Latest News

‘শুভ মুহূর্ত’ আসেনি! শ্বশুরবাড়ি ফেরেননি স্ত্রী, ডিভোর্স মঞ্জুর কোর্টের

দ্য ওয়াল ব্যুরো: ২০১০ এর জুলাইয়ে বিয়ে (marriage) হয়েছিল। মাত্র ১১ দিন একসঙ্গে ছিলেন দুজনে। তারপর স্বামীর (husband) ঘর ছেড়ে স্ত্রী (wife) সেই যে বাপের বাড়ি ফিরলেন, আর সেদিকে পা বাড়ালেন না!  আজও নাকি শ্বশুরবাড়ি (matrimonial house) যাওয়ার শুভ মুহূর্ত (auspicious moment) আসেনি, সেজন্য অপেক্ষা করে করে আর সেখানে যাওয়াই হল না। শেষ পর্যন্ত বেচারা স্বামীর আবেদন মঞ্জুর করে দুজনের ডিভোর্স (divorce)দিল ছত্তিশগড় হাইকোর্ট। ১৯৫৫ সালের হিন্দু বিবাহ আইনে এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে আদালত কেননা প্রায় ১০ বছর স্ত্রী স্বামীর থেকে দূরেই থেকেছেন। এত দীর্ঘ সময় স্বামীর কাছ থেকে দূরে থাকা  তাঁকে পরিত্যাগ করার সমান বলে মনে করেছে আদালত। এটা রায়দানের শক্ত ভিত্তি তাদের।

সন্তোষ সিং নামে লোকটি স্ত্রীর পরিত্যাগের কারণ দেখিয়ে পরিবার আদালতে ডিভোর্সের আবেদন করলে সেখানে তা খারিজ হয়ে গিয়েছিল। পরে তিনি পরিবার আদালতের রায়কে হাইকোর্টে চ্যালেঞ্জ করেন।

জানা গিয়েছে, ওই দম্পতি ১১টা দিন একসঙ্গে থাকার পর পাত্রীর পরিবারের সদস্যরা কিছু জরুরি কাজ আছে বলে জানিয়ে তাঁকে  শ্বশুরবাড়ি থেকে নিয়ে চলে যান। তারপর থেকে দুদুবার সন্তোষ স্ত্রীকে ফিরিয়ে নেওয়ার জন্য যোগাযোগ করেন। কিন্তু স্ত্রী সময় শুভ নয় বলে দুবারই স্বামীর সঙ্গে যেতে অস্বীকার করেন। তবে সন্তোষের পিটিশনের জবাবে তিনি দাবি করেন, তিনি ফিরতে তৈরি ছিলেন যখন শুভ মুহূর্ত শুরু হয়েছিল। কিন্তু সন্তোষই তখন তাঁকে ফিরিয়ে নিয়ে  যেতে আর আসেননি। আদালতে স্ত্রীর সওয়াল, আমি সন্তোষকে ছাড়িনি, সে-ই বরং  আমায় চলতি রীতিপ্রথা মাফিক এসে নিয়ে যেতে পারেনি।

সন্তোষের কৌঁসুলি আদালতে বলেন, মহিলা জানতেন, দাম্পত্য সম্পর্ক, অধিকার পুনঃস্থাপনের নির্দেশ বেরিয়েছে, কিন্তু তিনি স্বামীর  সঙ্গে ঘর করতে যাননি। পাল্টা স্ত্রীর আইনজীবীর দাবি, দুতরফের মধ্যে চলতি রীতি অনুসারে দ্বিরাগমনের সময় সন্তোষের এসে স্ত্রীকে নিয়ে যাওয়ার কথা ছিল। কিন্তু তিনি তখন  না এসে এমন সময় আসেন যখন সময়, মুহূর্ত শুভ ছিল না। তাঁকে শুভ সময়  দেখে ফিরে আসতে বলা হয়েছিল।

 

 

 

You might also like