Latest News

Ukraine : ইউক্রেনের মানুষের দুর্দশার অবসান হওয়া উচিত শীঘ্র, যৌথ বিবৃতি মোদী, মাকরঁ-র

দ্য ওয়াল ব্যুরো : ইউক্রেনে (Ukraine) আক্রমণের জন্য সরাসরি রাশিয়াকে দোষ দিলেন না প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। কিন্তু ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল মাকরঁ-র সঙ্গে যৌথ বিবৃতিতে তিনি বলেন, অবিলম্বে ইউক্রেনের (Ukraine) মানুষের দুর্দশার অবসান হওয়া উচিত। ভারতীয় সময় অনুযায়ী বুধবার রাতে ফ্রান্সে পৌঁছেছেন মোদী। এদিন তিনি মাকরঁ-র সঙ্গে নৈশভোজ করেন। পরে যৌথ বিবৃতিতে তাঁরা বলেন, “ইউক্রেনে (Ukraine) যুদ্ধ চলার ফলে যে মানবিক সংকট সৃষ্টি হয়েছে, ভারত ও ফ্রান্স সেজন্য গভীরভাবে উদ্বিগ্ন।”

রাশিয়া থেকে বিপুল পরিমাণে অস্ত্র ও সামরিক সরঞ্জাম কেনে ভারত। এখনও পর্যন্ত পাশ্চাত্য দেশগুলির সঙ্গে সুর মিলিয়ে দিল্লি রাশিয়ার নিন্দা করেনি। রাষ্ট্রপুঞ্জেও রাশিয়ার বিরুদ্ধে ভোটদানেও বিরত থেকেছে। বুধবার ভারত ও ফ্রান্সের যৌথ বিবৃতিতে মূলত গুরুত্ব দেওয়া হয়েছে ইউক্রেনে (Ukraine) মানবিক সংকটের ওপরে। বিবৃতিতে বলা হয়েছে, “ইউক্রেনে নিরীহ মানুষ নিহত হচ্ছেন। দুই দেশই এই ঘটনার নিন্দা করছে। অবিলম্বে যুদ্ধের অবসান হওয়া উচিত। দু’পক্ষের উচিত আলোচনায় বসে বিরোধ মিটিয়ে নেওয়া।” এরপরে ফ্রান্স আলাদাভাবে মন্তব্য করেছে, রুশ ফৌজ ইউক্রেনে ‘বেআইনি ও অন্যায্য’ আগ্রাসন চালাচ্ছে।

ভারত ও ফ্রান্সের যৌথ বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ইউক্রেনের যুদ্ধের ফলে বিশ্ব জুড়ে খাদ্য সংকট দেখা দিতে পারে। কারণ সারা বিশ্বে ইউক্রেনেই সবচেয়ে বেশি গম উৎপন্ন হয়।

সম্প্রতি ইউরোপ সফরে গিয়েছেন মোদী। সোমবার জার্মানির চ্যান্সেলার ওলফ শুলজের সঙ্গে বৈঠকের পরে তিনি বলেন, “যুদ্ধে কেউ জয়ী হয় না। সকলেই হেরে যায়।” ফ্রান্সের মুখপাত্র বুধবার বলেন, মাকরঁ-র সঙ্গে ‘উষ্ণ সম্পর্ক’ রয়েছে মোদীর। ২০১৭ সাল থেকে মোদী তিনবার ফ্রান্স সফর করেছেন। ২০১৮ সালে ভারতে এসেছিলেন মাকরঁ।

আরও পড়ুন : বিহারে ৩ হাজার কিলোমিটার পদযাত্রা ঘোষণা প্রশান্ত কিশোরের

You might also like