Latest News

প্রধানমন্ত্রী আজ তিন রাজ্যে, ২০১৪-র লোকসভা ভোটের আগে যেভাবে ছুটতেন মোদী

দ্য ওয়াল ব্যুরো: চিন সীমান্তের রাজ্য অরুণাচলে ব্রেকফাস্ট, বারাণসিতে লাঞ্চ, গুজরাতে ডিনার (Prime Minister visits three state)। নরেন্দ্র মোদীর (Narendra Modi) এমন রুটিন অজানা নয়। নিজেই জানিয়েছেন, ঘুম তাঁর ইচ্ছার উপর নির্ভর করে। চোখ বোজার কয়েক মিনিটের মধ্যে ঘুমিয়ে পড়তে পারেন। ফলে যাত্রাপথেই বিমানে ঘুমিয়ে নেন।

এই নরেন্দ্র মোদী তখন গুজরাতের (Gujrat) মুখ্যমন্ত্রী। ২০১৪-র লোকসভা ভোটের প্রচারে টানা মাস তিনেক এমনই ছিল গুজরাতের মুখ্যমন্ত্রীর দৈনিক রুটিন। দিল্লি থেকে সকালে উড়ত তাঁর চার্টার্ড বিমান। রাতে ফিরে আসল দিল্লি। কখনসখনও আমদাবাদে চলে যেতেন সরকারি কাজ সারতে।

সেই নরেন্দ্র মোদী সাড়ে আট বছর দেশের প্রধানমন্ত্রী। ভোটের বাজনা বাজলে আজও যে ২০১৪-র রুটিনে ফিরে যেতে পারেন, বিগত কয়েক মাস যাবৎ নিজের রাজ্যের বিধানসভা ভোট ঘিরে প্রধানমন্ত্রীর তৎপরতায় তা স্পষ্ট হয়ে গিয়েছে। তারই মধ্যে আজকের দিনটি বিশেষভাবে উল্লেখ করার মতো।

আজ সকালে প্রধানমন্ত্রী অরুণাচলে গিয়েছেন। সেখানে একটি গ্রিন ফিল্ড এয়ারপোর্টের উদ্ধোধন করেছেন প্রধানমন্ত্রী। এছাড়া উদ্ধোধন করেছেন ৬০০ মেগাওয়াট উৎপাদন ক্ষমতা সম্পন্ন একটি বিদ্যুৎ কেন্দ্রের। প্রধানমন্ত্রীর সফর ঘিরে উত্তর-পূর্বের রাজ্যটিতে আজ খুশির জোয়ার।

সেখান থেকে প্রধানমন্ত্রীর বিমান উড়বে তাঁর নির্বাচনী কেন্দ্র বারাণসির উদ্দেশ্যে। আজ সেখানে তামিল-সঙ্গম উৎসবের সূচনা করবেন প্রধানমন্ত্রী। বারাণসির সঙ্গে দক্ষিণের রাজ্যটির আধ্যাত্মিক ও ধর্মীয় যোগাযোগ উদযাপন করা হয় এই উৎসবের মাধ্যমে। তামিলনাড়ু সরকারে আড়াই হাজার জনের প্রতিনিধি দল উৎসবে অংশ নিচ্ছে। এই উপলক্ষে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে।

বারাণসিতে প্রধানমন্ত্রী মধ্যাহ্নভোজ সারবেন। সেখান থেকে বিকালে উড়বে তাঁর বিমান। সন্ধ্যায় পৌঁছবেন গুজরাতের বনসাডে। সেখানে নির্বাচনী সভায় ভাষণ দিয়ে ডিনার সেরে দিল্লি ফিরবেন প্রধানমন্ত্রী। তবে আজ রাত নিজের রাজ্যে থেকেও যেতে পারেন প্রধানমন্ত্রী। ১১ দিনের মাথায় গুজরাতে প্রথম দফার ভোট। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ-সহ বিজেপির শীর্ষ নেতৃত্ব এখন গুজরাতে। প্রধানমন্ত্রী আগামীকালও প্রচার করতে পারেন নিজের রাজ্যে।

আর পাঁচটা রাজ্যের মতো গুজরাতে মোদীই বিজেপির প্রধান ভরসা। ১০ মার্চ উত্তরপ্রদেশ-সহ পাঁচ রাজ্যের বিধানসভার ফল ঘোষণার পর দিন থেকে ঘন ঘন নিজের রাজ্যে ছুটেছেন প্রধানমন্ত্রী। সেখানে বিজেপি টানা ২৭ বছর ক্ষমতায়। তাছাড়া মোদী এবং অমিত শাহ রাজ্য ছেড়ে দিল্লি চলে যাওয়ার পর দলের নেতৃত্বের রাশ আলগা হয়েছে। এবার গুজরাত নিয়ে বিজেপি তাই স্বস্তিতে নেই।

কিন্তু প্রধানমন্ত্রীর সাম্প্রতিক সফর সূচি থেকে বোঝা যাচ্ছে মোদী আসলে ২০২৪-এর লোকসভা ভোটের প্রস্তুতি পুরোমাত্রায় শুরু করে দিয়েছেন। প্রতি সপ্তাহেই কোনও না কোনও রাজ্য সফরে গিয়ে তিনি উন্নয়ন প্রকল্পের শিলান্যাসের পাশাপাশি নতুন প্যাকেজ ঘোষণা করে আসছেন। সম্প্রতি তেলেঙ্গানা ও অন্ধ্রপ্রদেশে এই ফরমুলা মেনে সাজানো হয়েছিল তাঁর সফরসূচী। তার আগে তামিলনাড়ু, কেরলের মতো আরও দুটি অবিজেপি দল শাসিত রাজ্যে গুচ্ছ প্রকল্পের শিলান্যাস, উদ্ধোধন করেছেন প্রধানমন্ত্রী। আগামী মাসে বাংলায় আসার কথা তাঁর। আগামী মাসে বাংলাতেও আসার কথা প্রধানমন্ত্রীর।

দিল্লি যাচ্ছেন মমতা, রাজ্যের পাওনা নিয়েও কথা হতে পারে মোদীর সঙ্গে

You might also like