Latest News

বাড়ছে ডেবিট কার্ড প্রতারণা, জেনে নিন রক্ষা পাবেন কীভাবে

দ্য ওয়াল ব্যুরো : গত কয়েক বছরে দ্রুত বদলে গিয়েছে ভারতের ব্যাঙ্কিং সেক্টর (Banking Sector)। এটিএম কার্ড (ATM Card), ডেবিট কার্ড (Debit Card) ও ক্রেডিট কার্ডের (Credit Card) ব্যবহার আগের চেয়ে বেড়েছে বহু গুণ। ডিজিটালাইজেশনের যুগে অনেকেই এখন অনলাইনে পেমেন্ট করতে পছন্দ করেন। ফলে গত কয়েক বছরে ডেবিট কার্ডের ব্যবহার বেড়েছে সবচেয়ে বেশি। সেই সঙ্গে বাড়ছে ডেবিট কার্ড প্রতারণা। ডেবিট কার্ডের গ্রাহক যাতে প্রতারণার শিকার না হন, সেজন্য নির্দিষ্ট অথেন্টিকেশন প্রসেস আছে। কিন্তু গ্রাহক সম্পর্কে জরুরি তথ্য জানার জন্য নানা রাস্তা বার করেছে জালিয়াতরা। সেজন্য যে কোনও পেমেন্ট বা অনলাইন ট্রানজাকশন করার সময় এখন আগের চেয়ে বেশি সতর্ক থাকতে হয়।

কীভাবে প্রতারকদের থেকে সতর্ক থাকবেন, সেজন্য এখানে রইল কিছু টিপস।

  • ভুলেও পিন ও সিভিভি নম্বর কারও সঙ্গে শেয়ার করবেন না।

ডেবিট কার্ড ব্যবহার করার জন্য দু’টি নম্বরের প্রয়োজন হয় সবচেয়ে বেশি। সিভিভি নম্বর ও পিন নম্বর। এই দুই নম্বর ছাড়া ডেবিট কার্ডে পেমেন্ট করা সম্ভব নয়। কেউ যদি ব্যাঙ্কের নামে ফোন করে পিন নম্বর চায়, কখনও দেওয়া উচিত নয়। মনে রাখতে হবে, ব্যাঙ্কের কোনও পরিষেবার জন্য পিন নম্বর চাওয়া হয় না। সিভিভি নম্বর সম্পর্কেও একইরকম সতর্কতা অবলম্বন করা প্রয়োজন।

  • আপনার যদি পার্সোনাল লোন প্রয়োজন হয়, সেজন্য আধার কার্ড ও প্যান কার্ডের সাহায্য নিন। ব্যাঙ্কের মাসিক স্টেটমেন্টের ওপরেও নজর রাখুন।

এখন হ্যাকাররা অনেক স্মার্ট টেকনিক ব্যবহার করে। তারা অনেকসময় একসঙ্গে বেশি টাকা চুরি করে না। অল্প অল্প করে অন্যের টাকা হাতিয়ে নেয়। এই প্রতারণা এড়ানোর জন্য নিজের ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টের ওপরে নজর রাখতে হয়। ব্যাঙ্ক স্টেটমেন্ট পরীক্ষা করার সময় যদি অজানা কোনও ট্রানজাকশন চোখে পড়ে, অবিলম্বে ব্যাঙ্কের সঙ্গে যোগাযোগ করতে হবে। এছাড়া নিজের রেজিস্টার্ড মোবাইল নম্বরের ওপরেও নজর রাখা প্রয়োজন। সেখানে কোনও অজানা ট্রানজাকশনের নেসেজ এলে দ্রুত ব্যাঙ্কের সঙ্গে যোগাযোগ করতে হবে।

You might also like