Latest News

Rape and Murder: ধর্ষণ করে রড ঢুকিয়ে ছিন্নভিন্ন যোনি, পাথর দিয়ে থেঁতলে খুন! ছত্তীসগড়ে নির্ভয়া-আতঙ্ক

দ্য ওয়াল ব্যুরো: নির্ভয়া-আতঙ্ক যেন আবার ফিরে এল। এবার আরও নৃশংস। ঘটনাস্থল ছত্তীসগড়। জানা গেছে, ৫৬ বছরের এক মহিলাকে ধর্ষণ করে লোহার রড দিয়ে ছিন্নভিন্ন করা হয়েছে যোনি! তার পরে বোল্ডার দিয়ে থেঁতলে দেওয়া হয়েছে মাথা (Rape and Murder)। ঘটনাস্থলেই মারা গেছেন তিনি। গ্রেফতার হয়েছে ৩১ বছরের এক যুবক।

পুলিশ জানিয়েছে, গত বুধবার মারাত্মক জখম অবস্থায় রক্তে ভেসে যাওয়া এক দেহ উদ্ধার হয় রাস্তার ধারে। প্রাথমিক ভাবে দেখে মনে হয়, পথ দুর্ঘটনায় ওই অবস্থা হয়েছে মহিলার। তার পরে দেহটি পাঠানো হয় ময়নাতদন্তে। রিপোর্ট আসতেই শিউরে ওঠেন সকলে। জানা যায়, নারকীয় ভাবে ধর্ষণ করে খুন করা হয়েছে তাঁকে (Rape and Murder)।

তদন্তে জানা গেছে, ওই মহিলার কেউ নেই। মা-বাবা মারা গেছেন কয়েক বছর আগে। তিনি এলাকায় ঘুরে বেড়াতেন, যে যা দিত তাই খেতেন। তাঁর খানিকটা মানসিক অসঙ্গতিও ছিল। সিসিটিভি ফুটেজ খতিয়ে দেখে পুলিশ জেনেছে, ঘটনার দিন তাঁকে বীভৎস মারধর করে অভিযুক্ত ওই যুবক। মহিলাকে টানতে টানতে ছেঁচড়ে এনে ফেলে রাস্তায়। পেটে এলোপাথাড়ি লাথি মারা হয়, একের পর এক ঘুষি চালানো হয় মুখে। তার পরে একটি লোহার রড দিয়ে চলে মারাত্মক অত্যাচার।

সিনিয়র পুলিশ অফিসার অভিষেক পল্লব বলেন, “৩১ বছরের কৃষ্ণ যাদবকে গ্রেফতার করা হয়েছে। অপরাধ স্বীকার করেছে সে। সে পুলিশের কাছে জানিয়েছে, ওই মহিলা যখন বাধা দেন ধর্ষণে, তখনই সে রেগে গিয়ে চুলের মুঠি ধরে মহিলাকে ছেঁচড়ে এনে ফেলে ফাঁকা রাস্তায়। তার পরেও মহিলা বাধা দিতে থাকলে, ধাক্কা দিয়ে সরিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করলে কৃষ্ণ যাদব মারধর শুরু করে এলোপাথাড়ি। ধর্ষণ করার পরে চলে রড ঢুকিয়ে অত্যাচার। শেষে ভারী বোল্ডার দিয়ে সে মাথা থেঁতলে খুন করে মহিলাকে। তার পরে এলাকা ছেড়ে পালায় সে।”

ধর্ষণ করে খুনের (Rape and Murder) মামলা রুজু করা হয়েছে কৃষ্ণ যাদবের বিরুদ্ধে।

হাইকোর্টে বড় ধাক্কা নবান্নের, সমস্ত ধর্ষণ মামলায় দময়ন্তীর নেতৃত্বে নজরদারি আদালতে

You might also like