Latest News

গঙ্গার জলে ভাসছে বড় কালো পাথর, ডোবালেও ডুবছে না! হইচই পড়ে গেছে শ্রীরামপুরে

দ্য ওয়াল ব্যুরো: একি অলৌকিক কাণ্ড নাকি? হইচই শুরু হয়েছে শ্রীরামপুরের (Serampur) রায় ঘাটে। আসলে ব্যাপারটা হল গঙ্গার জলে দুটো পাথর ভাসতে দেখে স্থানীয়রা নানারকম গল্প ভেবে বসছেন। শুক্রবার রায়ঘাটের গঙ্গায় স্নান করতে নেমে ভেসে আসা পাথর (floating Stone) দেখতে পায় স্থানীয় দু’টি বাচ্চা । তারা পাথরটি তুলে আনে । খবর পেয়ে এলাকাবাসী ভিড় জমান গঙ্গার ঘাটে। তারপরেই খবর ছড়ায় রামায়ণে সেতুবন্ধনের সময় ভাসমান পাথরের উল্লেখ পাওয়া যায়, ঠিক তেমন ভাবেই নাকি পাথর ভাসছে গঙ্গার জলে।

Image - গঙ্গার জলে ভাসছে বড় কালো পাথর, ডোবালেও ডুবছে না! হইচই পড়ে গেছে শ্রীরামপুরে

স্থানীয়রা বলছেন, সকালে দুটো বাচ্চা পাথর নিয়ে খেলছিল গঙ্গার ধারে। কয়েকজন গিয়ে দেখেন বাচ্চা দুটি বড় বড় কালো পাথর (floating Stone) জলে ভাসিয়ে দিচ্ছে, আর পাথরগুলিও ভেসে রয়েছে। ডুবছে না। বারবার সেগুলো জলে ডুবিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করলেও ডুবছে না। এরপরেই গঙ্গার ঘাটে ভিড় জমান কৌতুহলী বাসিন্দারা। মুখে মুখে রামায়ণের গল্প ছড়িয়ে পড়ে।

৮ তলার কার্নিশ থেকে হাত নাড়ছে রোগী! মল্লিকবাজারে ইনস্টিটিউট অফ নিউরোসায়েন্সে ব্যাপক শোরগোল

কেউ কেউ বলেন,বেশ ভারী ওই পাথর জলে ভাসছে, হয়ত এর পিছনে অলৌকিক কোনও কারণ আছে। পাথর ভাসিয়ে রামচন্দ্র সেতুবন্ধন করেছিলেন। সেই প্রসঙ্গ নিয়েও শুরু হয় চর্চা।

তবে পশ্চিমবঙ্গ বিজ্ঞান মঞ্চের সদস্য চন্দন দেবনাথ বলেন,পাথর জলে ভাসে (floating Stone) না। তবে আয়তনে বড় হলে ভারী বস্তুও জলে ভাসে যেমন জাহাজ। এক্ষেত্রে এমনও হতে পারে কোনও সময় থার্মোকলের ওপরে সিমেন্ট দিয়ে ওই ধরনের ব্লক তৈরি করা হয়েছিল, পরবর্তীতে সেটি গঙ্গায় ভেসে চলে আসে। ঝামা ইট অনেক সময় জলে ভাসে কারণ তার মধ্যে ছিদ্র থাকে। নানা প্রদর্শনীতে কর্পূরকে রঙ করে পাথরের আকার দেওয়া হয়। সেই পাথর ভাঙলে ইটের গুঁড়োর মত মনে হয়। পাথরের বৈজ্ঞানিক ব্যাখ্যা পাওয়ার পরেও অবশ্য কৌতুহল কমেনি। এখনও অনেক বাসিন্দারাই রামসেতুর পাথরের কথাই ভেবে যাচ্ছেন।

You might also like