Latest News

সাভারকর আছেন, দেশপ্রেমীদের তালিকা থেকে নেহেরুই বাদ! কর্নাটকে সরকারি বিজ্ঞাপনে বিতর্ক

দ্য ওয়াল ব্যুরো: খবরের কাগজের একটা গোটা পৃষ্ঠাজুড়ে দেওয়া হয়েছে সরকারি বিজ্ঞাপন। দেশে স্বাধীনতার ৭৫ বর্ষপূর্তির উদযাপন চলছে। কর্নাটক সরকার (Karnataka) দেশপ্রেমী ও স্বাধীনতা সংগ্রামীদের শ্রদ্ধাজ্ঞাপনের জন্য খবরের কাগজে বিজ্ঞাপন দিয়েছে। কিন্তু সেই বিজ্ঞাপন থেকে বাদ পড়েছেন স্বাধীন ভারতের প্রথম প্রধানমন্ত্রী জওহরলাল নেহেরুই (Jawaharlal Nehru)!

কর্নাটক সরকারের এই নতুন বিজ্ঞাপনটি নিয়ে ব্যাপক শোরগোল শুরু হয়েছে দক্ষিণী রাজ্যটিতে। কর্নাটক এমনিতেই বিজেপি শাসিত। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর ‘হর ঘর তেরঙা’য় অংশ নিয়ে সে রাজ্যের সরকার থেকে এই বিজ্ঞাপন তৈরি করা হয়েছে। দেখা গেছে, তাতে স্বাধীনতা সংগ্রামীদের তালিকায় অন্য অনেকের সঙ্গে রয়েছে বিনায়ক সাভারকরের (Vinayak Savarkar) ছবিও, কিন্তু ব্রাত্য জওহরলাল নেহেরু।

এই বিষয়টিকে ইস্যু করে প্রতিবাদে সামিল হয়েছে কংগ্রেস। তারা এমন বিজ্ঞাপনের তীব্র নিন্দা করেছে। যেখানে দেশের প্রথম প্রধানমন্ত্রী নেহেরুর জায়গা হয়নি, অথচ রয়েছেন আরএসএসের সাভারকর, সেই বিজ্ঞাপন অবিলম্বে তুলে নেওয়ার দাবিও জানিয়েছে তারা। কংগ্রেস এবং বিজেপি সমর্থকরা সোশ্যাল মিডিয়ায় তর্কযুদ্ধে নেমেছেন।

১৪ অগস্ট দিনটিকে ‘দেশভাগের যন্ত্রণার স্মৃতিচারণ দিবস’ হিসেবে উল্লেখ করেছেন নরেন্দ্র মোদী। সেদিনই সকালে কর্নাটকের খবরের কাগজে পূর্ণ পৃষ্ঠার এই সরকারি বিজ্ঞাপন প্রকাশিত হয়েছে। এছাড়া এদিন কর্নাটকের শাসকদল একটি ভিডিও টুইটও করেছে যা এই বিতর্কে ইন্ধন দিয়েছে। সেই ভিডিওতে নেহেরু এবং মহম্মদ আলি জিন্নাহকে দেশভাগের জন্য দায়ী হিসেবে দেখানো হয়েছে। কংগ্রেসের অভিযোগ, অতীতের দুঃখময় দিনের স্মৃতি উস্কে দিয়ে বর্তমানে রাজনৈতিক ফায়দা তুলতে চাইছেন প্রধানমন্ত্রী মোদী।

সরকারি ওই বিজ্ঞাপনে দেশপ্রেমীদের তালিকায় নেহেরুর ছবি ইচ্ছে করেই রাখা হয়নি, জানিয়েছে কর্নাটকের শাসকদল বিজেপি। দলের মুখপাত্র রবি কুমার বলেন, দেশভাগের জন্য নেহেরুই দায়ী। এই বিজ্ঞাপন থেকে ওঁর ছবি সরিয়ে দেওয়া হয়েছে। তিনি আরও জানান, সর্দার বল্লভভাই প্যাটেল, ঝাঁসির রানি, গান্ধীজি এবং সাভারকর দেশের স্বাধীনতার জন্য লড়াই করেছিলেন, তাই তাঁদের ছবি আছে। নেহেরু নেই।

বিজেপির এমন পদক্ষেপের তীব্র নিন্দা করেছে কংগ্রেস। মুখ্যমন্ত্রী বাসবরাজ বোম্মাইয়েই পদত্যাগ চেয়েছে তারা, সেই সঙ্গে বিজেপিকে ক্ষমা চাইতে হবে বলেও জানিয়েছে কংগ্রেস।

আরও পড়ুন: পার্থ নন অনুব্রত, কেষ্টর হয়ে ময়দানে লড়বেন তিনিও, বুঝিয়ে দিলেন মমতা

You might also like