Latest News

১২ থেকে ১৪ বছর বয়সীদের টিকা মার্চ থেকেই, ঘোষণা কেন্দ্রের

দ্য ওয়াল ব্যুরো: ১৫ থেকে ১৮ বছর বয়সীদের টিকাকরণ শুরু হয়ে গেছে ৩ জানুয়ারি থেকে। এবার ১৫ বছরের নীচে বাচ্চাদের কোভিড টিকা দেওয়াও শুরু করতে চায় কেন্দ্র। দেশে করোনা সংক্রমণ বাড়ছে, ওমিক্রন রোগীর সংখ্যাও আট হাজারের বেশি। ওমিক্রনে বাচ্চাদের সংক্রমিত হওয়ার ঝুঁকি আছে বলে আগেই সতর্ক করেছেন ভাইরাস বিশেষজ্ঞরা। তাই এ বছর মার্চ মাস থেকেই ১২ বছরের উর্ধ্বে টিকাকরণ শুরু করার সিদ্ধান্ত নিতে চলেছে কেন্দ্রীয় সরকার।

ন্যাশনাল টেকনিক্যাল অ্যাডভাইজরি গ্রুপ অব ইমিউনাইজেশনের চেয়ারম্যান ড. এন কে অরোরা বলেছেন, চলতি বছর মার্চ মাস থেকেই ১২ থেকে ১৪ বছর বয়সীদের কোভিড টিকা দেওয়া শুরু হবে। পাশাপাশি, কোভিড ফ্রন্ট লাইন ওয়ার্কার ও বয়স্কদের বুস্টার ডোজ দেওয়ার কাজও চলবে।

কমবয়সীদের জন্য টিকা কবে আসবে, এতদিন তার অপেক্ষা চলছিল। এবার ১২ বছরের ঊর্ধ্বেও টিকাকরণ শুরু হবে দেশে। সরকারি সূত্রে বলা হয়েছে, কোউইন অ্যাপেই নাম রেজিস্টার করতে পারবে ছোটরা। তার জন্য আধার কার্ড না থাকলেও চলবে। স্টুডেন্ট আইডি কার্ড বা স্কুলের পরিচয়পত্র থাকলেই টিকা নেওয়ার জন্য কোউইনে নাম তোলা যাবে।

ছোটদের জন্য কোউইন অ্যাপে আলাদা স্লট রাখা হচ্ছে। সেখানেই স্কুলের পরিচয়পত্র নিয়ে নাম রেজিস্টার করতে পারবে ছোটরা। আপাতত দুটি ভ্যাকসিন দেওয়া হবে ছোটদের–ভারত বায়োটেকের কোভ্যাক্সিন ও জাইদাস ক্যাডিলার জাইকভ-ডি। আগামী বছর থেকে সেরাম ইনস্টিটিউটের নোভ্যাভাক্স ভ্যাকসিনও ছোটদের জন্য চলে আসতে পারে। ভারত বায়োটেক জানিয়েছে, এখনও অবধি ক্লিনিকাল ট্রায়ালে যতজন শিশুকে টিকার ডোজ দেওয়া হয়েছে তাদের প্রত্যেকের শরীরেই অ্যান্টিবডি তৈরি হয়েছে। রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতাও অনেক বেড়েছে। এর থেকেই বোঝা যাচ্ছে, ভাইরাসের যে কোনও সংক্রামক প্রজাতি থেকেই সুরক্ষিত থাকবে শিশুরা।

পড়ুন দ্য ওয়ালের সাহিত্য পত্রিকাসুখপাঠ

You might also like