শনিবার, এপ্রিল ২০

দিল্লির কাছে ট্রেন ঢুকতেই ফের ডাকাতি, ২৪ ঘণ্টার মধ্যে পরপর দু’বার

দ্য ওয়াল ব্যুরো : দিল্লির কাছে দাঁড়িয়ে টাটা জেট এক্সপ্রেস। সিগনালের অপেক্ষায়।তখনই ট্রেনের ২টি কোচে হঠাৎ চিৎকার। কিছু সময়ের পর পুলিশ পৌঁছলে দেখা যায় দুই মুখোশধারী দুষ্কৃতী আগ্নেয়াস্ত্র দেখিয়ে যাত্রীদের জিনিসপত্র লুঠ করছে। পুলিশ কিছু বুঝে ওঠার আগেই লুঠের জিনিস নিয়ে চম্পট দেয় দুষ্কৃতীরা। বৃহস্পতিবার রাতে ফের দিল্লির কাছেই এভাবেই  ডাকাতি হয়। বুধবার ভোর রাতে একইভাবে জম্মু-দিল্লি দুরন্ত এক্সপ্রেসে ডাকাতি হয়েছিল। ২৪ ঘণ্টার মধ্যেই আবার ডাকাতি, সেই দিল্লিতেই। গোটা ঘটনায় আরপিএফের ভূমিকা বড়সড় প্রশ্নের মুখে।

পাঁচতারা হোটেলে যৌন হেনস্থা কানাডার তরুণীর, গ্রেফতার অভিযুক্ত হোটেলকর্মী

যাত্রীদের অভিযোগ দুপুর ২টোর সময় শেষ আরপিএফের দুই-একজনকে দেখা যায়। দুপুরের পর থেকে কার্যত কোনও কোচেই নিরাপত্তা রক্ষী ছিল না। আর সেই সুযোগ নিয়েই বৃহস্পতিবার রাত ২ টোর সময় লুঠ চালায় দুষ্কৃতীরা। গোটা ঘটনা সামনে আসতেই ফের প্রশ্নের মুখে রেলের সুরক্ষা ব্যবস্থা। বুধবার ভোর রাতে একইভাবে জম্মু-দিল্লি দুরন্ত এক্সপ্রেসে লুঠ চালায় দুষ্কৃতীরা। বৃহস্পতিবার মাঝ রাতে ফের ডাকাতির ঘটনা চিন্তায় ফেলেছে রেল কর্তৃপক্ষকে।

আরপিএফের এই গাফিলতির বিরুদ্ধে সরব হয়েছেন রেল যাত্রীরা। আরপিএফের বিরুদ্ধে ঢিলেমির অভিযোগ এনে অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। বড়সড় ক্ষতি না হলেও দুষ্কৃতীদের হামলায় আহত হয়েছেন কয়েকজন যাত্রী। নগদ কয়েক হাজার টাকা লুঠ হয়েছে বলে মনে করা হচ্ছে। ডাকাতি বা কোনওরকম বিপদে আরপিএফের ভূমিকা ঠিক কী তা জানতে চেয়েও রেল কর্তৃপক্ষকে চিঠি দিয়েছেন যাত্রীরা।

আরও পড়ুন-

ভোররাতে জম্মু-দিল্লি দুরন্ত এক্সপ্রেসে ডাকাতি, প্রশ্নের মুখে রেলের সুরক্ষা

 

Shares

Comments are closed.