Latest News

সিধু নিয়োগ করলেন চার পরামর্শদাতা, বিধায়কদের সঙ্গে বৈঠক, ক্যাপ্টেনকে অপসারণের দৌত্য

দ্য ওয়াল ব্যুরো: দু’দিন আগেই কংগ্রেস সভানেত্রী সনিয়া গান্ধীর সঙ্গে দেখা করেছিলেন পাঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী অমরেন্দ্র সিং। বুধবার দেখা করেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী এবং স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী অমিত শাহ ‘ র সঙ্গে। তারপরই দেখা গেল চার উপদেষ্টা নিয়োগ করলেন পাঞ্জাব প্রদেশ কংগ্রেসের সদ্য নিয়োগ হওয়া সভাপতি তথা প্রাক্তন ক্রিকেটার নবজ্যোৎ সিং সিধু। শুধু তাই নয়, এই চার উপদেষ্টার পরামর্শে শিগগিরই বিধায়কদের নিয়ে বৈঠক ডাকতে চলেছেন প্রদেশ সভাপতি। সেখানে সিদ্ধান্ত নিয়ে ক্যাপ্টেনকে মুখ্যমন্ত্রী পদ থেকে সরিয়ে দেওয়ার প্রস্তাব পাস হতে পারে। যদিও দিন কয়েকের মধ্যেই পাঞ্জাব মন্ত্রিসভার রদবদল হওয়ার কথা।।

গত মাসে পাঞ্জব কংগ্রেসে সিধু আর অমরেন্দ্রর পাঞ্জা লড়াই দেখেছে গোটা দেশ। তারপর শেষ পর্যন্ত সিধুকে প্রদেশ সভাপতি করার ক্ষেত্রে ছাড়পত্র দেয় কংগ্রেস হাইকম্যান্ড। তারপর কোন্দল তো থামেইনি বরং দলের লাগাম ধরে ক্যাপ্টেনকে সরাতে মরিয়া হয়ে উঠেছেন ভারতীয় দলের প্রাক্তন ক্রিকেটার।

সিধুর পরামর্শদাতা কারা? তাঁরা হলেন, সাংসদ অমর সিং, ডক্টর পেয়ারেলাল গর্গ, মলবিন্দর সিং মালি এবং পাঞ্জাব পুলিশের প্রাক্তন ডিজিপি মহম্মদ মুস্তাফা। যদিও মুস্তাফা সিধুকে জানিয়ে দিয়েছেন, তিনি এই উপদেষ্টা প্যানেলে থাকবেন না। প্রসঙ্গত, গত সপ্তাহে আবার মুখ্যমন্ত্রীর উপদেষ্টার দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি নিয়েছেন প্রশান্ত কিশোর। সব মিলিয়ে পাঞ্জাবের রাজনীতি তুঙ্গে।

অমরেন্দ্র দিল্লি গিয়ে সনিয়ার সঙ্গে দেখা করার আগেই পাঞ্জাবের এক ঝাঁক বিধায়ক চিঠি লিখেছিলেন সনিয়া গান্ধীকে। তাঁরা সেই চিঠিতে লিখেছিলেন, গত ভোটে যে ১৮ দফা প্রতিশ্রুতি দিয়ে সরকারে এসেছিল ক্যাপ্টেনের কারণেই তার অনেকগুলি বাস্তবায়িত করা যায়নি। যা গোটা রাজ্যের সামনে কংগ্রেসের জন্য খারাপ। এরপর দিল্লি থেকে অমরেন্দ্র অমৃতসরে পা রাখতেই চাপ বাড়াতে শুরু করেছে সিধু শিবির।

ইতিমধ্যেই চরণজিৎ সিং চান্নি, সুখজিন্দার সিং, কুলবীর জিরা-সহ একাধিক বিধায়কের সঙ্গে বৈঠক সেরেছেন সিধু। আগামী কয়েকদিনের মধ্যেই সমস্ত বিধায়ককে তলব করা হতে পারে বলে খবর। তা শেষ পর্যন্ত হলে পাঞ্জাব প্রদেশ কংগ্রেসে নতুন করে আঁধার ঘনাবে বলেই মনে করছেন অনেকে। ভোটের যখন আর ছ’মাসও বাকি নেই তখন এই পরিস্থিতি সনিয়া, রাহুলদের জন্যও বিড়ম্বনা ডেকে আনবে।

You might also like