Latest News

ছোটদের জন্য স্কুলগুলিতেই করা হতে পারে টিকাকরণ কেন্দ্র, ভাবনা নবান্নের

দ্য ওয়াল ব্যুরো: হাতে আর বেশিদিন বাকি নেই। ৩ জানুয়ারি থেকে ১৫ থেকে ১৮ বছর বয়সিদের টিকাকরণ শুরু হয়ে যাবে দেশে। ছোটদের টিকা দেওয়ার জন্য আলাদা টিকাকরণ কেন্দ্র চালু করার নির্দেশ দিয়েছে কেন্দ্র।

পাশাপাশি, ছোটদের টিকার ডোজ দেওয়ার জন্য স্বাস্থ্যকর্মীদের আলাদা প্রশিক্ষণ দেওয়ার কথাও বলা হয়েছে। ছোটদের কোথায় টিকা দেওয়া হবে এখন সেই ভাবনাই রাজ্য সরকারের। শোনা যাচ্ছে, স্কুলগুলিকেই টিকাকরণ কেন্দ্র করা হতে পারে। স্কুলে এখন সব শ্রেণির জন্য ক্লাস চালু হয়নি, কাজেই টিকাকরণ শিবির করলে সমস্যা হবে না বলেই মনে করা হচ্ছে।

সূত্রের খবর, কমবয়সিদের জন্য ৪৯ লাখ টিকার ডোজ আসতে পারে রাজ্যে। হাসপাতালের থেকে স্কুলেই ছোটদের টিকার ডোজ দেওয়া অনেক বেশি নিরাপদ বলেই মনে করছে সরকার।

তবে সব স্কুলে নয়, জ়োন ভিত্তিক কিছু স্কুলকে টিকাকরণ কেন্দ্র হিসেবে বেছে নেওয়া হতে পারে। যে স্কুলগুলিকে তালিকাভুক্ত করা হবে সেখানকার পরিকাঠামো খতিয়ে দেখে আসবেন বিশেষজ্ঞরা। জীবাণুমুক্ত করার কাজও শুরু হবে।
রাজ্যে এখন দশম থেকে দ্বাদশ শ্রেণির জন্য স্কুল খুলেছে। পঞ্চম থেকে অষ্টম শ্রেণির ক্লাস চালু হওয়ার কথা ছিল জানুয়ারি থেকেই। কিন্তু ওমিক্রন আতঙ্কে তা স্থগিত রাখা হয়। তাই হসপাতাল, নার্সিংহোম বা অন্যান্য টিকাকরণ কেন্দ্রে আলাদা ক্যাম্প বা আলাদা লাইন করার বদলে স্কুলে টিকা দেওয়া অনেক বেশি সহজ হবে বলে মনে করছেন স্বাস্থ্য আধিকারিকরা।

আগামী ৩ জানুয়ারি থেকে করোনার টিকা নিতে পারবে ১৫ থেকে ১৮ বছর বয়সীরা। তার জন্য নাম নথিভুক্তকরণ বা রেজিস্ট্রেশনের প্রক্রিয়া শুরু হয়ে যাবে ১ জানুয়ারি অর্থাৎ শনিবার থেকেই। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রক জানিয়েছে, ছোটদের জন্য কোউইন অ্যাপে আলাদা স্লট রাখা হচ্ছে। সেখানেই স্কুলের পরিচয়পত্র নিয়ে নাম রেজিস্টার করতে পারবে ছোটরা। আপাতত দুটি ভ্যাকসিন দেওয়া হবে ছোটদের–ভারত বায়োটেকের কোভ্যাক্সিন ও জাইদাস ক্যাডিলার জাইকভ-ডি। আগামী বছর থেকে সেরাম ইনস্টিটিউটের নোভ্যাভাক্স ভ্যাকসিনও ছোটদের জন্য চলে আসতে পারে।

কোউইনে কীভাবে নাম রেজিস্টার করা যাবে–

১ জানুয়ারি থেকেই নাম নথিভুক্তকরণের প্রক্রিয়া শুরু হয়ে যাবে।
প্রথমে আরোগ্য সেতুতে বা কোউইনের সরকারি ওয়েবসাইট Cowin.gov.in খুলতে হবে।
এরপর সাইন ইন বা রেজিস্টারে গিয়ে মোবাইল নম্বর দিন।
ওটিপি-র অপশন দেখাবে, Get OTP তে ক্লিক করুন।
আপনার মোবাইল নম্বরে ওটিপি আসবে, সেটি লিখে ‘কনফার্ম’ বাটনে ক্লিক করুন।
আরোগ্য সেতুর ক্ষেত্রে কোউইন ট্যাবে গিয়ে টিকাকরণ বাটনে ক্লিক করতে হবে।
তারপর প্রসিড অপশনে ক্লিক করলে একটি নতুন পেজ খুলবে।
সেখানে নাম, মোবাইল নম্বর, ফটো আইডি দিতে হবে। ছোটরা স্কুলের পরিচয়পত্র দিতে পারবে। আধার নম্বর না হলেও চলবে।
কোমর্বিডিটি আছে কিনা তার অপশনও আসবে। যদি থাকে তাহলে অপশন দেখে ‘হ্যাঁ’ বা ‘না’ ক্লিক করতে হবে।
রেজিস্ট্রেশন হয়ে গেলে মোবাইলে এসএমএস আসবে।

পড়ুন দ্য ওয়ালের সাহিত্য পত্রিকা সুখপাঠ               

You might also like