Latest News

২০১৯ সালে ভোটের পরে ফের ভারতের সঙ্গে শান্তির চেষ্টা করব, বললেন ইমরান

দ্য ওয়াল ব্যুরো : ঠিক যেদিন পাকিস্তান হাইকমিশনের এক অফিসারকে ডেকে অনুপ্রবেশের জন্য ধমকে দিয়েছে দিল্লি, সেদিনই পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান বলেছেন, ভারতের দিকে আমরা বন্ধুত্বের হাত বাড়িয়ে দিয়েছিলাম। কিন্তু ভারত সাড়া দেয়নি। ভারতে ২০১৯ সালে ভোটের পরে আবার বন্ধুত্বের চেষ্টা করব।

গত সেপ্টেম্বর মাসে নিউ ইয়র্কে রাষ্ট্রসংঘের সাধারণ সভার অধিবেশনের এক ফাঁকে বিদেশমন্ত্রী সুষমা স্বরাজের সঙ্গে পাকিস্তানের বিদেশমন্ত্রী মাহমুদ হুসেন কুরেশির আলোচনায় বসার কথা ছিল।  কিন্তু ভারত রাজি হয়েও পরে পিছিয়ে যায়। পরে বিদেশমন্ত্রক জানায়, আমাদের কয়েকজন নিরাপত্তারক্ষী কাশ্মীরে খুন হয়েছেন। এক জঙ্গির ছবি দিয়ে পাকিস্তান ডাকটিকিট বার করেছে। এর পরে ওই দেশের সঙ্গে আলোচনায় বসা উচিত নয়।

ইমরান খান এখন পাকিস্তানের জন্য আর্থিক সাহায্য চাইতে সৌদি আরবে গিয়েছেন। রিয়াধ শহরে এক সাংবাদিক বৈঠকে তিনি বলেন, অন্যান্য যে কোনও দেশের চেয়ে পাকিস্তানের এখন বেশি প্রয়োজন শান্তি ও স্থিতিশীলতা। এই প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ভারতে ভোটের পরে নতুন করে শান্তির চেষ্টা করবেন।

তাঁর কথায়, পাকিস্তান এখন আইএমএফ এবং বন্ধু রাষ্ট্রগুলির থেকে আর্থিক সাহায্য চাইছে। অর্থনীতিকে চাঙ্গা করে তোলার জন্যই তার সাহায্য প্রয়োজন। তাছাড়া দেশে তেলের চাহিদা মেটানোর জন্য দুটি তৈল শোধনাগার তৈরী করা প্রয়োজন। সেজন্য আমি সৌদি আরবের বিনিয়োগকারীদের কাছে আবেদন জানাচ্ছি।

You might also like