Latest News

আরজি কর হাসপাতালের শৌচাগারে রোগীর নিথর দেহ, ‘আত্মহত্যা?’ তদন্তে পুলিশ

দ্য ওয়াল ব্যুরো: স্নায়ুরোগের  চিকিৎসার জন্য আরজি কর মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালে (RG Kar Medical College) ভর্তি হয়েছিলেন রোগী। জানা গেছে, তাঁর মস্তিষ্কে রক্তক্ষরণ হচ্ছিল। সোমবার সকালে দেখা গেল, হাসপাতালের শৌচাগারে ওই রোগীর নিথর দেহ পড়ে রয়েছে। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ জানিয়েছেন, কী ভাবে ওই রোগীর মৃত্যু হল, তা খতিয়ে দেখছেন তাঁরা। 

মৃত রোগীর নাম রামচন্দ্র মণ্ডল (৫৫)। উত্তর ২৪ পরগনার হাবরার বাসিন্দা।  মস্তিষ্কের রক্তক্ষরণের সমস্যা নিয়ে গত ৩০ নভেম্বর আর জি কর হাসপাতালে ভর্তি হন। নিউরো মেডিসিন বিভাগে চিকিৎসাধীন ছিলেন ওই রোগী। হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, ওই রোগীর সঙ্গে তাঁর বাড়ির লোকও থাকছিলেন। তবে ঘটনাটি যখন ঘটে, তখন তাঁর সঙ্গে বাড়ির লোক ছিলেন না বলেই সূত্রের খবর।

আজ সকাল ৭টা নাগাদ হাসপাতালের (RG Kar Medical College) শৌচাগারে পড়ে থাকতে দেখা যায় তাঁকে। অন্যান্য রোগীদের দাবি, আত্মহত্যা করেছেন ওই রোগী। তবে পুলিশ জিজ্ঞাসাবাদ শুরু করেছে। এই ঘটনা আত্মহত্যা কিনা তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ। দেহ ময়নাতদন্তে পাঠানো হয়েছে।

আরজি কর হাসপাতালের শৌচাগারে রোগীর নিথর দেহ, ‘আত্মহত্যা?’ তদন্তে পুলিশ

ইতিমধ্যে রোগীর পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে যোগাযোগ করেছে পুলিশ। প্রাথমিকভাবে পুলিশের ধারণা, শারীরিক অসুস্থতার কারণে মানসিকভাবে অবসাদে ছিলেন ওই রোগী। সেই কারণে তিনি আত্মঘাতী হতে পারেন। কীভাবে একজন রোগী নিরাপত্তা পেরিয়ে হাসপাতালে শৌচাগারে আত্মঘাতী হলেন সে প্রশ্নও উঠেছে। পুলিশের পাশাপাশি হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ বিষয়টি খতিয়ে দেখছে। উল্লেখ্য, কিছুদিন আগেই কলকাতা ন্যাশনাল মেডিক্যাল কলেজে এক রোগী হাসপাতালের বহুতল থেকে ঝাঁপ দিয়ে আত্মঘাতী হয়েছিলেন।

You might also like