019

    ভিডিও ফুটেজে দেখা গিয়েছে, কিম্বরো বাচ্চাটির মুখে হাত ঢুকিয়ে আলতো করে ম্যাসেজ করছেন। কিছু ক্ষণ পরেই কেঁদে ওঠে শিশুটি। পুলিশ জানায়, কেঁদে ওঠা মানেই তার শ্বাসের সমস্যা মিটে গেছে বলে বোঝা যায়। কিন্তু তবু, যত ক্ষণ না মেডিক্যাল টিম এসে পৌঁছচ্ছে, তত ক্ষণ শিশুটিকে ম্যাসেজ করতে থাকেন কিম্বরো।

    ফেসবুক পেজের পোস্টে পুলিশ জানায়, কিম্বরোর জন্যই বাচ্চাটি প্রাণ ফিরে পেল। তাঁর প্রশংসায় ফেটে পড়েছে নেট-দুনিয়াও। খুব তাড়াতাড়ি ভাইরাল হয়ে যায় ওই ফেসবুক পোস্ট। সকলেই অভিনন্দন জানান এই কাজকে।

    পরে শিশুকন্যাটিকে নিকটবর্তী হাসপাতালে নিয়ে গিয়ে ভাল করে পরীক্ষা করা হয়।

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

You might also like

Comments are closed, but trackbacks and pingbacks are open.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More