Latest News

শহরে বাড়ছে নানা রকম অপরাধ, উদ্বিগ্ন পুলিশ কমিশনার! ক্রাইম বৈঠকে নির্দেশ সতর্কতার

দ্য ওয়াল ব্যুরো: শহরে বাড়ছে অপরাধ, উদ্বিগ্ন খোদ পুলিশ কমিশনার। সোমবারের ক্রাইম বৈঠকে এমন ছবিই ধরা পড়ল লালবাজারের অন্দরে। পুলিশ কমিশনার তথা নগরপাল অনুজ শর্মা উদ্বেগ প্রকাশ করে জানান, গত এক মাসে এক লাফে অনেকটা বেড়েছে চুরিচামারি। শুধু শেষ দশ দিনেই এই সংখ্যাটা দশেরও বেশি। অর্থাৎ প্রতি দিন, গড়ে, শহরের বুকে একাধিক অপরাধ ঘটে চলেছে– এ কথা বলছে লালবাজারের পরিসংখ্যানই।

বেহালা থেকে বেলেঘাটা, কড়েয়া থেকে নেতাজিনগর– সারা শহর জুড়েই যেন এখন বেড়ে চলেছে চোরদের আধিপত্য। দিনে হোক বা রাতে, দুপুরে হোক বা সন্ধেয়, নানা রকম অভিনব রায়দায় ঘরের ভিতর থেকে হাপিস হয়ে যাচ্ছে, ল্যাপটপ, ঘড়ি, মোবাইল, গয়না, টাকাপয়সা। কখনও আবার লুঠ হয়ে যাচ্ছে কোনও মন্দিরের প্রণামী বাক্স। বাদ নেই বিভিন্ন হস্টেলগুলিও।

সোমবারের বৈঠকে এই রকম চুরির সংখ্যা বাড়তে থাকা নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করে অনুজ শর্মা বিভিন্ন থানা এবং গোয়েন্দা বিভাগের চুরি দমন শাখার অফিসারদের বিশেষ করে সতর্ক হতে নির্দেশ দেন। চুরির ঘটনাগুলির দ্রুত কিনারা করে চোরদের পাকড়াও করারও নির্দেশ দেন পুলিশ কমিশনার। লালবাজারের গোয়েন্দা বিভাগের এক আধিকারিক জানান, প্রতি বছরই বর্ষার সময় থেকে পুজো পর্যন্ত চুরির অভিযোগ বাড়ে শহর জুড়ে। রাজ্যের বাইরে থেকে চোরের দল এসে ঘাঁটি গাড়ে এই শহরে। ইদানীং চোরের দল আসে বাংলাদেশ থেকেও। ২০১৭ এবং ২০১৮ সালে এ রকম একাধিক চুরি এবং ধরা পড়ে যাওয়ার ভয়ে খুনের ঘটনা ঘটে যায়। তাই এ বছর গোড়া থেকেই সক্রিয় ও সতর্ক হতে নির্দেশ নগরপালের।

এ দিনের বৈঠকে অনুজ শর্মা অবশ্য পুলিশের প্রশংসাও করেছেন পথ নিরাপত্তা রক্ষা করার জন্য। বেপরোয়া বাইকের গতি রোখার ক্ষেত্রে পুলিশের লাগাতার অভিযানকে সাফল্য হিসেবে বর্ণনা করেন নগরপাল। জানান, এই ভাবেই এই অভিযান চালিয়ে যেতে হবে। নগরপাল ইঙ্গিত দেন, কলকাতা পুলিশের এই অভিযান নিয়ে প্রশংসা এসেছে খোদ নবান্ন থেকেও।

এ ছাড়াও এ দিনের বৈঠক গুরুত্বপূর্ণ ছিল আসন্ন ২১ জুলাইয়ের জন্য। ওই দিন শাসক দলের বৃহত্তম সমাবেশ নিয়ে সমস্ত আধিকারিকদের আগাম প্রস্তুতির নির্দেশ দেন নগরপাল। জানা গেছে, শহিদ দিবস উপলক্ষে এ সপ্তাহের মাঝামাঝি থেকেই বিভিন্ন জেলা থেকে তৃণমূলের কর্মী ও সমর্থকেরা জমায়েত করতে শুরু করবেন শহরে। তাই আগে থেকেই পর্যাপ্ত পুলিশি ব্যবস্থা এবং নজরদারির নির্দেশ দেন পুলিশ কমিশনার অনুজ শর্মা।

You might also like