Latest News

বাবা চলে গেলেন বিবাহবার্ষিকীর দিনই! বরবেশে সাজিয়ে শ্মশানে কেক কাটলেন ছেলে

দ্য ওয়াল ব্যুরো, নদিয়া: বিবাহবার্ষিকীর দিনটাতেই চলে গেলেন বাবা (Father)। মা গেছেন আগেই। শ্মশানে মৃতদেহ সৎকার করতে গিয়ে একমাত্র ছেলের কাতর আর্তনাদ, ‘নিজের বলতে আর কেউ রইল না’।

বিবাহবার্ষিকীর দিনেই বাবার এই মৃত্যু কিছুতেই মেনে নিতে পারেননি নবদ্বীপের (Nabadwip) বাসিন্দা রৌমদীপ। তাঁর মা বছর চারেক আগেই প্রয়াত হয়েছেন। বাবাকেও হারিয়ে শোকে মুষড়ে পড়েছেন তাই। আর বাবার এই মৃত্যুর দিনটায় একটু অন্যরকম আয়োজনও করেছেন তিনি।

বাবার বিবাহবার্ষিকীর দিনটা পালন করার ইচ্ছে ছিল তাঁর। কিন্তু বিধি বাম। সেই দিনেই পরলোকে পাড়ি দিয়েছেন দেবাশিস চক্রবর্তী। তাই শ্মশানেই চোখের জলে ভিজে বিবাহবার্ষিকী পালন করেছেন ছেলে। বাবার মৃতদেহ সাজিয়েছেন বরবেশে। কেক কেটে নিথর বাবার মুখেও তুলে দিয়েছেন এক টুকরো। তারপর জ্বলে উঠেছে শ্মশানের চিতা।

নবদ্বীপ শ্মশানে এমনই অভিনব এবং মর্মান্তিক দৃশ্য ফুটে উঠেছে শুক্রবার রাতে। জানা গেছে রৌমদীপের বাবা পেশায় শিক্ষক ছিলেন। বয়স হয়েছিল ৫৮ বছর। কিছুদিন আগে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে তিনি হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন। সেখানেই তাঁর মৃত্যু হয়েছে। চার বছর আগে ক্যানসারে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয় রৌমদীপের মা রুমা চক্রবর্তীর। মাকেও বিয়ের সাজে শেষযাত্রায় নিয়ে গিয়েছিলেন ছেলে। বাবাকেও একইভাবে বিদায় জানালেন তিনি।

আরও পড়ুন: ফালাফালা করে প্রাক্তন স্ত্রীর গলা কাটল যুবক! আদালতের মধ্যেই নৃশংস হত্যাকাণ্ড

You might also like