Latest News

কলকাতায় করোনা বাড়ছে, একদিনে আক্রান্ত পাঁচ হাজার ছুঁইছুঁই

দ্য ওয়াল ব্যুরো: করোনা বাড়ছে রাজ্যে । দৈনিক আক্রান্ত কিছুটা কমলেও সংক্রমণের হার বেশি। রাজ্য স্বাস্থ্য দফতরের বুলেটিন বলছে, গত ২৪ ঘণ্টায় সংক্রমিত হয়েছেন ১৯ হাজারের বেশি। কলকাতা এখনও অবধি আক্রান্তের সংখ্যায় বাকি জেলাগুলির মধ্যে শীর্ষেই আছে। হাওড়া, হুগলি ও উত্তর ২৪ পরগনাতেও সংক্রমণ বেড়ে চলেছে।

কোভিডের সেকেন্ড ওয়েভের সময় পশ্চিমবঙ্গে কোভিড পজিটিভিটি রেট তথা সংক্রমণের হার বেড়েছিল। কেন্দ্রের তালিকায় ৯টি রাজ্যের মধ্যে সংক্রমণের হারে প্রথমের দিকেই ছিল এ রাজ্য। এখন ফের তা বেড়ে চলেছে। স্বাস্থ্য দফতর জানাচ্ছে, দৈনিক সংক্রমণের হার তথা পজিটিভিটি রেট ৩০ শতাংশের বেশি। কলকাতাতেই কোভিড পজিটিভিটি রেট প্রায় ৪১ শতাংশ।

সংক্রমণের হারে দেশের মধ্যে শীর্ষে পৌঁছে গেছে পশ্চিমবঙ্গ। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের রিপোর্ট বলছে, বাংলায় বর্তমানে সংক্রমণের হার ৩২.১৮ শতাংশ। দ্বিতীয় স্থানে থাকা মহারাষ্ট্রে ২২.৩৯ এবং তৃতীয় স্থানে থাকা দিল্লিতে ২৩.১ শতাংশ।

দেশের ১২০টি জেলায় কোভিড পজিটিভ রোগীর সংখ্যা বাড়ছে। সেকেন্ড ওয়েভের সময় ঠিক যেভাবে পজিটিভিটি রেট ঊর্ধ্বে চড়েছিল, তেমনই সংক্রমণের ঢেউ আছড়ে পড়েছে দেশে। থার্ড ওয়েভে ঘরে ঘরে ঢুকে পড়েছে সংক্রমণ। সর্দি-কাশি, জ্বর প্রায় প্রত্যেক পরিবারে। টেস্ট করালেই করোনা পজিটিভ রিপোর্ট আসছে। জটিল সংক্রমণ খুব কমই হচ্ছে, তবে মদু বা মাঝারি সংক্রমণ দেখা যাচ্ছে অনেকেরই।

কলকাতায় কোভিড আক্রান্তের সংখ্যাও বেশি, গত ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত ৪ হাজার ৮৩১ জন, এর পরেই উত্তর ২৪ পরগনা। দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যা সাড়ের তিন হাজারের কাছাকাছি। হাওড়া ও হুগলিতেও একদিনে হাজারের বেশি কোভিড রোগীকে চিহ্নিত করা হয়েছে। অন্যদিকে মালদায় সংক্রমণ বাড়ছে। সাড়ে সাতশোর বেশি আক্রান্ত একদিনে। পশ্চিম মেদিনীপুর ও নদিয়াতেও করোনার প্রকোপ বেড়েছে।

সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে রাজ্যে করোনা বিধিনিষেধের মেয়াদ আরও ১৫ দিন বাড়িয়ে দিয়েছে রাজ্য সরকার। আজকের নির্দেশিকায় বলা হয়েছে, নির্দেশিকায় বলা হয়েছে, বিয়েবাড়িতে ২০০ জন কিংবা বিয়েবাড়ির মোট আসন সংখ্যার অর্ধেক একসঙ্গে উপস্থিত থাকতে পারবেন। ১৫ জানুয়ারি পর্যন্ত বন্ধ থাকবে সমস্ত স্কুল, কলেজ। অর্ধেক হাজিরা নিয়ে চলবে সরকারি অফিস। সম্পূর্ণ বন্ধ থাকবে জিম, সুইমিং পুল, সেলুন।

পড়ুন দ্য ওয়ালের সাহিত্য পত্রিকাসুখপাঠ

You might also like