শনিবার, সেপ্টেম্বর ২১

পনিরের প্লেটে প্লাস্টিক! পুলিশে অভিযোগ দায়ের করলে ক্ষমা চেয়ে নিল জ়োম্যাটো

দ্য ওয়াল ব্যুরো: জমিয়ে ডিনার করবেন সকলে মিলে, এই ভেবে অনলাইন ফুড সার্ভিস অ্যাপ জ়োম্যাটোয় পনিরের পদ অর্ডার করেছিলেন তাঁরা। সময় মতো চলেও এল খাবার। কিন্তু প্যাকেট খুলে মুখে দিতেই বিপত্তি। চিবিয়েই চলেছেন, চলেছেন, এ কেমন পনির! দেখা গেল, পনিরের বদলে রয়েছে প্লাস্টিকের ফাইবার!

শুক্রবার সন্ধেয় মহারাষ্ট্রের ঔরঙ্গাবাদের এই ঘটনায় পুলিশে অভিযোগ দায়ের করেছেন সচিন জামদারে। তাঁর অভিযোগ, “চিনি পনির আর পনির মসালা অর্ডার করেছিলাম জ়োম্যাটোয়। আমার মেয়ে হঠাৎ বলে, পনিরগুলো খুব শক্ত, চিবোতে চিবোতে দাঁত ব্যথা হয়ে যাচ্ছে। তখনই আমি দেখি, পনির নয়, প্লাস্টিকের ফাইবার রয়েছে প্লেটে।”

সচিনের দাবি, এর পরে তিনি রেস্তোরাঁয় গিয়ে বিষয়টি জানালে, তাঁর সঙ্গে কথা বলেননি রেস্তরাঁ কর্তৃপক্ষ। উল্টে তাঁকে বলা হয়, জ়োম্যাটোর ডেলিভারি বয় হয়তো এরকম কিছু ঘটিয়েছে। এর পরেই পুলিশের দ্বারস্থ হন ওই ব্যক্তি। পুলিশ জানিয়েছে, “আমরা পরীক্ষা করে দেখেছি, অভিযোগ সত্যি। খাবারটাও পরীক্ষাগারে পাঠানো হয়েছে। সংশ্লিষ্ট সংস্থার বিরুদ্ধে পদক্ষেপ করা হবে।”

জ়োম্যাটো অবশ্য এই ঘটনার পরে ক্ষমা চেয়ে একটি বক্তব্য প্রকাশ করেছে। জানিয়েছে, ওই রেস্তরাঁটিকে তারা লিস্ট থেকে বাদ দিয়েছে। তাদের দাবি, খাবারের মান, পরিচ্ছন্নতা ও গ্রাহকের সন্তুষ্টিই তাদের প্রধান বিষয়।

গত মাসেই একটি ভাইরান ভিডিওয় দেখা গিয়েছিল, গ্রাহককে খাবার পৌঁছনোর পথে বাক্স খুলে খাচ্ছেন জ়োম্যাটোর এক ডেলিভারি বয়। সারা দেশে সমালোচনার ঝড় উঠেছিল এই ঘটনায়। এর পর থেকে জ়োম্যাটোর তরফে বিশেষ ট্যাম্পার-প্রুফ টেপ ব্যবহার করা শুরু হয়, যাতে সহজে খোলা না যায় খাবারের বাক্স। বা খুললেও তা বোঝা যায়।

তাই জ়োম্যাটো আগেভাগে ক্ষমা চাইলেও, এই ঘটনায় সন্দেহের আঙুল উঠেছে রেস্তরাঁর দিকেই।

Comments are closed.