Latest News

মোদীর মুখে ফের ‘পরিবারতন্ত্র’, ভোটের আগের দিন নিশানায় কংগ্রেস, সমাজবাদী পার্টি

দ্য ওয়াল ব্যুরো : রাত ফুরোলেই কাল বৃহস্পতিবার উত্তরপ্রদেশ (Uttar Pradesh) সহ পাঁচ রাজ্যের বিধানসভা ভোট (Assembly Election)। তার কয়েক ঘণ্টা আগে বুধবার রাতে সংবাদ সংস্থাকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী (Narendra Modi) ফের নিশানা করলেন কংগ্রেসকে। এদিন একই সঙ্গে তিনি আক্রমণ করেন উত্তরপ্রদেশে বিজেপির পয়লা নম্বর প্রতিপক্ষ সমাজবাদী পার্টিকে। দুই দলকেই রাজনীতিতে পরিবারতন্ত্র কায়েমের জন্য কাঠগড়ায় তোলেন প্রধানমন্ত্রী। বলেন, পরিবারবাদ হল গণতন্ত্রের সবচেয়ে বড় বিপদ। মোদী বলেন, একজন আমাকে চিঠি লিখে জানিয়েছেন, সমাজবাদী পার্টিতে একটি পরিবারের ৪৫ জন নানা পদ দখল করে আছেন।

গত দুদিন প্রধানমন্ত্রী লোকসভা ও রাজ্যসভায় কংগ্রেসকে তীব্র আক্রমণ করেন। পরিবারতন্ত্রের প্রসঙ্গ টেনে নিশানা করেন দেশের আগের শাসক দলকে। প্রধানমন্ত্রী বলেন, বিজেপিতে বড় জোর একটি পরিবারের এক-দু’জন দলে আছেন। সেটাকে পরিবারতন্ত্র বলে না।

সমাজবাদী পার্টির প্রতিষ্ঠাতা মুলায়ম সিং যাদবের পুত্র অখিলেশ অনেক আগেই বাবাকে সরিয়ে দলের সর্বভারতীয় সভাপতি হয়েছেন। একবার মুখ্যমন্ত্রীও হয়েছেন তিনি। মুলায়মের এক ভাই বর্তমানে দলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক। আর এক ভাই ক্ষমতার দ্বন্দ্বে সমাজবাদী পার্টি ছেড়ে নিজের দল গড়েছেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, এঁরা হলেন ভুয়ো সমাজবাদী। প্রকৃত সমাজবাদী ছিলেন রামমনোহর লোহিয়া, জর্জ ফার্নান্ডেজরা। এঁরা পরিবারের কাউকে দলের পদে বসিয়ে দেননি। প্রধানমন্ত্রী এই প্রসঙ্গে বিহারের মুখ্যমন্ত্রী জনতা দল ইউনাইটেডের নেতা নীতীশ কুমারেরও প্রশংসা করেন। বলেন, উনি আমাদের সঙ্গে এনডিএ তে আছেন। উনিও পরিবারের কাউকে দলের পদে বসিয়ে দেননি।

একই প্রসঙ্গে তিনি কংগ্রেসকে আক্রমণ করেন। বলেন, কংগ্রেস যে সমাজতান্ত্রিক অর্থনীতির কথা বলত, সেটাও ছিল ফেক। এর পরই তীব্র শ্লেষের সঙ্গে মোদী মন্তব্য করেন, ভুয়ো সমাজতন্ত্রীরা পরিবারবাদের শরিক।

You might also like