Latest News

দিল্লিতে সাত মাস পরে সংক্রমণ ছাড়াল হাজার, মুম্বইতে কোভিডে মৃত ২২

দ্য ওয়াল ব্যুরো : বৃহস্পতিবার বিকালে জানা যায়, তার আগের ২৪ ঘণ্টায় দিল্লিতে (Delhi) কোভিডে আক্রান্ত (Covid Infection) হয়েছেন ১৩১৩ জন। সাত মাস পরে রাজধানীতে দৈনিক সংক্রমণের সংখ্যা হাজার ছাড়াল। বুধবারের তুলনায় এদিন সংক্রমণের সংখ্যা ৪২ শতাংশ বেশি। বাণিজ্যনগরী মুম্বইতে (Mumbai) ২৪ ঘণ্টায় সংক্রমণ বেড়েছে ৪৬ শতাংশ। সেখানে গত ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত হয়েছেন ৩৬৭১ জন। মারা গিয়েছেন ২২ জন।

দিল্লি সরকার জানিয়েছে, সেখানে গত ২৪ ঘণ্টায় কোভিডে কারও মৃত্যু হয়নি। রাজধানীতে এখন পজিটিভিটি রেট ১.৭৩ শতাংশ। গত ২৬ মে দিল্লিতে ১৪৯১ জন কোভিডে আক্রান্ত হয়েছিলেন। তখন পজিটিভিটি রেট ছিল ১.৯৩ শতাংশ। মারা গিয়েছিলেন ১৩০ জন।

বুধবার রাজধানীতে কোভিডে আক্রান্ত হন ৯২৩ জন। মঙ্গলবারের তুলনায় এদিন সংক্রমণ বেড়েছিল ৮৬ শতাংশ। ৩০ মে-র পরে আর কখনও দিল্লিতে একইদিনে এত বেশি মানুষ কোভিডে আক্রান্ত হননি।

বৃহস্পতিবারই কেন্দ্রীয় সরকার থেকে আটটি রাজ্যকে চিঠি দিয়ে বলা হয়েছে, কোভিডের আচমকা সংক্রমণ বৃদ্ধি ঠেকাতে যেন যথেষ্ট ব্যবস্থা নেওয়া হয়। দিল্লি ও মুম্বই বাদে এদিন অন্যান্য শহরেও কোভিড সংক্রমণ বেড়েছে। গুজরাতের আমেদাবাদ, রাজকোট এবং সুরাটে গত এক সপ্তাহে কোভিড আক্রান্তের সংখ্যা বেড়েছে ব্যাপক হারে। ঝাড়খণ্ডের রাঁচি, কর্নাটকের বেঙ্গালুরু, হরিয়ানার গুরগাঁও, তামিলনাড়ুর চেন্নাই, মহারাষ্ট্রের পুনে, থানে, নাগপুর এবং পশ্চিমবঙ্গের কলকাতায় আচমকা বৃদ্ধি পেয়েছে সংক্রমণ।

বিশেষজ্ঞরা কোভিড সংক্রান্ত তথ্য বিশ্লেষণ করে জানিয়েছেন, মার্চ-এপ্রিলে দ্বিতীয় ওয়েভের সময় যে হারে সংক্রমণ বেড়েছিল, এখন বাড়ছে তার ২১ শতাংশ বেশি হারে। চলতি সপ্তাহের শুরুতে কোভিড মোকাবিলায় দিল্লিতে জারি করা হয় হলুদ সতর্কতা। একইসঙ্গে ফোর স্টেজ গ্রেডেড রেসপন্স (গ্রাপ) ঘোষণা করে সরকার। সম্ভাব্য থার্ড ওয়েভের আশঙ্কায় স্কুল-কলেজ বন্ধ করে দেওয়া হয়। বেসরকারি অফিসগুলিকে বলা হয়, মোট কর্মীসংখ্যার ৫০ শতাংশ অফিসে আসতে পারবেন।

You might also like