Latest News

খাস কলকাতার বুকে মুখ বেঁধে, লাঠি হাতে, জয়শ্রীরাম ধ্বনি! আচমকা হামলা মহিলাদের উপর, আহত দুই

দ্য ওয়াল ব্যুরো: দুষ্কৃতীদের হাতে আক্রান্ত হয়ে জখম হলেন সমাজকর্মী ও মহিলাদের প্রতিরোধী সংগঠনের সদস্য দেবত্রী গোস্বামী! ‘জয় শ্রী রাম’ স্লোগান দিয়ে, লাঠি হাতে, তাঁর উপর এবং তাঁর সঙ্গে থাকা মহিলাদের উপর চড়াও হয় আট জন দুষ্কৃতীর একটি দল! এমনই অভিযোগ উঠল রবিবার সন্ধেয় খোদ কলকাতার বুকে, বাঘাযতীন এলাকায়।

সূত্রের খবর, দেবত্রী গোস্বামী ও তাঁর সঙ্গীসাথীরা মিলে ‘উইমেন ইন রেসিস্ট্যান্স’ নামের একটি সংগঠনের তরফে এনআরসি ও সিএএ নিয়ে সচেতনতা প্রচার করছিলেন যাদবপুর ও সংলগ্ন এলাকায়। ১৫-২০ জনের দল ছিলেন তাঁরা। বেশিরভাগই মহিলা। কয়েক জন বয়স্ক মানুষও ছিলেন। গাঙ্গুলিবাগান থেকে বাঘাযতীন এক নম্বর কলোনি অবধি গিয়ে, প্রচার শেষ করেছিলেন বলে জানিয়েছেন তাঁরা। তার পরে আট-দশ জন দাঁড়িয়ে কথা বলছিলেন একটি জায়গায়, চা খাচ্ছিলেন। তাঁদের অভিযোগ, আচমকাই মুখে কাপড় বাঁধা আট জন অচেনা ব্যক্তি লাঠি নিয়ে হামলা করে তাঁদের উপর। সে সময়ে তারা ‘জয় শ্রী রাম’ ধ্বনি দিচ্ছিল বলে পুলিশের কাছে জানিয়েছেন আক্রান্তরা।

পুলিশ জানিয়েছে, প্রত্যেককে মারধর করা হয়। দেবলীনা মজুমদার নামের এক মহিলা, যিনি পেশায় চিত্রশিল্পী, তিনিও ছিলেন ওই দলে। তাঁর ক্যামেরা ভেঙে দেওয়া হয় বলে অভিযোগ। উত্তেজনা তৈরি হলে স্থানীয় মানুষজনও ছুটে আসেন, আক্রমণকারীদের মধ্যে এক জনকে ধরেও ফেলা যায়।

মারধরে অভিযুক্ত যুবক

আক্রান্তরাই ওই যুবককে যাদবপুর থানায় নিয়ে গিয়ে অভিযোগ দায়ের করে। দেবলীনার মাথায় চোট লাগায় তাঁকে কেপিসি হাসপাতালে নিয়ে গিয়ে চিকিৎসা করানো হয়। অভিযোগের ভিত্তিতে এফআইআর দায়ের হয়েছে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে।

কবি জয় গোস্বামীর মেয়ে দেবত্রী গোস্বামী, যিনি বুকুন নামে সোশ্যাল মিডিয়ায় ও অন্যান্য জায়গায় পরিচিত, তিনি ফেসবুকে বিষয়টি জানান পরে। তিনি লেখেন, “বাঘাযতীন আই ব্লক মোড়ে আমাদের পথসভা শেষ হওয়ার পরে কয়েক জন দাঁড়িয়ে চা খাচ্ছিলাম। তখন আট জন ‘এবিভিপি গুন্ডা’ জয় শ্রী রাম বলতে বলতে, মুখ বেঁধে, হাতে এক মানুষ লম্বা বাঠি নিয়ে আমাদের উপর চড়াও হয়। …আমাদের কাছে প্রতিরোধের কিছু ছিল না। দু’জন হাসপাতালে ভর্তি। এক জনকে ধরতে পারি, তাকে যাদবপুর থানায় নিয়ে আসে পুলিশ। এফআইআর করা হয়।”

Baghajatin I block more e amader Feminist in Resistance shesh hoy, tarpor pothosibha bhenge jay, amra koyekjon…

Bukun Chorai এতে পোস্ট করেছেন রবিবার, 22 ডিসেম্বর, 2019

You might also like