Latest News

অগ্নিমিত্রার গাড়ি আটকাল পুলিশ, ঐশীকে বাধা বাহিনীর, উত্তেজনা আসানসোল-জামুড়িয়ায়

দ্য ওয়াল ব্যুরো: পাশাপাশি দুই কেন্দ্র। দুই প্রতিপক্ষ দলের প্রার্থী এক জন অভিযোগ তুললেন রাজ্য পুলিশের বিরুদ্ধে, অন্য জনের নিশানায় কেন্দ্রীয় বাহিনী। আসানসোল দক্ষিণের বিজেপি প্রার্থী অগ্নিমিত্রা পলের গাড়ি আটকাল রানীগঞ্জ থানার পুলিশ। অন্যদিকে জামুড়িয়ার তরুণ সিপিএম প্রার্থী ঐশী ঘোষ অভিযোগ তুললেন, প্রার্থী হিসেবে তাঁর বৈধ কার্ড থাকা সত্ত্বেও তাঁকে বুথে ঢুকতে বাধা দিয়েছে কেন্দ্রীয় বাহিনী।

এদিন রানিগঞ্জে অগ্নিমিত্রার গাড়ি আটকায় পুলিশ। অভিযোগ, বিজেপি প্রার্থী অগ্নিমিত্রা কমিশনের অনুমতি সংক্রান্ত নথিবিহীন কয়েকটি গাড়ি নিয়ে বুথে বুথে ঘুরছেন। সাহেবগঞ্জ এলাকায় পৌঁছতেই রানিগঞ্জ থানার আইসি বাহিনী নিয়ে প্রার্থীর গাড়ি আটকান। আইসি নিজে বিজেপি প্রার্থী ও তাঁর সঙ্গে থাকা গাড়ির অনুমতিপত্র দেখতে চান। পুলিশের দাবি, একটি গাড়িতে নির্বাচন কমিশনের স্টিকার লাগানো। অথচ একাধিক গাড়ি ঘুরছে প্রার্থীর সঙ্গেই। পরে সব কিছু খতিয়ে দেখে অগ্নিমিত্রার সঙ্গে থাকা অন্যান্য গাড়ির নম্বর লিখে এবং ভিডিয়োগ্রাফি করেন তারপরই গাড়ি নিয়ে যাওয়ার অনুমতি দেওয়া হয়।

অগ্নিমিত্রার বক্তব্য, তৃণমূলের অঙ্গুলি হেলনে পুলিশ এসব করছে। তাঁর গাড়ির পিছনে যদি সংবাদমাধ্যমের গাড়ি থাকে তাহলে তিনি কী করতে পারেন! আত্মবিশ্বাসী ফ্যাশন ডিজাইনার তথা বিজেপি মহিলা মোর্চার রাজ্য সভানেত্রী জানিয়েছেন, দারুণ ভোট হচ্ছে। তিনি জিতবেন। প্রসঙ্গত, এই কেন্দ্রে তৃণমূল প্রার্থী হিসেবে লড়ছেন সায়নী ঘোষ।

ঐশীর অভিযোগ, জামুড়িয়ায় শালডাঙার বুথে তিনি গেলে তাঁকে ভিতরে ঢুকতে বাধা দেয় কেন্দ্রীয় বাহিনী। জওহরলাল নেহরু বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র সংসদের সভাপতির দাবি, “আমাকে ওরা বলছে নিয়ম জানে না। ভোট করাতে এসেছে অথচ নিয়ম জানে না এটা তো আশ্চর্যের বিষয়।” সংবাদমাধ্যমে হুঁশিয়ারির সুরে ঐশী বলেন, “কেন্দ্রীয় বাহিনী যদি নিয়ম না জানে, আমাদের যদি বাধা দেওয়া হয় তাহলে আমরাও ভোট করাব। আমাদেরও লোক আছে।”

You might also like