Latest News

ইস্টবেঙ্গলকে টেনে তোলার দায়িত্বে কঠিন পরীক্ষায় নামছেন কোচ রেনেডি

দ্য ওয়াল ব্যুরো: খাদের কিনারায় দাঁড়িয়ে রয়েছে ইস্টবেঙ্গল। গত ৮টি ম্যাচে জয় নেই, চারটি হার ও চারটি ড্র। মঙ্গলবার আইএসএলে বেঙ্গালুরু এফসি-র বিপক্ষে নয় নম্বর ম্যাচটি খেলতে নামছে। ম্যানুয়েল দিয়াজ দলের বারোটা বাজিয়ে চলে গিয়েছেন। তিনি থাকলে সমর্থকরা আবারও শঙ্কায় থাকতেন আরও একটি হার দেখার আশায়। কিন্তু এবার নতুন কোচ রেনেডি সিং। তিনি চাকা ঘোরানোর স্বপ্নে মশগুল।

রেনেডি লাল হলুদের একটা সময় মাঝমাঠের স্তম্ভ ছিলেন। তিনি দলের নেতাও হয়েছেন, এবার নতুন ভূমিকায় মেলে ধরার পালা। দলের হেডস্যার নিযুক্ত হয়ে গিয়েছেন মারিও রিভেরা। কিন্তু রেনেডি চান অন্তর্বতীকালীন কোচ হিসেবে চমক দেখাতে। মারিও এলে রেনেডি ফের সহকারী হয়ে যাবেন, তারপরেও কঠোর পরিশ্রম করে দলের সাফল্য চাইছেন।

সোমবার দলের প্র্যাকটিসের পরে মিডিয়া সম্মেলনে তিনি বলেছেন, ‘‘আমাদের এগিয়ে যেতে হবে। এর আগে হায়দরাবাদের বিরুদ্ধে খেলেছিলাম, সেই ম্যাচে খারাপ খেলিনি আমরা। পরের তিন-চারটে ম্যাচে আমি দলের দায়িত্বে থাকব। ছ’দিন সময় পেয়েছি ছেলেদের সঙ্গে কাজ করার জন্য। ওরা এই ক’দিন খুবই পরিশ্রম করেছে। আমি সেজন্য খুশি। এটা ধরে রাখতে হবে এবং এই ম্যাচে লড়াই করতে হবে। গত পাঁচ-ছ’দিনে আমাদের ছেলেরা যা করেছে, কালকের ম্যাচে সেটাই করে দেখাতে হবে।’’

রেনেডির কথায়, ‘‘ইস্টবেঙ্গলের পক্ষে এই ফল মানা যায় না, কেউ মানতে পারবে না, আমিও নয়। আমার কাছে এটা বড় চ্যালেঞ্জ, কঠিনও। আমরা যে আরও ভাল খেলতে পারি, তার প্রমাণ দেওয়ার সবচেয়ে ভাল সময় এটা। আমাদের মাঠে স্বাভাবিক থেকে এর জবাব দিতে হবে। কঠিন। কিন্তু আমরা পারব।’’

রেনেডি মানছেন দলের ফুটবলাররা মানসিকভাবে ভেঙে পড়েছিল। তাঁদের সঙ্গে কথা বলে হালকা করেছেন পরিবেশ। তাই সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে প্রাক্তন মিডিও বলেছেন,  খেলোয়াড়রা হতাশ হয়ে পড়লে তাদের মানসিকভাবে চাঙ্গা করা সোজা নয়। তবে গত ছ’দিন ধরে ছেলেদের মধ্যে যে স্বতঃস্ফূর্ত আচরণ দেখছি প্র্যাকটিসে, তাতে অভিযোগ করার জায়গা নেই। আমি চাই এই পরিশ্রমগুলো ওরা ম্যাচে করুক। একদিনে তো আর সব বদলে দেওয়া যায় না। সময় লাগে। তবে আমাদের এক থাকতে হবে, দল হিসেবে লড়তে হবে।’’

 

You might also like