Latest News

‘হাইকোর্টে কল্যাণের দাদাগিরি’! তৃণমূল সাংসদের বিরুদ্ধে নিপাত যাক স্লোগান আইনজীবীদের

দ্য ওয়াল ব্যুরো: থামছেই না। থামার কোনও নামগন্ধ নেই। ভবানীপুর, লেক রোড, শ্রীরামপুর, রিষড়া—বিক্ষোভের আগুন, কুশপুতুল পোড়ানো এসব চলছিলই। এবার হাইকোর্টের উঠোনেও তৃণমূল সাংসদ কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে ক্ষোভ আছড়ে পড়ল।

নাহ কোনও তৃণমূল বা সাধারণ লোক নন। আইনজীবীরা কালো কোট গায়ে দিয়ে কোর্টের সামনে হাতে পোস্টার নিয়ে স্লোগান দিলেন, ‘হাইকোর্টে কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্যায়ের দুর্নীতি, সিন্ডিকেট-রাজ নিপাত যাক।’ কারও হাতে পোস্টার, হাইকোর্টে কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্যায়ের দাদাগিরি মানছি না, কেউ আবার অভিযোগ তুললেন স্বজনপোষণের।

শনিবার কলকাতার দু’জায়গায় কুশপুতুল পোড়ানো হয় শ্রীরামপুরের সাংসদের। তাঁর বাড়ির অদূরেই ভবানীপুর যদুবাবুর বাজারে পোস্টার, ব্যানার নিয়ে কুশপুতুল পোড়ান একদল যুবক। তাঁরা স্লোগান দেন, ‘মাতাল তোমায় জানতে হবে, আগামীকে মানতে হবে।’ প্রত্যেকেই বলেন, অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়কে অপমান করেছেন কল্যাণবাবু। এ জিনিস চলবে না। অভিষেক তাঁদের নেতা। তাঁরা কিছুতেই এটা মেনে নেবন না।

এদিনের হাইকোর্টের ঘটনা কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করা হয়েছিল। কিন্তু তাঁকে ফোনে পাওয়া যায়নি। পরে প্রতিক্রিয়া পাওয়া গেলে এই প্রতিবেদনে আপডেট করা হবে।

ইতিমধ্যেই অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের খুড়তুতো ভাই দাবি তুলেছেন, শ্রীরামপুরে নতুন সাংসদ চাই। তৃণমূলের সর্বোচ্চ নেতৃত্ব বিষয়টা চাপা দেওয়ার চেষ্টা করছেন। কিন্তু থামছে কই। দলের ঝান্ডা না নিয়েই বিক্ষোভ চলছে। এবার যে হাইকোর্টকে কল্যাণবাবুর দাপটের খোলা মাঠ মনে করেন তাঁর অনুগামীরা। সেখানেও বিক্ষোভ হল।

You might also like