Latest News

প্রাক্তন পাকিস্তানি সেনা অফিসারকে ‘পদ্মশ্রী’ দিল ভারত! তিনি কে? পড়ুন

দ্য ওয়াল ব্যুরো: প্রায় বিস্মৃতির অন্তরালে চলে গিয়েছিলেন তিনি। লেফটেন্যান্ট কর্নেল কাজি সাজ্জাদ আলি জাহির (ex pak army officer)। এই প্রাক্তন পাকিস্তানি সেনা অফিসার ফের চর্চার কেন্দ্রে। সৌজন্যে নরেন্দ্র মোদী সরকার (modi government)। প্রাণের ঝুঁকি নিয়ে সীমান্ত পেরিয়ে ভারতে চলে আসা, ১৯৭১ এর যুদ্ধে বাংলাদেশের স্বাধীনতায় সাহায্য করা পাকিস্তানি সেনাকর্তাকে পদ্মশ্রী (padmashri) সম্মানে ভূষিত করল ভারত সরকার (government of india)। তাঁর হাতে পদ্ম-পুরস্কার তুলে দিয়েছেন রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ। ভারতের অন্যতম সেরা অসামরিক খেতাবে তাঁর ভূষিত হওয়া বাংলাদেশের স্বাধীনতা যুদ্ধেরই (bangaladesh) (liberatin struggle) স্বীকৃতি বলা যায়।
মাত্র ২০বছর বয়সে শিয়ালকোটে নিযুক্ত পাকিস্তানি সেনাবাহিনীর লেফটেন্যান্ট কর্নেল জাহির সীমান্ত পেরিয়ে ভারতে চলে আসেন। সাবেক পূর্ব পাকিস্তানে পাক সেনার অত্যাচার তখন চরমে। ব্যাপক মানবাধিকার লঙ্ঘন করছে তারা।
কিন্তু পালিয়ে ভারতে চলে এলে কী হবে, তত্কালীন প্রেক্ষাপটে তাঁর উদ্দেশ্য নিয়ে সন্দেহ, সংশয় জাগা তো স্বাভাবিক ছিল। তাঁকে পাকিস্তানের চর সন্দেহে প্রথমে সীমান্ত রক্ষী বাহিনী, পরে পাঠানকোটে ভারতীয় সেনাবাহিনীর সিনিয়র অফিসাররা জিজ্ঞাসাবাদ করেন। তবে কর্নেল জাহির সন্তর্পনে পায়ের বুটের ভিতরে বেশ কিছু গোপন নথি, মানচিত্র লুকিয়ে নিয়ে এসেছিলেন। পকেটে ছিল মাত্র ২০ টাকা। বুট থেকে বের করে পাকিস্তানি সেনাবাহিনীর ভিতরের বেশ কিছু গোপন খবর, নথি পেশ করার পর ভারতীয় সেনাকর্তারা নিশ্চিত হন যে, তিনি চরবৃত্তি করতে এদেশে ঢোকেননি। অতঃপর তাঁকে দিল্লির এক সেফ হাউসে রাখা হয়। সেখান থেকে তাঁর সঙ্গে সমন্বয় গড়ে বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধে সাহায্য করে ভারতীয় সেনাবাহিনী। পরে কর্নেল জাহির বাংলাদেশে ঢোকেন। সেখানে তিনি মুক্তি বাহিনীকে পাকিস্তানি সেনাবাহিনীর মোকাবিলায় গেরিলা যুদ্ধের কলাকৌশল শেখান।
ফলে পাকিস্তানের চোখে ‘ঘরের শত্রু বিভীষণ’ কর্নেল জাহির নিজের দেশে ঘৃণার পাত্র হয়ে ওঠেন। তাঁর নামে গত ৫০ বছর ধরে মৃত্যু পরোয়ানা বহাল রয়েছে বলে জানিয়েছেন তিনি। কিন্তু ভারতের পাশাপাশি বাংলাদেশে সম্মানের পাত্র কর্নেল জাহির। বাংলাদেশ তাঁকে বীর প্রতীক, দেশের সর্বোচ্চ অসামরিক খেতাব স্বাধীনতা পদক দিয়ে সম্মানিত করেছে। এবার উপমহাদেশের সামরিক ইতিহাসে বিরাট অবদানের জন্য পদ্মশ্রী দিয়ে তাঁকে প্রাপ্য মর্যাদা দিল ভারত।

You might also like