Latest News

লোকসভায় বিজেপি’র দিকে সিন্ডিকেটের পাটকেল ছুঁড়ল তৃণমূল

দ্য ওয়াল ব্যুরো: মেদিনীপুর কলেজিয়েট মাঠে গত সোমবার তৃণমূলের সিন্ডিকেটরাজ নিয়ে আক্রমণ শানিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। আর ঠিক চার দিনের মাথায় লোকসভায় অনাস্থা প্রস্তাবের বিতর্কে অংশ নিতে উঠে নরেন্দ্র মোদীর দিকে সেই সিন্ডিকেটের পাটকেলই ছুঁড়ল তৃণমূল।

এ দিন তৃণমূল কংগ্রেস সাংসদ সৌগত রায় বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী কোথায় দেশের অর্থনীতি, বিদেশনীতি নিয়ে কথা বলবেন তা না! তৃণমূল কংগ্রেসের সিন্ডিকেট নিয়ে কথা বলছেন। আসলে তো গোটা দেশে মোদী সিন্ডিকেট চলছে। নীরব মোদী, ললিত মোদী আর একজন বড় মোদী আছেন, তাঁর নাম আমি নেব না।’ এই কথার পরই হট্টগোল বেঁধে যায় লোকসভায়। এক বিজেপি সাংসদ উঠে দাঁড়িয়ে সৌগত রায়ের বক্তব্যকে অসংসদীয় শব্দ ব্যবহার বন্ধ করতে বললে, প্রবীণ এই পদার্থবিদ্যার অধ্যাপকের  উত্তর, ‘মোদী ইজ নট আনপার্লামেন্টারি ওয়ার্ড’ (মোদী অসংসদীয় শব্দ নয়)।

গোটা বক্তৃতায় বাছা বাছা শব্দ প্রয়োগ করে সৌগত রায় বলেন, ‘দেশের প্রধানমন্ত্রী হকারের মতো আচরণ করে বেড়াচ্ছেন। ফিরিওয়ালার মতো ঘুরছেন। দেশ যদি নিজের পায়ে দাঁড়ায় তাহলে লোকের কাছে ঘুরে ঘুরে এই সব বলতে হয় না।’ তাঁর কথায় এই চার বছরে সাম্প্রদায়িক রাজনীতি করে গোটা দেশে বিপর্যয় ডেকে এনেছে বিজেপি। সব ক্ষেত্রে অরাজক অবস্থা। নোটবন্দীর প্রসঙ্গে বলতে গিয়ে দমদমের তৃণমূল সাংসদ বলেন, ‘ওই একটা সিদ্ধান্তে দেশের ২৫ লক্ষ মানুষ তাঁদের কাজ হারিয়েছেন আর গুজরাটের মোটা ভাইয়ের সমবায় ব্যাঙ্কে কোটি কোটি টাকা জমা পড়েছে।’

সৌগত রায় শুক্রবার যে সময়ে লোকসভায় বক্তৃতা করলেন শনিবার হয়তো ওই একই সময় ধর্মতলায় একুশের মঞ্চ থেকে ভাষন দেবেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। রাজনৈতিক মহলের মতে বিজেপির বিরুদ্ধে দলের এক সাংসদ যদি এতটা রণংদেহী হন তাহলে আন্দাজ করাই যাচ্ছে শনিবারের ধর্মতলায় দলনেত্রী কতটা আক্রমণাত্মক হবেন।

You might also like