Latest News

ওমিক্রন: মুম্বইয়ে বিদেশ ফেরত যাত্রীদের দিনে ৫ বার ফোন, একবার বাড়িতে বিএমসি কর্মীরা

দ্য ওয়াল ব্যুরো: ওমিক্রন আতঙ্কের মধ্যে মুম্বইয়ে (mumbai) তোড়জোড় মহানগরীর পুরসভার। বৃহন্মুম্বই পুরসভা (বিএমসি) (bmc) জানাল, ঝুঁকিপূর্ণ দেশগুলি থেকে শহরে আসা বিমানযাত্রীদের যথাযথ নজরদারি ও তাঁরা হোম কোয়ারেন্টিনে থাকছেন, এটা সুনিশ্চিত করতে দিনে ৫ বার ফোন কল (phone call) করবেন,  একবার সশরীরে (physical visit) তাঁদের দেখতে যাবেন পুরকর্মীরা। এমন যাত্রীরা কোয়ারেন্টিন (quarantine) নিয়মবিধি মেনে চলছেন, সুনিশ্চিত করতে হাউসিং সোসাইটিগুলিকেও চিঠি পাঠাবে বিএমসি। কোনও যাত্রী নিয়ম ভাঙলে ২০০৫ সালের বিপর্যয় মোকাবিলা আইন ও ১৮৯৭ সালের মহামারী আইনে অভিযুক্ত হবেন। শুক্রবার বিদেশ থেকে আসা বিমানযাত্রীদের স্বাস্থ্যের ওপর নজর রাখার বিস্তারিত গাইডলাইন প্রকাশ করেন বিএমসির কমিশনার ইকবাল সিং চাহাল।

কর্নাটকে কোভিড ১৯ এর ওমিক্রন ভ্যারিয়েন্ট সংক্রমিত এক যাত্রীর ভারত ছেড়ে চলে যাওয়ার পরিপ্রেক্ষিতেই সংক্রমণ ছড়ানো ঠেকাতে তাঁদের এহেন তত্পরতা, জানিয়েছেন চাহাল। নয়া গাইডলাইন অনুসারে, মুম্বই আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর লিমিটেড ‘ঝুঁকিপ্রবণ’ ও ‘গভীর ঝুঁকিপূর্ণ’ দেশ থেকে আসা বিমানযাত্রীদের তালিকা বিএমসিকে দেবে, এই ধরনের দেশগুলিতে গত ১৫ দিনে সফর করা যাত্রীদের তালিকাও দেবে। তবে লিস্টে শুধুমাত্র মুম্বইয়ে বসবাস করেন, এমন যাত্রীদের নামই থাকবে। তালিকা পাওয়ার পর ডিজাস্টার ম্যানেজমেন্ট সেল তা যাত্রীদের ঠিকানা অনুযায়ী ২৪টি প্রশাসনিক ওয়ার্ডে পাঠিয়ে দেবে। সেখানকার ওয়ার রুম থেকেই তালিকা ধরে যাত্রীদের খুঁজে বের  করে টেস্ট করানো, তাঁদের সংস্পর্শে আসা লোকজনের সন্ধান শুরু  হবে। ওয়ার রুম থেকে হোম কোয়ারেন্টনে থাকা যাত্রীদের দিনে ৫ বার ফোন করা হবে। তাঁদের উপসর্গের ব্যাপারে প্রশ্ন করা হবে, বলা হবে যাতে সাতদিন বাড়িতেই থাকেন। প্রটোকল ঠিকঠাক মানা হচ্ছে, সুনিশ্চিত  করতে ওই যাত্রীদের বাড়িতেও যাবেন পুরকর্মীরা। হাউসিং সোসাইটিও এমন কোনও বিদেশ থেকে ফেরা আবাসিক নিয়ম না মানলে ওয়ার রুমে জানাতে পারবেন। হোম  কোয়ারান্টিনের সপ্তম দিনে ওয়ার রুমের কর্মী বিমানযাত্রীকে আরটি-পিসিআর টেস্ট করতে বলবেন। তাঁর শরীরে কোনও উপসর্গ দেখা  গেলেই বা টেস্টে তিনি পজিটিভ হলে সঙ্গে সঙ্গে চিকিত্সার জন্য বিএমসির কেন্দ্রে নিয়ে যাওয়া হবে। মুম্বইয়ে ঝুঁকিপূর্ণ দেশ থেকে আসা ১৪ জন এপর্যন্ত কোভিড ১৯ পজিটিভ হয়েছেন। তাঁদের নমুনা সংগ্রহ করে জেনোম সিকোয়েন্সিংয়ের জন্য পাঠানো হয়েছে।

You might also like