Latest News

নজরে ভোট? প্রজাতন্ত্র দিবসে দিল্লি হিংসায় ধৃতদের ২ লাখ, ঘোষণা পঞ্জাব মুখ্যমন্ত্রীর

দ্য ওয়াল ব্যুরো: এ বছরের ২৬ জানুয়ারি প্রজাতন্ত্র দিবসের দিন (republic day) সকালে কৃষক আন্দোলনকে (farmers agitation) কেন্দ্র  করে  রীতিমতো তাণ্ডব (violence) হয়েছিল নয়াদিল্লিতে। কেন্দ্রের তিন বিতর্কিত কৃষি আইন (farm laws) প্রত্যাহারের দাবিতে রাজধানীতে ঢুকে পড়েছিল কৃষকদের ট্রাক্টর মিছিল (tractor rally) । ব্যারিকেড ভেঙে বিক্ষোভকারীদের একাংশ লালকেল্লায় ঢুকে জাতীয় পতাকা সরিয়ে ধর্মীয় পতাকা উত্তোলন করে। দিল্লি পুলিশের সঙ্গে কয়েক হাজার কৃষকদের সংঘর্ষ হয়। ইট-পাথর পড়ে বৃষ্টির মতো। বহু গাড়ি উল্টে দেয় বিক্ষোভকারীরা। সেদিনের চরম বিশৃঙ্খলা, অশান্তির মধ্যে ৮৩ জনকে গ্রেফতার (arrest) করে পুলিশ। গণতন্ত্র উদযাপনের দিনে নৈরাজ্যের চেহারা দেখে অনেকে সেদিন বিরক্ত হয়েছিলেন। কিন্তু সেদিনের গ্রেফতার লোকজনের পাশে দাঁড়িয়ে প্রত্যেককে ২ লাখ টাকা আর্থিক ক্ষতিপূরণ (compensation) দেওয়ার সিদ্ধান্ত ঘোষণা করল পঞ্জাবের চরণজিত্ সিং চান্নি সরকার (punjab government)। রাজনৈতিক পর্যবেক্ষকদের অভিমত, পঞ্জাবের গ্রাম-গ্রামাঞ্চল কেন্দ্রের কৃষি আইন বিরোধী ঘাঁটিগুলির অন্যতম। কয়েক মাস বাদে সেখানে বিধানসভা নির্বাচন (assembly poll)।  ভোটের কথা মাথায় রেখেই কি ধৃতদের পাশে দাঁড়ানোর সিদ্ধান্ত চান্নির?

সোস্যাল মিডিয়ায় তিনি লিখেছেন, তিনটি কালা কৃষি আইনের বিরুদ্ধে চলতি কৃষক আন্দোলনের প্রতি আমার সরকারের সমর্থন ফের ঘোষণা করছি। ২৬ জানুয়ারি রাজধানীতে  ট্রাক্টর মিছিল করায় দিল্লি পুলিশের হাতে গ্রেফতার ৮৩ জনকে ২ লাখ টাকা করে ক্ষতিপূরণ দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি।

প্রসঙ্গত, কৃষক সংগঠন সংযুক্ত কিষাণ মোর্চা যখন কেন্দ্রের কৃষি আইনের বিরুদ্ধে কৃষক আন্দোলনের বর্ষপূর্তি পালনে ২৯ নভেম্বর থেকে প্রতিদিন সংসদ অভিমুখে ৫০০ কৃষকের শান্তিপূর্ণ ট্রাক্টর  মিছিলের কর্মসূচি নিয়েছে, তখনই চান্নির এই সিদ্ধান্ত। ওইদিন থেকে বসছে সংসদের শীতকালীন অধিবেশন।  গত জানুয়ারিতে সুপ্রিম কোর্ট কেন্দ্রের তিন কৃষি আইনের প্রয়োগে স্থগিতাদেশ দিয়েছে। তারপরও পঞ্জাব, হরিয়ানা, উত্তরপ্রদেশের কৃষকরা গত বছরের ২৬ নভেম্বর থেকে দিল্লির তিন সীমান্তে অবরোধ করে বসে রয়েছে।

পাশাপাশি পাঞ্জাবি ভাষাকেও রাজ্যের সব স্কুলে বাধ্যতামূলক করেছেন চান্নি। না মানলে স্কুলকে ২ লাখ পর্যন্ত জরিমানা দিতে হবে।

 

You might also like