Latest News

অন্তঃসত্ত্বা মহিলাকে তুলে নিয়ে গিয়ে ৩ দিন ধরে গণধর্ষণ, যোগীরাজ্যে নারকীয় ঘটনা

দ্য ওয়াল ব্যুরো: নারকীয় কাণ্ড উত্তরপ্রদেশে (Uttar pradesh)। অন্তঃসত্ত্বা মহিলাকে (Pregnant Woman) জোর করে তুলে নিয়ে গিয়ে ৩ দিন ধরে গণধর্ষণ (gang raped) করল ৪ দুষ্কৃতী।

নির্যাতিতা মহিলা দু’মাসের অন্তঃসত্ত্বা। কয়েকদিন আগে তিনি বরেলি থেকে সাহারানপুর যাবেন বলে বাড়ি থেকে বের হন। পথেই ফারুখাবাদ বাস টার্মিনালের কাছে তাঁকে অপহরণ করে ৪ জন। সেখান থেকে পাশের জেলা হরদইতে নিয়ে গিয়ে গণধর্ষণ করা হয় মহিলাকে।

নির্যাতিতা পুলিশকে জানিয়েছেন, তাঁর মুখে ঘুমের ওষুধ মেশানো রুমাল চেপে ধরে দুষ্কৃতীরা, যার জেরে সংজ্ঞাহীন হয়ে পড়েন তিনি। জ্ঞান ফিরলে তিনি দেখেন, তাঁকে একটি ঘরে আটকে রাখা হয়েছে। ৪ জন ব্যক্তি বসে আছে ঘরের মধ্যে। এরপর তারা একে একে ধর্ষণ করে মহিলাকে। বাধা দেওয়ার চেষ্টা করলে প্রাণে মেরে ফেলার হুমকি দেওয়া হয় তাঁকে।

মহিলা জানিয়েছেন, ৩ দিন ধরে তাঁকে গণধর্ষণ করে ওই ৪ জন। এই ৩ দিন তাঁকে কিছু খেতেও দেওয়া হয়নি বলে পুলিশকে জানিয়েছেন তিনি। শুক্রবার ৪ ধর্ষক যখন ঘুমাচ্ছিল, সেই সুযোগে বাড়িটি থেকে পালিয়ে যান মহিলা। ১২ কিলোমিটার পায়ে হেঁটে বাহাদুরপুর গ্রামে গিয়ে পৌঁছান তিনি। সেখানে গ্রামবাসীদের সব কথা বলে সাহায্য চান তিনি। গ্রামবাসীরাই তাঁকে পুলিশের কাছে নিয়ে আসে।

পুলিশ জানিয়েছে, মহিলার বিবরণ অনুযায়ী হরদইতে যে বাড়িতে গণধর্ষণ করা হয়েছিল নির্যাতিতাকে, তাঁকে সঙ্গে করেই সেখানে গিয়ে পৌঁছায় পুলিস। কিন্তু বাড়িতে একজন মহিলা ছাড়া আর কেউ ছিল না। ওই মহিলা আবার দাবি করেছেন, ৮০ হাজার টাকার বিনিময় নির্যাতিতার পরিবারের লোকজনই তাঁকে ওই বাড়িতে রেখে দিয়ে যায়।

ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

কন্ডোমের প্যাকেট দিয়ে ব্যান্ডেজ! আজব কাণ্ড মধ্যপ্রদেশের হাসপাতালে

You might also like