Latest News

দিদিমণির পায়ে যেন জল না লাগে, স্যারের ঘুম যেন না ভাঙে… কী চলছে মথুরার স্কুলে! ভাইরাল ভিডিও

দ্য ওয়াল ব্যুরো: বাংলার শিক্ষকের চাকরিপ্রার্থীরা রাস্তায় বসে অনশন করছেন। প্রাক্তন শিক্ষামন্ত্রীর ঘনিষ্ঠের ঘর থেকে উদ্ধার হচ্ছে কোটি কোটি টাকা। ওদিকে ভারতের অন্য রাজ্যে শিক্ষক-শিক্ষিকাদের (Teachers) অন্য চিত্র। কেউ বা স্কুলে জল জমার কারণে ছাত্রদের চেয়ার বইয়ে এনে ব্রিজ (Chair Bridge) বানিয়ে নিচ্ছেন; কেউ আবার ক্লাস না নিয়ে ঘুমোচ্ছেন তাই হাওয়া (Airing) করছে ছাত্রী (Students)। সোশ্যাল মিডিয়ায় এই ধরনের ভিডিও দেখে শিক্ষক-শিক্ষিকাদের ভূমিকা নিয়ে উঠছে প্রশ্ন।

উত্তরপ্রদেশের মথুরা রাজ্যের বলদেও এলাকার এক স্কুলে বৃষ্টির জল জমেছে। ছোট বাচ্চাদের পায়ের পাতা পর্যন্ত সেই জল। কিন্তু সেই জলে পা ছোঁয়াবেন না দিদিমনি। তাই তিনি স্কুলের বাচ্চাদের বলেছেন, স্কুলের মেইন বিল্ডিং থেকে গেট পর্যন্ত পেতে দিতে প্লাস্টিকের চেয়ার। আর সেই চেয়ার ধরে জলের মধ্যে দাঁড়িয়ে আছে বাচ্চারা। আর চেয়ারের উপরে উঠে একটা একটা করে চেয়ার টপকে পার হচ্ছেন শিক্ষিকা। বাচ্চারা লাইন দিয়ে দাঁড়িয়ে আছে জলেই। দিদিমনিকে ধরে পার করে দিচ্ছে তারা। শিক্ষিকার এমন ঔদ্ধত্য দেখে সমালোচনা শুরু হয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়।

এই ঘটনা প্রসঙ্গে বিহারের একটি ঘটনার কথাও বলতে হয়। আরেকটি ভাইরাল ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, শিক্ষক চেয়ারে হেলান দিয়ে ঘুমাচ্ছেন। ছাত্রীরা বসে আছে সামনে। আর একজন ছাত্রী হাওয়া করছে শিক্ষককে, যাতে তাঁর ঘুম না ভাঙে!

শিক্ষক- শিক্ষিকাদের দায়িত্ব আগামী প্রজন্মকে তৈরি করা। স্কুলে পড়াতে এসে তাঁদের এই অদ্ভুত মনোভাব কী প্রভাব ফেলবে পরবর্তী প্রজন্মের উপর তাই নিয়ে বিস্তর সমালোচনা চলছে সোশ্যাল মিডিয়ায়।

‘কালো’ শিশুদের স্পর্শ করতে আপত্তি! বিনোদন পার্কের বিরুদ্ধে মামলা মার্কিন পরিবারের, দেখুন ভিডিও

You might also like