Latest News

মিগ-২১ বিমান বাতিল করুক ভারতীয় বায়ুসেনা, দাবি মোগা দুর্ঘটনায় নিহত ফাইটার পাইলটের বাবার

দ্য ওয়াল ব্যুরো: পঞ্জাবের মোগা জেলায় গত বৃহস্পতিবার  রাতে মিগ-২১ বাইসন ফাইটার যুদ্ধবিমান ভেঙে পড়ে নিহত স্কোয়াড্রন লিডার অভিনব চৌধুরির বাবা সত্যেন্দ্র চৌধুরি কেন আদ্যিকালের পুরানো ভারতীয় বায়ুসেনায় আজও তা রাখা হয়েছে, প্রশ্ন তুললেন। সেই রাতে প্রায় চার ঘন্টা তন্ন তন্ন করে খুঁজে বিমানটি ভেঙে পড়ার জায়গা থেকে প্রায় ২ কিমি দূরে অভিনবর দেহ উদ্ধার করা হয়।

মিরাটের গঙ্গাসাগর কলোনির বাড়িতে বসে সত্যেন্দ্রর আবেদন,  নিজের ছেলেকে হারিয়ে সরকারকে তিনি বলতে চান, মিগ ২১ যুদ্ধবিমানগুলি ধাপে ধাপে ভারতীয় বায়ুসেনা থেকে তুলে নেওয়া হোক যাতে আরও অভিভাবকের আমার মতো এমন অপূরণীয় ক্ষতি না হয়। বায়ুসেনা স্কোয়াডে অল্পবয়সিদের আজও দেশের সবচেয়ে পুরানো যুদ্ধবিমানের একটিতে উড়ান প্রশিক্ষণ নিতে অনুমতি দেওয়া হয়। এই বিমানগুলির উড়ানের মধ্যেই যান্ত্রিক ত্রুটির কবলে পড়ার ইতিহাস আছে। আমাদের যোদ্ধা পাইলটদের অনেকের প্রাণ কেড়েছে বিমানগুলি। এটা সিরিয়াস ব্যাপার। এর সঙ্গে আমাদের পাইলটদের জীবন জড়িয়ে আছে। সরকারকে এই দুর্ঘটনাপ্রবণ বিমানগুলিকে আর ভারতীয় বায়ুসেনায় না রাখার জন্য আবেদন করছি।

অভিনবের পরিবারের আদি নিবাস বাগপতে। অনেক বছর আগে তারা মিরাটে বাড়িবদল করেন। তিনিও সেখানেই প্রাথমিক পড়াশোনা করে দেহরাদুনে রাষ্ট্রীয় ভারতীয় সামরিক কলেজে ভর্তি হন। ভারতীয় বায়ুসেনায় যোগ দেন ২০১৪-য়। প্রথম পোস্টিং হয় পঠানকোটের বায়ুসেনা ঘাঁটিতে।

অভিনবর বাবার পাশাপাশি তাঁর  আত্মীয় ডঃ আঞ্জুমও ক্ষোভের সুরে বলেন, প্রতি বছর  এই ‘উড়ুন্ত কফিনগুলি’, যেগুলিকে রাশিয়া আটের দশকেই বাতিল করেছে, ভেঙে পড়ে আমাদের অনেক ফাইটার পাইলট মারা যান। তবুও আমাদের সরকার সোভিয়েত আমলের পুরানো দ্রষ্টব্য বিমানগুলি বাতিলের ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নিতে গড়িমসি করছে। প্রতিবেশী অবসরপ্রাপ্ত ক্যাপ্টেন জ্ঞান সিংয়ের প্রশ্ন, সরকার নাকি যোদ্ধা পাইলটদের প্রশিক্ষণে কোটি কোটি টাকা ব্যয় করে। তাহলে কেন এই লড়ঝরে বিমানে ওদের চড়ার অনুমতি দেওয়া হয়!

 

You might also like