Latest News

লকেটের দেখা নেই! সাংসদের উপর বীতশ্রদ্ধ পাণ্ডুয়ার লোকজন, পড়ল ‘নিখোঁজ’ পোস্টার

দ্য ওয়াল ব্যুরোঃ ভোট হয়েছে ২০১৯ সালে। কিন্তু তারপর থেকে হাতেগোনা কয়েকবার মাত্র দেখা মিলেছে এলাকার নির্বাচিত সাংসদের। যা নিয়ে ক্রমশ ক্ষোভ বাড়ছিল এলাকাবাসীর মধ্যে। এবার সেই ক্ষোভের বহিঃপ্রকাশ ঘটল। হুগলির বিজেপি সাংসদের নিখোঁজ পোস্টার পড়ল পাণ্ডুয়ায়। পাণ্ডুয়া বিডিও অফিস, পঞ্চায়েত অফিস ও তেলিপাড়া মোড় সহ বেশ কয়েকটি জায়গায় বুধবার সকালে এই পোস্টার দেখা যায়। তবে কারা এই পোস্টার লাগিয়েছে সেটা জানা যায়নি। কারণ পোস্টারের নিচে কারো নাম লেখা নেই। পোস্টারে লেখা- “নিখোঁজ সাংসদ লকেট চট্টোপাধ্যায়ের সন্ধান চাই।”

তৃণমূলের পাণ্ডুয়া ব্লক সভাপতি অসিত চট্টোপাধ্যায়ের অভিযোগ, হুগলির সাংসদকে বহু দিন দেখতে পায়নি এলাকাবাসীরা। এই পোস্টার আরও আগেই মারা উচিত ছিল। সাধারণ মানুষের ক্ষোভের বহিঃপ্রকাশ এভাবেই হয়। পাণ্ডুয়ার মানুষ তাঁকে খুঁজছে। করোনায় সময় লকেটের দেখা মেলেনি। আমফানের সময়েও খুঁজে পাওয়া যায়নি তাঁকে। এমনকি ওঁর দলের লোকেরাও তাঁকে দেখতে পাচ্ছেন না। দলের লোকরা বীতশ্রদ্ধ তাঁর উপর।

লোকসভা ভোটে তৃনমূলের সঙ্গে হাড্ডাহাড্ডি টক্কর দেওয়ার পর বিজেপির পক্ষে যে হাওয়া উঠেছিল, বিধানসভা নির্বাচনে ভরাডুবির পর তা স্তিমিত হয়ে যায়। লকেট চট্টোপাধ্যায়কে উত্তরাখণ্ডের নির্বাচনের দায়িত্ব দিয়ে পাঠায় বিজেপি। হুগলি যবুমোর্চার সভাপতি সুরেশ সাউ বলেন, সামনে পুরসভা নির্বাচন। তার আগে এই ধরনের পোস্টার মেরে তৃণমূল ফায়দা নেওয়ার চেষ্টা করছে। সাংদর দেশের প্রতিনিধিত্ব করেন। হুগলিতে এত বেশি করোনা টিকা এসেছে সাংসদের জন্য। সাংসদ তহবিলের টাকায় অনেক কাজ চলছে।

বিজেপি রাজ্য কমিটির সদস্য স্বপন পাল বলেন, সামনে থেকে লড়াই করতে না পেরে পিছন থেকে সাংসদের নামে কুৎসা করছে তৃণমূল। পাণ্ডুয়াতে তৃনমূলের মন্ত্রীকেও দেখা যায়না। লকেট চট্টোপাধ্যায় সংসদে শীতকালীন অধিবেশনে রয়েছেন। তাঁকে দল উত্তরাখণ্ডের দায়িত্ব দিয়েছে।

যদিও সেই অভিযোগ মানতে নারাজ তৃণমূল। তাঁদের দাবি, সাংসদ তহবিলে কী কী কাজ হচ্ছে, সেটা মূল বিষয় নয়। এলাকার মানুষ যদি তাঁদের দ্বারা নির্বাচিত সাংসদকে সামনে না পান, তাহলে ভবিষ্যতে এমন পোস্টার আবার পড়তে পারে।

উল্লেখ্য, এবারের বিধানসভা নির্বাচনে চুঁচুড়া থেকে লড়াই করে তৃণমূলের অসিত মজুমদারের কাছে পরাজিত হন লকেট চট্টোপাধ্যায়। লোকসভা ভোটে জেতার পর বিজেপির পক্ষে যে হাওয়া উঠেছিল, বিধানসভা নির্বাচনে ভরাডুবির পর তা স্তিমিত হয়ে যায়। অন্যদিকে, গতকাল থেকে সিঙ্গুরে শুরু হওয়া বিজেপি কিষাণ মোর্চার ধর্নায় বিজেপি শীর্ষ নেতৃত্ব উপস্থিত থাকলেও লকেট চট্টোপাধ্যায় অনুপস্থিত ছিলেন। তা নিয়ে তৃণমূল কর্মীরা সামাজিক মাধ্যমে লেখেন, বিজেপিতে ফের উইকেট পতন! তৃণমূলে যোগদানের জল্পনা বাড়িয়ে সিঙ্গুরের ধর্না বয়কট করেছেন হুগলির সাংসদ।

You might also like