Latest News

কোভিশিল্ডের পর কোভ্যাকসিনও! ২০০ টাকা দাম কমালো ভারত বায়োটেক

দ্য ওয়াল ব্যুরো: কোভিশিল্ডের পর এবার কোভ্যাকসিনও! পর পর কমল দুই টিকার দামই। গতকাল রাজ্য গুলির জন্য কোভিশিল্ডের নির্ধারিত দাম কমানোর কথা জানিয়েছিলেন সিরাম ইনস্টিটিউট কর্তা আদার পুনাওয়ালা। আজ সেই পথেই হাঁটল আরেক ভ্যাকসিন প্রস্তুতকারী সংস্থা ভারত বায়োটেক।

রাজ্য গুলির জন্য কোভ্যাকসিনের প্রতি ডোজের দাম দাম ৬০০ টাকা ধার্য করা হয়েছিল। আজ তা ২০০ টাকা কমিয়ে দেওয়া হয়েছে। সুতরাং এবার কোভ্যাকসিন ৪০০ টাকাতেই কিনতে পারবে রাজ্য। এছাড়া বেসরকারি হাসপাতাল গুলির জন্য কোভ্যাকসিনের একটি ডোজের দাম করা হয়েছে ১২০০ টাকা।

এদিকে গতকাল কোভিশিল্ডের নির্ধারিত দাম কমানোর কথা জানিয়েছিলেন পুণের সিরাম ইনস্টিটিউটের কর্ণধার আদার পুনাওয়ালা। কথা ছিল রাজ্য গুলি ৪০০ টাকা দিয়ে কোভিশিল্ড ভ্যাকসিনের এক-একটি ডোজ কিনবে। গতকাল টুইট করে সিরাম কর্তা জানান, মানবিক কারণেই এই দাম তিনি ১০০ টাকা কমিয়ে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। রাজ্য গুলির জন্য কোভিশিল্ডের নতুন দাম হবে ৩০০ টাকা।

যদিও কেন্দ্রের নির্ধারিত দামে কোনও হেরফের করা হয়নি। এখনও ১৫০ টাকা দিয়েই কোভিশিল্ড কিনবে কেন্দ্র সরকার। রাজ্য ও কেন্দ্রের ক্ষেত্রে দামের এই বৈষম্য নিয়ে নানা প্রশ্ন ওঠে। রাজ্য গুলির তরফে এর বিরোধিতাও করা হয়। অনেকের মতে সমালোচনার মুখেই দাম কমানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে ভ্যাকসিন নির্মাতা সংস্থা সিরাম। এবার ভারত বায়োটেকও সেই পথে হাঁটল।

এদিন সংস্থার তরফে বিবৃতি দিয়ে বলা হয়েছে, “ভারত বায়োটেক বর্তমান করোনা পরিস্থিতি নিয়ে গভীরভাবে উদ্বিগ্ন। সব দিক বিবেচনা করে আমরা রাজ্য সরকারগুলির জন্য কোভ্যাকসিনের দাম ৪০০ টাকা প্রতি ডোজ ধার্য করেছি।” রাজ্য গুলির তরফে অর্ধেক পরিমাণ কোভিশিল্ড এবং অর্ধেক পরিমাণ কোভ্যাকসিন অর্ডার দেওয়া হয়েছে।

You might also like