Latest News

বরফ গলল, মিলল সমাধানসূত্র, ইমামি- ইস্টবেঙ্গল চুক্তিতে সই চলতি সপ্তাহেই

দ্য ওয়াল ব্যুরো: অবশেষে লাল হলুদ সমর্থকদের মধ্যে স্বস্তি মিলছে। চলতি সপ্তাহের মধ্যেই ইস্টবেঙ্গল (East Bengal) ও ইমামি (Emami) গ্রুপের মধ্যে চূড়ান্ত চুক্তিপত্রে স্বাক্ষর হতে চলেছে।

কয়েকদিন ধরেই এই নিয়ে তুমুল টালবাহানা চলেছে। দুই পক্ষের মধ্যে নানা বিবৃতিতে বিষয়টি আরও জটিল হয়ে গিয়েছিল। কিন্তু শুরু থেকেই ইমামি গ্রুপের ম্যানেজিং ডিরেক্টর আদিত্য আগরওয়াল ইতিবাচক মানসিকতা দেখিয়ে এসেছেন। তিনি বরাবর বলে এসেছেন, আমরা খসড়া চুক্তিপত্র ক্লাবে পাঠিয়ে দিয়েছি। ক্লাব কর্তারা আলোচনা করে আমাদের জানালেই আমরা চুক্তিতে সই করে দেব। সেটি নিয়ে কোনও সমস্যা হবে না।

শাহরুখের সঙ্গে দেখা করেও কেকেআরের দায়িত্ব নেননি পন্ডিত! রহস্য ফাঁস রঞ্জিজয়ী কোচের

হলও না, ক্লাব প্রশাসন খসড়া চুক্তিপত্র পাঠিয়েছিল আইনজীবীর কাছে। তাঁদের থেকে ইতিবাচক সাড়া পাওয়ার পরে সিদ্ধান্ত হয়েছে, ইমামির সঙ্গে আপাতত পাঁচবছরের চুক্তিতে স্বাক্ষর করা হবে।

ইমামিদের আগরওয়াল পরিবারে বিয়ের দিন রয়েছে ১ জুলাই। মনে করা হচ্ছে, সেদিনই সকালে চুক্তিতে স্বাক্ষর হতে পারে দু’পক্ষের মাধ্যমে। লাল হলুদ কর্তারাই বরং আদিত্য আগরওয়ালের ভাইপোর বিয়ে নিয়ে বেশি ভাবছিলেন। তাঁরা মনে করছিলেন, বিয়ে পর্ব মিটে গেলে ৭ জুলাইয়ের পরে চুক্তিতে সই হতে পারে।

যদিও ক্লাবের দলগঠন পিছিয়ে যাচ্ছে এটা ধরেই নিয়েই ইমামি গ্রুপের আধিকারিকরা আর দেরি করতে রাজি নন। সেই হিসেবে এদিনই বিকেলে ইমামি মিডিয়া গ্রুপের মাধ্যমে জানিয়ে দেওয়া হয়েছে, দুই পক্ষের মধ্যে সদর্থক আলোচনা হয়েছে, তার ভিত্তিতে দ্রুত দুই পক্ষের মধ্যে সম্পর্ক গড়ে উঠবে। এতেই বোঝা যায়, দুটি বিষয় নিয়ে সমস্যা ছিল, সেটি মিটে গিয়েছে।

ইমামির দাবি ছিল ৮০ শতাংশ ফুটবল রাইটসের ভাগ থাকবে তাদের দিকে। বাকি ২০ শতাংশ ক্লাবের। কিন্তু ঠিক হয়েছে, শেয়ার ছাড়া হবে ৭৬ শতাংশ। আর ক্লাবের দাবি মেনেই তিন সদস্য কোম্পানির বডিতে থাকবে।

মঙ্গলবার ইস্টবেঙ্গলের তরফে নামী কর্তা দেবব্রত সরকার সরকারি বিবৃতিতে বলেছেন, ‘‘আমরাও চাইছি সুন্দর একটা পরিবেশে সুন্দর চুক্তি হোক। ক্লাব এবং কোম্পানি, উভয়পক্ষকে সুরক্ষিত রেখে আইনানুগ ভাবে যেটা ভাল হবে, আগামীদিনের পথ চলার পথ সুগম হবে, সেরকম একটা চুক্তি আমরাও চাইছি। সভ্য সমর্থকদের আনন্দ দিতে এবং দ্রুত ভাল ফুটবল দল গঠন করে ভাল ফল করাটাই মুখ্য বিষয়। সেটাই আমাদের একমাত্র স্বপ্ন। আমরা আশা করছি খুব তাড়াতাড়ি এটা সম্পূর্ণ হবে, তার কারণ আমরাও খুব দ্রুততার সঙ্গে ওনাদের ফিডব্যাক দিয়েছি।’’

You might also like