Latest News

ওদের ক্ষীর খাওয়ান আর তিস্তা-জুবেইরদের জেলে ভরেন: বিজেপিকে তোপ মমতার

দ্য ওয়াল ব্যুরো: গত ২৫ জুন তিস্তা সেতলাবাদকে গ্রেফতার করেছে গুজরাত পুলিশের এসটিএফ। সোমবার ফ্যাক্ট চেকিং সাংবাদিকতার প্ল্যাটফর্ম অল্ট নিউজের অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা মহম্মদ জুবেইরকে (Md Zubair) গ্রেফতার করেছে দিল্লি পুলিশের বিশেষ শাখা। এ নিয়ে যখন দেশ তোলপাড় তখন নাম না করে নূপুর শর্মাদের প্রসঙ্গ টেনে বিজেপিকে (BJP) তীব্র আক্রমণ করলেন তৃণমূলনেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee)।

মঙ্গলবার আসানসোলের সভা থেকে বিজেপির উদ্দেশে মমতা বলেন, “আপনাদের লোক ধর্ম নিয়ে কটূ কথা বললে তাকে গ্রেফতার করেন না। আপনারা ওদের ক্ষীর খাওয়ান, নিরাপত্তা দেন। কিন্তু তিস্তাকে জেলে ঢোকান, জুবেইরকে জেলে ঢোকান।”

জুবেইর জেলে, নোবেল শান্তি পুরস্কারের সংক্ষিপ্ত তালিকায় নাম রয়েছে তাঁর

একথা ঠিক যে, ২০১৪ সালের নির্বাচনে বিজেপি দেখিয়েছিল সোশ্যাল মিডিয়াকে কী ভাবে জনমত তৈরির হাতিয়ার হিসেবে ব্যবহার করা যায়। শুধু তাই নয়, টেকনোলজিকে কাজে লাগিয়ে জনমত নিয়ন্ত্রণ করার বিষয়ে গেরুয়া শিবিরের পারদর্শীতাও প্রশ্নাতীত। এদিন বিজেপির সেই কৌশলের বিরুদ্ধে আক্রমণ শানান তৃণমূলনেত্রী।
তাঁর কথায়, “বিজেপির সোশ্যাল মিডিয়া মানেই চিটিংবাজি আর ফেক ভিডিও। খালি উল্টোপাল্টা জিনিস দেখিয়ে মানুষকে ভুল বোঝায়।”

জুবেইরের গ্রেফতারি নিয়ে ইতিমধ্যেই সরব হয়েছে এডিটর্স গিল্ড। এখন জি-সেভেনের বৈঠকে যোগ দিতে জার্মানিতে রয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। তাঁকে চিঠি লিখে এডিটর্স গিল্ড জুবেইরের মুক্তির দাবি জানিয়েছে। গিল্ডের চিঠি সামনে আসতে আন্তর্জাতিক মহলেও বিষয়টি নিয়ে চর্চা শুরু হয়ে গিয়েছে। যা অন্য রাষ্ট্রনেতাদের সামনে মোদীর পক্ষে অস্বস্তিকর বলেই দাবি অনেকের ।

Image - ওদের ক্ষীর খাওয়ান আর তিস্তা-জুবেইরদের জেলে ভরেন: বিজেপিকে তোপ মমতার

এদিন সেই ইস্যু নিয়েই সরব হলেন মমতা। তাঁর কথায়, দেশে গণতন্ত্র বলে আর কিছু অবশিষ্ট রাখছে না বিজেপি। সাংবাদিকদের জেলে ঢোকাচ্ছে, সমাজকর্মীকে গ্রেফতার করছে, আর বিরোধী নেতাদের বিরুদ্ধে এজেন্সি নামিয়ে দেওয়া তো লেগেই রয়েছে।

You might also like