Latest News

আসামি পালানোর ঘটনায় উত্তপ্ত কাঁথি, তার মধ্যেই ফের বোমাবাজি ভগবানপুরে

দ্য ওয়াল ব্যুরো,পূর্ব মেদিনীপুর: আদালত চত্বরে পুলিশকে বোমা মেরে আসামি পালানোর ঘটনায় দিনকয়েক ধরেই সরগরম কাঁথি। তার মধ্যেই ফের বোমাবাজি ভগবানপুরে। শনিবার রাতে এক তৃণমূল নেতার বাড়িতে বোমা ছুড়ে পালাল জনা কয়েক দুষ্কৃতী।

ঘটনাটি ঘটেছে গতকাল রাতে ভগবানপুরে। ৮ নম্বর গ্রাম পঞ্চায়েতের পশ্চিম সরবেড়িয়াতে। পুলিশ জানিয়েছে, ওই তৃণমূল নেতার নাম শেখ মইজুদ্দিন। স্থানীয় সূত্রে খবর, রাত ১২টা নাগাদ হঠাৎই তীব্র বিস্ফোরণের শব্দে ঘুম ভেঙে যায় এলাকার লোকেদের। বাইরে বেরিয়ে তাঁরা জানতে পারেন মইজুদ্দিনের বাড়িতে বোমা মেরেছে দুষ্কৃতীরা।

ঘটনার সময় ঘুমোচ্ছিলেন বাড়ির সবাই। যে ঘরে বোমাটি পড়ে সেখানে শুয়েছিলেন মইজুদ্দিনের ভাইপো শেখ উম্মার ফারুক। বোমার স্প্লিন্টার লেগে গুরুতর জখম হয়েছেন তিনি। ঘটনায় আতঙ্ক ছড়িয়েছে গোটা এলাকায়।

মইজুদ্দিন জানিয়েছেন, তাঁদের খুন করার উদ্দেশ্যেই বোমা ছোড়া হতে পারে। বিস্ফোরণের তীব্রতা এতটাই ছিল যে বাড়ির টিনের চাল উড়ে গেছে। লণ্ডভণ্ড হয়ে গেছে গোটা বাড়ি। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

ভগবানপুরে তৃণমূল নেতার বাড়িতে বোমা ছোড়ার ঘটনার সঙ্গে কাঁথির দুই ডাকাত শেখ মুন্না ও তার সহযোগী সুরজিৎ গুড়িয়ার কোনও যোগ রয়েছে কিনা তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ। আসামি পালানোর ঘটনায় কুখ্যাত অপরাধী কর্ণ বেরা ধরা পড়লেও এখন বেপাত্তা শেখ মুন্না ও সুরজিৎ। ইতিমধ্যেই শেখ মুন্নার অপরাধের বহর দেখে মাথায় হাত পড়েছে পুলিশের। বেশ কয়েকবার জেল ভেঙে পালানো, আগাম চিঠি দিয়ে ডাকাতি করার রেকর্ড রয়েছে শেখ মুন্নার। তার কথামতো বাড়িতে টাকা ও গয়না না রাখায় একবার এক ব্যক্তিকে গুলি করে খুন করেছিল সে। এছাড়াও একাধিক খুন ও ডাকাতির মামলা রয়েছে শেখ মুন্নার বিরুদ্ধে।

You might also like