Latest News

বিজেপি জোট ছাড়লেন আরও এক বিধায়ক, যোগ দেবেন অখিলেশের দলে

দ্য ওয়াল ব্যুরো : উত্তরপ্রদেশে (Uttar Pradesh) বিধানসভা ভোটের (Assembly Election) কয়েক সপ্তাহ আগে ফের ভাঙন ধরল শাসক জোটে। রাজ্যে ক্ষমতাসীন দল বিজেপির শরিক আপনা দলের (Apna Dal) বিধায়ক চৌধুরি অমর সিং এদিন জোট ছাড়লেন। এই নিয়ে তিন দিনে যোগী আদিত্যনাথের সরকার থেকে ইস্তফা দিলেন মোট ১১ জন। চৌধুরি অমর সিং এদিন স্পষ্ট জানিয়ে দেন, তিনি অখিলেশ সিং যাদবের সমাজবাদী পার্টিতে যোগ দিতে চলেছেন।

চৌধুরি অমর সিং-এর কথায়, “এই সরকার মিথ্যাবাদী। গত কয়েক বছরে উত্তরপ্রদেশে কোনও উন্নয়ন হয়নি। আমি আজ অখিলেশ সিং যাদবের সঙ্গে দেখা করেছি। তাঁর দলেই যোগ দেব। শীঘ্র আরও অনেকে আমার মতো বিজেপির সঙ্গ ত্যাগ করবেন।”

মঙ্গলবার যোগী আদিত্যনাথ মন্ত্রিসভা থেকে ইস্তফা দেন ওবিসি নেতা স্বামীপ্রসাদ মৌর্য। ওইদিনই ইস্তফা দেন তাঁর ঘনিষ্ঠ তিন বিধায়ক। তাঁরা হলেন ভগবতী সাগর, রৌশনলাল বর্মা এবং ব্রিজেশ প্রজাপতি। বুধবার বিজেপি ছাড়েন মন্ত্রী দারা সিং চৌহান এবং বিধায়ক অবতার সিং ভান্দানা। ভান্দানা আরএলডি-তে যোগ দেবেন। ওই দলটি সমাজবাদী পার্টির জোট শরিক। বৃহস্পতিবার দুপুরে জানা যায়, মন্ত্রী ধরম সিং সাইনি ইস্তফা দিয়েছেন। তাঁর সঙ্গে ইস্তফা দিয়েছেন তিন বিজেপি বিধায়ক। তাঁরা হলেন বিনয় শাক্য, মুকেশ বর্মা এবং বালা আওয়াস্থি। এরপর রাতে চৌধুরি অমর সিং-এর ইস্তফার কথা জানা গেল।

এদিন সাইনি বলেন, “দেড় বছর আগেই আমরা স্থির করেছিলাম, ইস্তফা দেব। পশ্চাৎপদ শ্রেণিগুলিকে যেভাবে বঞ্চনা করা হচ্ছে, তার প্রতিবাদে আমরা ১৪০ জন বিধায়ক ধরনা দিয়েছিলাম। কিন্তু আমাদের কথা কেউ শোনেনি। আমরা সুযোগের অপেক্ষায় ছিলাম। সেজন্যই এখন প্রতিদিন একজন করে মন্ত্রী ইস্তফা দিচ্ছেন। ২০ জানুয়ারি পর্যন্ত ইস্তফার পর্ব চলবে।”

You might also like