Latest News

ছিলেন অটোচালক, এখন রাজ্য চালাবেন

দ্য ওয়াল ব্যুরো: মহারাষ্ট্রের (Maharashtra) ৩০ তম মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে শপথ নিলেন একনাথ শিন্ডে (Eknath Shinde)। ৫৮ বছর বয়সি শিবসেনার এই নেতার মুখ্যমন্ত্রী হওয়ার মতোই রাজনীতিতে উত্থান নাটকীয়তায় ভরা। অল্প বয়সে ছিলেন অটোচালক। আজ থেকে রাজ্য চালাবেন।

মহারাষ্ট্রের সাতারা জেলার বাসিন্দা শিন্ডের বেড়ে ওঠা থানে শহরে। সেখানকার মিউনিসিপ্যাল কর্পোরেশনের কমিশনার ছিলেন এক দফা। সেখানেই ক্রমে শিবসেনার সামনের সারিতে চলে আছেন। সেখান থেকে রাজ্যের নেতা ও মন্ত্রী।

তবে শিবসেনায় যোগদান মুম্বইয়ে এসে। সাধারণ পরিবারের সন্তান একনাথকে অল্প বয়সে সংসারের হাল ধরতে হয়েছিল। একটা সময় পর্যন্ত থানে শহরে অটো চালাতেন। রোজগার বাড়াতে চলে আসেন মুম্বই। সেখানেই শিবসেনার লোকজনের সঙ্গে ওঠাবসা শুরু। ক্রমে দলের ভাবধারা আচ্ছন্ন করে তাঁকে। নিজের শহরে ফিরে গিয়ে পুরোমাত্রায় রাজনীতিতে জড়িয়ে পড়েন।

চারবারের বিধায়ক শিন্ডে একটা সময় কঠিন মানসিক অবসাদের শিকার হয়েছিলেন দুই কিশোর পুত্রের লেকের জলে ডুবে মারা যাওয়ার পর। বেশ কয়েকমাস ঘরবন্দি থাকার পর স্বাভাবিক জীবনে ফেরার পাশাপাশি আরও বেশি করে রাজনীতিতে জড়িয়ে পড়েন। ২০০৫-এ শিবসেনা ছেড়ে বেরিয়ে যান বাল ঠাকরের ভাইপো রাজ। মহারাষ্ট্র নব নির্মাণ সেনা নামে দল গড়েন রাজ। সেই দলে উত্থান ঠেকাতে বালাসাহেবের জেনারেলদের একজন ছিলেন একনাথ। ২০০৪ থেকে চারবার বিধায়ক হন। তাঁর চিকিৎসক পুত্র শ্রীকান্ত বর্তমানে শিবসেনার লোকসভার সদস্য।

২০১৯-এ বিজেপির সঙ্গ ছেড়ে শিবসেনা হাত ধরে কংগ্রেস ও এনসিপির। জোট সরকারের মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে তখনই শিন্ডের নামে সিলমোহর পড়েছিল শিবসেনায়। কিন্তু শেষ মুহূর্তে মুখ্যমন্ত্রী হন উদ্ধব। মন্ত্রিসভায় গুরুত্বপূর্ণ দফতরের ভার পেলেও গোড়া থেকেই শিন্ডে অভিযোগ করে আসছিলেন, তাঁকে গুরুত্বহীন করে রাখা হয়েছে। তাঁর নগরোন্নয়ন দফতরকে টাকা দেওয়া হচ্ছে না। ফলে কাজ করতে পারছেন না। ক্রমে শিন্ডের সঙ্গে অভিজ্ঞতা মিলে যায় আরও অনেকের। তলে তলে তাঁরা একজোট হতে শুরু করেন। তাঁদেরই আচমকা বিদ্রোহে গদিহারা শিবসেনা প্রধান উদ্ধব ঠাকরে। তবে আর একজন শিব সৈনিকই হলেন নতুন মুখ্যমন্ত্রী।

আরও পড়ুন: ফের কিং হওয়ার মুখে কেন কিং মেকার বনে গেলেন ফড়নবিস

You might also like