Latest News

সাগ্নিককে ২২ লাখের গাড়ি দিয়েছিলেন পল্লবী! মেয়ের টাকাতেই মোবাইল-ল্যাপটপ, দাবি বাবার

দ্য ওয়াল ব্যুরো: প্রতিদিনই অভিনেত্রী পল্লবী দে-র (Pallabi Dey) মৃত্যু রহস্যে নয়া তথ্য সামনে আসছে। পল্লবীর পরিবারের অভিযোগ, তাঁদের মেয়েকে খুন করা হয়েছে। অভিযোগের তির মেয়ের প্রেমিক সাগ্নিক ও বান্ধবী ঐন্দ্রিলার দিকে তুলেছেন পল্লবীর বাবা নীলু দে। সঙ্গে তাঁর আরও অভিযোগ, সাগ্নিক যে অডি গাড়ি চড়ে তা পল্লবীর দেওয়া! ২২ লাখ টাকার গাড়ি কিনে দিয়েছিলেন তাঁর মেয়ে।

টলি অভিনেত্রীর মৃত্যু (Death Mystery) ঘিরে জল্পনা চলছে নানা মহলে। প্রতিনিয়ত পল্লবীর (Pallabi Dey) পরিবার তাদের মেয়েকে খুন করা হয়েছে সেই অভিযোগের স্বপক্ষে নানান যুক্তি সামনে আনছে। মঙ্গলবার পল্লবীর বাবা অভিযোগ তুলে বলেন, “মেয়ে সাগ্নিককে খুব ভালবাসত। দামি দামি উপহার কিনে দিত।’ তিনি আরও বলেন, এমনকি বেসরকারি সংস্থায় কাজ করা সাগ্নিককে ২২ লাখ টাকার গাড়ি কিনে দিয়েছিল। শুধু তাই নয়, সাগ্নিকের জন্মদিনেও তাঁকে দেড় লাখ দিয়ে ল্যাপটপ কিনে দিয়েছিল। সঙ্গে লাখ খানেক টাকার মোবাইলও।

এদিন পল্লবীর (Pallabi Dey) বাবা আরও অভিযোগ করেন যে, মেয়ে এতকিছু করার পরেও ঐন্দ্রিলার সঙ্গে সম্পর্ক রাখত। যা মেনে নিতে পারেনি তাঁর মেয়ে। প্রায়ই অশান্তি হত দু’জনের মধ্যে। মেয়ে সাগ্নিককে বারবার বলত দু’নৌকায় পা দিয়ে না চলতে।

নীলু দে, পল্লবীর মৃত্যুর জন্য সাগ্নিক ও ঐন্দ্রিলাকে দায়ী করেন। যদিও সেই অভিযোগ অস্বীকার করেছেন ঐন্দ্রিলা। বলেছেন, ” আর পাঁচ জনের মতো আমি ঐন্দ্রিলার বন্ধু ছিল। তবে বিশেষ কোন সম্পর্ক ছিল না।” তিনি আরও জানান, পল্লবীর সূত্রেই সাগ্নিকের সঙ্গে তাঁর আলাপ হয়েছিল। এর থেকে বেশি কিছু নয়।

সাগ্নিক চক্রবর্তীর বিরুদ্ধে পল্লবী দে’র পরিবার খুনের অভিযোগ দায়ের করেছে গড়ফা থানায়। রয়েছে ঐন্দ্রিলার নামও। তাঁদের দাবি, ঘটনার উপযুক্ত তদন্ত হোক। দোষীদের শাস্তি দেওয়া হোক।

পল্লবী নেই, এবার ‘মন মানে না’র গৌরী হচ্ছে কে?

You might also like