Latest News

নব মহাকরণে এবার ‘অর্ডার অর্ডার’, ৬টি ফ্লোর ফাঁকা করতে বলল নবান্ন

রফিকুল জামাদার

মাথার উপর বিরাট একটা সিমেন্টের ফুটবল। দূর থেকে চেনা যায় গঙ্গাপাড়ের বাড়িটাকে। নিউ সেক্রেটারিয়েট বিল্ডিং (New secretariat building) । নব মহাকরণ। রাইটার্স বিল্ডিংসে যখন পরিসর হচ্ছিল না, তখন এই বাড়িটিতে আনা হয়েছিল অনেক সরকারি দফতরকে। বসতেন মন্ত্রীরাও। সেই বাড়িটিরই এবার অনেকটা জুড়ে আদালত বসবে। সরবে একাধিক দফতর।

নগর দায়রা আদালত তথা সিটি সিভিল কোর্ট থেকে শুরু করে বেশ কয়েকটি কোর্ট ঘিঞ্জি হয়ে রয়েছে। সেই কারণে জায়গা দরকার। প্রায় ৫০ হাজার বর্গ ফুট জায়গা প্রয়োজন। সংশ্লিষ্ট আদালতগুলির কিছু শাখার স্থানান্তর কার্যত জরুরি হয়ে পড়েছে। এবার সেগুলিকে আনা হবে নব মহাকরণে। যে কারণে নীল বহুতলটির ১ থেকে ৬ তলা পর্যন্ত আদালতের জন্য বরাদ্দ করতে চলেছে নবান্ন। এ ব্যাপারে নবান্ন প্রয়োজনীয় প্রক্রিয়াও শুরু করে দিয়েছে।

কলকাতা হাইকোর্টের প্রধান বিচারপতি প্রকাশ শ্রীবাস্তবের সঙ্গে কয়েকদিন আগে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee) দেখা করেন।

বুধবার রাজ্যের মুখ্যসচিব হরিকৃষ্ণ দ্বিবেদী একটি বৈঠক করে নব মহাকরণের একতলা থেকে ছ’তলা পর্যন্ত থাকা দফতরগুলির সঙ্গে কথাও বলেছেন। এর মধ্যে রয়েছে আবাসন, ক্রীড়া, সমবায়, পর্যটন, লেবার ট্রাইব্যুনাল। নবান্ন সূত্রে খবর, এদিনের বৈঠক বলা হয়েছে, আগামী ১৫ দিনের মধ্যে এই দফতরগুলি সরাতে হবে। তবে কোথায় এই দফতরগুলির কাজ হবে সে ব্যাপারে এখনও স্পষ্ট করে কিছু জানা যায়নি। জানা যাচ্ছে, কিছু দফতর নবান্নে (Nabanna) স্থানান্তর হতে পারে। বাকি দফতরগুলি রাজ্য সরকারের বিভিন্ন প্রশাসনিক ভবনে সরতে পারে।

বিজেপি ছাড়ার পর অনেকে শোভনের অবিচুয়ারি লিখে দিয়েছিল: বৈশাখী

You might also like