Latest News

রাসের মেলায় রাশ টানুন, নিয়ম ভাঙলেই কড়া পদক্ষেপ নেওয়ার নির্দেশ হাইকোর্টের

দ্য ওয়াল ব্যুরো: করোনাকালে রাসের মেলা (Rash Mela) নিয়েও উদ্বেগে প্রশাসন। হাজার হাজার মানুষের ভিড় হয় রাজ্যের প্রসিদ্ধ রাস মেলাগুলিতে। কোভিডের সময় ভিড় নিয়ন্ত্রণে দুর্গাপুজো, কালীপুজো, জগদ্ধাত্রী পুজোতেও বিধিনিষেধ বেঁধে দিয়েছিল কলকাতা হাইকোর্ট। রাসের মেলাতেও জন সমাগমে রাশ টানতে মেলা কমিটিগুলিকে কড়া নির্দেশ দিয়েছে আদালত।

আদালতের নির্দেশ, রাসের মেলায় করোনা বিধি মানা হচ্ছে কিনা তা সশরীরে হাজিরা দিয়ে মেলা কমিটিকে জানাতে হবে। মেলায় কোনওভাবেই অতিরিক্ত ভিড় জমানো যাবে না। মেলায় যাঁরা আসবেন তাঁদের প্রত্যেককেই মাস্ক পরতে হবে ও সোশ্যাল ডিস্টেন্সিং মেনে চলতে হবে। মেলায় ঢোকা ও বেরনোর গেটে স্যানিটাইজার টানেল ব্যবহার করতে হবে।

দক্ষিণ ২৪ পরগনার পিয়ালির জীবন তলা, সোনারপুর, বাড়ুইপুর থানা এলাকায রাস মেলার আয়োজন করা হয়েছে। উৎসব টানা ১৬দিন চলে।আদালত জানিয়েছে, ভিড় নিয়ন্ত্রণের ব্যবস্থা করতে হবে কমিটিকেই। করোনা বিধি কোনও মতেই লঙ্ঘন করা যাবে না। প্রয়োজনে কড়া ব্যবস্থা নেবে প্রশাসন।

গত বছর করোনার কারণে দক্ষিণ ২৪ পরগনার ক্যানিং পিয়ালি রেলস্টেশনের কাছে ঐতিহ্যবাহী রাসের মেলায় অনুমতি দেয়নি প্রশাসন। ২৫ বছরের পুরনো এই রাসমেলাকে ঘিরে বিরাট উৎসব হয়। প্রতিদিনে প্রায় হাজার পঁচিশেক দর্শনার্থীর ভিড় হয়। একমাস ধরে চলে মেলা। এ বছরে মেলা করার অনুমতি দেওয়া হয়েছে তবে নিয়মও বেঁধে দিয়েছে আদালত। স্থানীয় প্রশাসনকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে, মেলায় কোভিড প্রোটোকল মানতে হবে। প্রতিদিন কত ভিড় হচ্ছে, নিয়ম মানা হচ্ছে কিনা, সব কিছুই বিস্তারিত রিপোর্ট দিতে হবে আদালতকে। মেলা কমিটির সদস্যেরা সশরীরে আদালতে হাজির হয়ে রিপোর্ট জমা করবেন। রাজ্যের তরফে অ্যাডভোকের জেনারেল জানিয়েছেন, মেলায় ঢোকা ও বেরনোর পথে স্যানিটাইজার গেট বসানো হয়েছে। এই মেলা অনেক পুরনো, মানুষজনের আবেগ জড়িয়ে আছে। কোভিড বিধি যাতে মেনে চলা হয় সেদিকে নজর রাখবে প্রশাসন।

পড়ুন দ্য ওয়ালের সাহিত্য পত্রিকাসুখপাঠ

You might also like