Latest News

অসমে হিজবুল জঙ্গি সন্দেহে আটক ট্রাভেল এজেন্সির মালিক

দ্য ওয়াল ব্যুরো : এনআইএ-র কাছে খবর ছিল, অসমে সক্রিয় হয়ে উঠতে চাইছে জঙ্গি সংগঠন হিজবুল মুজাহিদিন। বৃহস্পতিবার অসমের লঙ্কা থানা এলাকায় অভিযান চালায় গোয়েন্দারা। আটক করে হয় তাহির হক নামে এক ব্যক্তিকে। তিনি গুয়াহাটির এক ট্রাভেল সংস্থার মালিক। সংস্থার নাম টি এইচ ট্রাভেল এজেন্সি। তাঁকে লঙ্কা থানায় নিয়ে গিয়ে জেরা করা হচ্ছে।

এর আগে গত বছরের সেপ্টেম্বর মাসে উত্তরপ্রদেশ থেকে কামারুজ্জামান নামে এক জঙ্গি ধরা পড়ে। জানা যায়, তার বাড়ি অসমে। অসম পুলিশ তার পরে কামারুজ্জামানের ভাই সইফুদ্দিনকে গ্রেফতার করে। এছাড়া নগাঁও এবং যমুনামুখী অঞ্চলে তল্লাশি চালিয়ে গ্রেফতার করা হয় হিজবুলের তিন লিঙ্কম্যানকে। তাদের নাম রিয়াজুদ্দিন ভুঁইয়া, জয়নাল আহমেদ এবং বাহিরুল ইসলাম। তখনও পুলিশ সন্দেহ করেছিল, লঙ্কা অঞ্চলে হিজবুলের দু’-একজন লুকিয়ে থাকতে পারে। কানপুর পুলিশের একটি টিম লঙ্কা অঞ্চলে এসেছিল।

হিজবুল মুজাহিদিন নামে জঙ্গি সংগঠনটির জন্ম কাশ্মীরে। মহম্মদ আহসান দার নামে এক ব্যক্তি ১৯৮৯ সালের সেপ্টেম্বরে ওই সংগঠনটি তৈরি করেন। ভারত, ইউরোপীয় ইউনিয়ন এবং আমেরিকায় হিজবুল ‘সন্ত্রাসবাদী সংগঠন’ হিসাবে ঘোষিত হয়েছে।

১৯৯০ সালে মহম্মদ আহসান দারের অধীনে ১০ হাজার সশস্ত্র জঙ্গি ছিল বলে জানা যায়। অভিযোগ, পাকিস্তানের গুপ্তচর সংস্থা আইএসআই তাদের প্রশিক্ষণ দিয়েছিল। ১৯৯১ সালে হিজবুলের সঙ্গে তেহরিক ই জিহাদ ই ইসলামি নামে এক সংগঠন মিশে যায়। ২০০০ সালে হিজবুলের অপারেশনাল কম্যান্ডার আবদুল মজিদ দার ভারত সরকারের সঙ্গে সংঘর্ষবিরতি ঘোষণা করেন। পাকিস্তানের মিডিয়া এই সংঘর্ষবিরতির তীব্র নিন্দা করে। কয়েক মাসের মধ্যে হিজবুলের পাকিস্তানের কম্যান্ডার সৈয়দ সালাহুদ্দিন সংঘর্ষবিরতি শেষ করেন। ২০০২ সালে দারকে ভারতের গোয়েন্দা সংস্থা ‘র’-এর এজেন্ট বলে ঘোষণা করা হয়।

২০১৬ সালের জুলাই মাসে হিজবুলের কম্যান্ডার বুরহান ওয়ানি ভারতীয় নিরাপত্তারক্ষীদের গুলিতে মারা পড়ে। তার পরে কাশ্মীরে ব্যাপক হাঙ্গামা চলতে থাকে। নিরাপত্তারক্ষীদের লক্ষ করে পাথর ছোঁড়া হতে থাকে।

হিজবুল চায় কাশ্মীর পাকিস্তানের সঙ্গে যুক্ত হোক। তাদের সংগঠন আছে মূলত কাশ্মীর উপত্যকা এবং পাকিস্তান অধিকৃত কাশ্মীরে। কিন্তু গত কয়েক বছরে ভারতের নানা অংশে ‘জেহাদ’ ছড়িয়ে দেওয়ার ছক কষেছে হিজবুল। নিরাপত্তারক্ষীদের আশঙ্কা, তারা প্রজাতন্ত্র দিবসের সময় রাজধানী দিল্লি ও অন্যত্র নাশকতার চেষ্টা করবে।

You might also like