Latest News

কংগ্রেস সভাপতি নির্বাচন: লড়াই মল্লিকার্জুন বনাম শশীর, আর কোনও নাম নেই

দ্য ওয়াল ব্যুরো: হাওয়ায় অনেক নাম ভাসছিল। বৃহস্পতিবার রাতে প্রিয়ঙ্কা গান্ধীর সঙ্গে সনিয়া গান্ধীর বৈঠক হয়। তারপর কংগ্রেস সভাপতি নির্বাচনে (Congress President Election) প্রিয়ঙ্কার নামটাও ভেসে উঠেছিল। কিন্তু পঞ্চমীর দুপুরে স্পষ্ট হয়ে গিয়েছে, কংগ্রেস সভাপতি নির্বাচনে লড়াই হবে দু’জনের মধ্যে। শশী তারুর (Shashi Tharoor) বনাম মল্লিকার্জুন খাড়্গে (Mallikarjun Kharge)।

প্রবীণ কংগ্রেস নেতা তথা মধ্যপ্রদেশের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী দিগ্বিজয় সিং এই দলের সভাপতি নির্বাচনে ‘ফাইটিং জোনে’ ঢুকে পড়েছিলেন। মনোনয়ন পেশ করার কাগজপত্রও তুলে ফেলেছিলেন। কিন্তু সেই দিগ্বিজয়ও সরে গিয়েছেন লড়াই থেকে।

জানা গিয়েছে, বৃহস্পতিবার গভীর রাতে কংগ্রেসের অন্যতম সাধারণ সম্পাদক কেসি বেণুগোপাল খাড়্গেকে বার্তা দেন, সনিয়া গান্ধীরা চাইছেন তিনি সভাপতি পদের জন্য লড়াই করুন। প্রতিদ্বন্দ্বিতা করুন সাংগঠনিক নির্বাচনে। তাতে রাজি হয়েছেন খাড়্গে।

পাঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী ঘোরেন ৪২ গাড়ির কনভয় নিয়ে! মামলা করে তথ্য জানাল কংগ্রেস

হরিয়ানার প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী ভুপেন্দ্র সিং হুডা এতদিন ছিলেন কংগ্রেসের বিক্ষুব্ধ জি-২৩ গোষ্ঠীতে। ২০২০ সালে হুডা সনিয়া গান্ধীকে দলের কাঠামো ও নেতৃত্ব বদলের বিষয়ে কড়া ভাষায় চিঠি দিয়েছিলেন। সেই তিনিও বলেছেন,মল্লিকার্জুন দলের সভাপতি হলে তিনি সমর্থন করবেন। পর্যবেক্ষকদের মতে, বিদ্রোহ থাকলেও কংগ্রেসকে এখনও চুম্বকের মতো আটকে রেখেছে গান্ধী পরিবার। তাঁদের কেউ সভাপতি পদে না বসলেও মনোনীত অন্য নেতা দাঁড়ালে তাঁর জয় অবধারিত। ফলে মল্লিকার্জুন খাড়্গের কংগ্রেস সভাপতি হওয়া একপ্রকার সময়ের অপেক্ষা।

তাৎপর্যপূর্ণ হল, এদিকে দিল্লি-রাজস্থানে যে কংগ্রেসের মধ্যে তোলপাড় হয়ে যাচ্ছে তখন সেদিকে দেখছেনই না প্রাক্তন কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী। ওদিকে  ভারতজোড়ো যাত্রায় মাইলের পর মাইল হেঁটে চলেছেন তিনি। যেন বোঝাতে চাইছেন, কে সভাপতি হলেন বা রাজস্থানের মুখ্যমন্ত্রীর কুর্সিতে কে বসলেন তা নিয়ে তাঁর মাথাব্যথা নেই। তিনি পাখির চোখ করেছেন ‘টুকরো’ হয়ে যাওয়া ভারতকে জোড়াকেই।

You might also like