Latest News

মেয়ের উপর ‘ভর’ হয়েছে, ঝাড়ফুঁক করতে করতে একরত্তিকে মেরেই ফেলল বাবা-মা!

দ্য ওয়াল ব্যুরো: পাঁচ বছরের ছোট্ট মেয়ে, তার উপর ‘ভর’ হয়েছে বলে ধারণা হয় বাবা-মায়ের (Parents)। নিজেরাই তারা কালাজাদু (Black Magic) করার সিদ্ধান্ত নেয়। একরত্তি মেয়েকে ঝাড়ফুঁক তুকতাক করে সুস্থ করতে চেয়েছিল তারা। কিন্তু সকলের চড়-থাপ্পড় ছোট্ট শরীর সহ্য করতে পারেনি। মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়েছে বাচ্চা মেয়েটি।

ভয়াবহ এই ঘটনাটি ঘটেছে নাগপুরের (Nagpur) সুভাষনগরে। মেয়েটির বাবা, মা এবং কাকিমাকে গ্রেফতার করা হয়েছে। ধৃতরা হল সিদ্ধার্থ চিমনে, রঞ্জনা এবং প্রিয়া বানসোদ।

জানা গেছে, কিছুদিন আগে দুই মেয়েকে নিয়ে দরগায় গিয়েছিল সিদ্ধার্থ, রঞ্জনা। বড় মেয়ের বয়স ১৬, ছোটটি ৫ বছরের। সেখান থেকে ফেরার পরেই নাকি ছোট মেয়ের আচরণে কিছু অস্বাভাবিকত্ব লক্ষ্য করে তার বাবা-মা। তা থেকেই তাদের ধারণা হয়, কোনও অশুভ শক্তি ‘ভর’ করেছে মেয়ের উপর।

নিজেরাই ঝাড়ফুঁক করে মেয়েকে সুস্থ করে তুলবে ভেবেছিল সিদ্ধার্থ, রঞ্জনারা। সেই মতো শুক্রবার রাতে শুরু হয় কালাজাদু। তাদের সঙ্গে যোগ দেয় বাচ্চাটির কাকিমা প্রিয়াও।

গোটা ঘটনার একটি ভিডিও তুলে রেখেছিল তারাই। পুলিশ তাদের মোবাইল থেকে সেই ভিডিও হাতে পেয়েছ। তাতে দেখা গেছে, বাচ্চা মেয়েটিকে বসিয়ে নাগাড়ে কিল-চড়-থাপ্পড় মারা হচ্ছে। জিজ্ঞেস করা হচ্ছে বেশ কিছু প্রশ্ন। প্রশ্নের মানে বুঝতে না পেরে অঝোরে কাঁদছে একরত্তি সেই মেয়ে। কিন্তু তার কান্নায় কেউ কর্ণপাত করছে না। একসময় মার খেতে খেতে অজ্ঞান হয়ে পড়ে যায় মেয়েটি।

পরদিন সকালে মেয়েকে নিয়ে বার সেই দরগাতেই যায় বাবা-মা। তারপর তাকে নিয়ে যাওয়া হয় সরকারি হাসপাতালে। সেখানে মেয়েকে রেখে পালিয়ে যায় দুজনেই। ওই হাসপাতালের এক নিরাপত্তারক্ষীর সন্দেহ হয় তাদের ভাবভঙ্গি দেখে। তিনি তাদের গাড়ির নম্বর ছবি তুলে রাখেন। তা থেকেই ধরা পড়েছে তিন জন।

হাসপাতালে মেয়েটিকে মৃত বলে ঘোষণা করেন চিকিৎসকরা। তারপর তাঁরাই পুলিশে খবর দেন। পুলিশ মেয়েটির বাবা, মা ও কাকিমাকে গ্রেফতার করেছে।

আরও পড়ুন: সাপে কাটা শিশুকে ঝাড়ফুঁক! মৃত্যুর পর ওঝাকে ঘিরে ধরল গ্রামবাসীরা, পাথরপ্রতিমায় শোরগোল

You might also like